× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতা
ঢাকা, ২০ জানুয়ারি ২০২১, বুধবার

সুমন রেজার পর ইয়াসিনের কপালে চার সেলাই

খেলা

স্পোর্টস রিপোর্টার
৩০ নভেম্বর ২০২০, সোমবার

করোনায় দলের সঙ্গে কাতার জেতে পারেননি হেড কোচ জেমি ডে। ঢাকার এক হোটেলে আইসোলেশনে রয়েছেন এই বৃটিশ কোচ। তার অবর্তমানে কাতারে দুটি প্রস্তুতি ম্যাচ খেলেছে বাংলাদেশ। কাতারের দ্বিতীয় সারির দলের সঙ্গে খেলা দুই ম্যাচেই হেরেছে জামাল-সুফিলরা। আবার এই প্রস্তুতি ম্যাচের আগে পরে মিলিয়ে ইনজুরিতে পড়েছেন গুরুত্বপূর্ণ দুই ফুটবলার। প্রথম ম্যাচের আগের রাতে বাথরুমে পরে গিয়ে মাথায় আঘাত পেয়েছেন ফরোয়ার্ড সুমন রেজা। শনিবারের ম্যাচে মাথায় আঘাত পেয়ে মাঠ ছাড়েন ডিফেন্ডার ইয়াসিন খান।
৪ঠা ডিসেম্বর স্বাগতিকদের বিপক্ষে বাছাই পর্বের ম্যাচে মাঠে নামবে জামাল ভূঁইয়ারা।
এই ম্যাচকে সামনে রেখেই দুটি প্রস্তুতি ম্যাচ খেলে বাংলাদেশ, যার প্রথমটি হয়েছে বুধবার। এই ম্যাচে খেলার কথা ছিল তরুণ স্ট্রাইকার সুমন রেজার। কিন্তু মাঠে যাওয়ার আগে হোটেলের বাথরুমে পিছলে হাতে চোট পান বারিধারার এই খেলোয়াড়। হাসপাতালে নেয়ার পর তার ডান হাতে তিনটি সেলাই পড়ে। এই কারণে কাতার আর্মির বিপক্ষে প্রথম প্রস্তুতি ম্যাচে খেলা হয়নি তার। প্রস্তুতির পর্বের শুরুটা ভালো হয়নি বাংলাদেশের। এগিয়ে গিয়েও ম্যাচটি হারতে হয় ৩-২ গোলে। আপাতত ৭ দিনের পর্যবেক্ষণে আছেন এই ফুটবলার। দোহা থেকে নিজের বর্তমান অবস্থা জানিয়ে সুমন রেজা বলেন, আপাতত দলের সঙ্গে অনুশীলন করতে পারছি না। প্রতিদিন মাঠে যাচ্ছি, তবে সেখানে বসেই থাকতে হচ্ছে। এখন দেখি সাতদিন পর ডাক্তার কি সিদ্ধান্ত নেন।’ এদিকে শনিবার দোহায় নিজেদের দ্বিতীয় প্রস্তুতি ম্যাচে লুসাইল ক্লাবের বিপক্ষে ১-০ গোলে হারে বাংলাদেশ দল। হারের সঙ্গে জুটেছে গুরুত্বপূর্ণ ডিফেন্ডার ইয়াসিন খানের চোটও। ম্যাচে গুরুতর আহত হয়ে তার চোখের ওপরের অংশে সেলাই পড়েছে চারটি। বিষয়টি কাতার থেকে নিশ্চিত করেছেন ইয়াসিন খান নিজেই। ম্যাচের দ্বিতীয়ার্ধে বদলি হিসেবে মাঠে নামেন সেন্টারব্যাক ইয়াসিন। বাতাসে বলের দখল নিতে প্রতিপক্ষ এক খেলোয়াড়ের সঙ্গে লাফিয়ে উঠলে সংঘর্ষে চোখের ওপরের অংশে কেটে যায় তার। ম্যাচ শেষে হাসপাতালে নেয়া হয় ইয়াসিনকে। ইয়াসিন খান বলেন, ‘আরেকটু হলে বড় দুর্ঘটনা হতে পারত। আল্লাহর রহমতে চোখটা বেঁচে গেছে।’ আজ অনুশীলনে যোগ দিতে পারবেন বলে জানিয়েছেন তিনি। কাতারের বিপক্ষে ম্যাচে অভিজ্ঞ এই সেন্টারব্যাককে পাওয়া যাওয়া নিয়ে শঙ্কা নেই বলে জানিয়েছেন দলের কর্মকর্তারাও। গত বছরের অক্টোবরে কলকাতায় অনুষ্ঠিত ভারতের বিপক্ষে বিশ্বকাপ ও এশিয়ান কাপ বাছাইপর্বের ম্যাচে কপাল ফেটে গিয়েছিল ইয়াসিনের। সেবার সেলাই পড়েছিল তিনটি।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর