× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতা
ঢাকা, ২৩ জানুয়ারি ২০২১, শনিবার

মাস্ক ব্যবহারে সচেতনতা বাড়াতে ওসি’র প্রচারণা

বাংলারজমিন

পাকুন্দিয়া (কিশোরগঞ্জ) প্রতিনিধি
২ ডিসেম্বর ২০২০, বুধবার

করোনাভাইরাস প্রতিরোধে মাস্ক ব্যবহারে সচেতনা বাড়াতে প্রচারণা চালিয়েছে কিশোরগঞ্জের পাকুন্দিয়া থানা পুলিশ। ‘মাস্ক পরিধান ব্যতীত যাত্রী পরিবহন নিষেধ’, ‘নো মাস্ক-নো এন্ট্রি’Ñ লেখা সংবলিত স্টিকার সিএনজি-অটোরিকশাসহ অন্যান্য পরিবহন, ব্যবসা প্রতিষ্ঠান ও জনগুরুত্বপূর্ণ পয়েন্টে লাগিয়ে এমন প্রচারণা চালিয়েছে থানা পুলিশ।
গতকাল সকাল ১১টার দিকে পাকুন্দিয়া সাব-রেজিস্ট্রি অফিস সংলগ্ন পাকুন্দিয়া-কিশোরগঞ্জ সড়কের সিএনজি-অটোরিকশা স্ট্যান্ডে প্রচারণা শুরু করেন পাকুন্দিয়া থানার ওসি মো. সারোয়ার জাহান।
করোনাভাইরাস প্রতিরোধে জনসচেতনতা বৃদ্ধির লক্ষ্যে মাস্ক ব্যবহার বাধ্যতামূলক করতেই এমন প্রচারণা চালানো হয়েছে বলে জানা গেছে। এছাড়াও পৌর সদর বাজারের বিভিন্ন ব্যবসা প্রতিষ্ঠান, দোকানপাট ও জনগুরুত্বপূর্ণ স্থানে স্টিকার লাগিয়ে ও লোকজনের মাঝে সচেতনতামূলক লিফলেট বিতরণ করা হয়েছে।
পাকুন্দিয়া পৌর এলাকার সাব-রেজিস্ট্র্রি অফিসের সামনে অবস্থিত সিএনজি-অটোরিকশা স্ট্যান্ড থেকে কার্যক্রম শুরু হয়। সিএনজি, অটোরিকশা ও অন্যান্য পরিবহনে ‘নো মাস্ক, নো এন্ট্রি’, ‘মাস্ক পরিধান ব্যতীত যাত্রী পরিবহন নিষেধ’Ñ লেখা সংবলিত স্টিকার লাগানো হয়। এ সময় উপস্থিত যাত্রী-চালক ও লোকজনের উপস্থিতিতে করোনাভাইরাস প্রতিরোধে করণীয়, সতর্কতা, মাস্ক ব্যবহার বাধ্যতামূলক, গাড়িচোর রোধসহ বিভিন্ন বিষয়ে কথা বলেন ওসি।
পরে পাকুন্দিয়া পৌরসদর বাজারের বিভিন্ন ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে স্টিকার ও লিফলেট বিতরণ করা হয়।
পাকুন্দিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. সারোয়ার জাহান বলেন, করোনাভাইরাসের দ্বিতীয় ঢেউ মোকাবিলায় বাংলাদেশ পুলিশ বিভিন্ন সচেতনতামূলক কার্যক্রম পরিচালনা করছে। মাস্ক পরিধানে লোকজনকে সচেতন করার লক্ষ্যে সচেতনামূলক স্টিকার ও লিফলেট বিতরণ করে থানা পুলিশ।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর