× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতা
ঢাকা, ২৬ জানুয়ারি ২০২১, মঙ্গলবার

৭ম শ্রেণির ছাত্রীকে ১০ম শ্রেণির ছাত্রের বিয়ের প্রলোভন, ধর্ষণ, অত:পর...

অনলাইন

চাটমোহর (পাবনা) প্রতিনিধি
(১ সপ্তাহ আগে) জানুয়ারি ১৩, ২০২১, বুধবার, ১:০৩ অপরাহ্ন

বিয়ের প্রলোভন বাগানে ডেকে নিয়ে ৭ম শ্রেণির এক ছাত্রীকে ধর্ষণ করেছে ১০ম শ্রেণির ছাত্র লিমন (১৬)। পরে বিষয়টি একাধিকবার বৈঠক ডেকে সমাধানে ব্যর্থ হয়ে মামলা করেছে ধর্ষণের শিকার ছাত্রীর পিতা। অভিযুক্ত লিমনকে গ্রেপ্তার করেছেন পুলিশ। ঘটনাটি ঘটেছে পাবনা জেলার চাটমোহর উপজেলার নিমাইচড়া ইউনিয়নের করৎকান্দি গ্রামে।

মামলা সূত্রে জানা গেছে, আশরাফ জিন্দানী উচ্চ বিদ্যালয়ের ৭ম শ্রেণির ছাত্রীকে ১০ শ্রেণির ছাত্র লিমন বিয়ের প্রলোভনে গত ৪ঠা জানুয়ারী রাত ১০টার দিকে আফজাল হোসেনের বাগানে ডেকে নিয়ে ধর্ষণ করে। পরে মেয়ের পরিবারের লোকজন বিষয়টির সমাধানে একাধিকবার বৈঠকও করে। কিন্তু তাতে কোন সমাধান না হওয়ায় মঙ্গলবার চাটমোহর থানায় একটি ধর্ষণ মামলা করে ছাত্রীটির পরিবার।   

মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা এসআই ডেভিড হিমাদ্রী বর্মা জানান, রাতে মামলা হওয়ার সঙ্গে সঙ্গে আসামিকে আটক করতে ভাঙ্গুড়ার দূর্গম এলাকা খানমরিচের বৈদ্য মরিচ এলাকায় অভিযান চালানো হয়। রাত ১টার দিকে লিমনকে আটক করে থানায় নেয়া হয়।
আজ বুধবার তাকে আদালতে পাঠানো হবে।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
পাঠকের মতামত
**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।
Nejam Kutubi
১৪ জানুয়ারি ২০২১, বৃহস্পতিবার, ১২:০৮

ধর্ষণটা এখন তামাশায় পরিনত হয়েছে। (৭ম শ্রেণির এক ছাত্রীর বয়সটা উল্লেখ করলেননা!! ৭ম শ্রেণির এক ছাত্রীর বয়েস বর্তমানে ১৯ও হয়।) *দুজনেই সেস্বায় সেক্স করেছে অতপর ফায়ারিং স্কোয়াডে দুজনকেই দিতে হবে।

ঊর্মি
১৩ জানুয়ারি ২০২১, বুধবার, ৬:৫৯

৭ম শ্রেণির ছাত্রীকে ১০ শ্রেণির ছাত্র লিমন বিয়ের প্রলোভনে গত ৪ঠা জানুয়ারী রাত ১০টার দিকে আফজাল হোসেনের বাগানে ডেকে নিয়ে "ধর্ষণ" করে - ইয়ার্কিরও একটা সীমা থাকা উচিত!!!

Rabiul Islam
১৩ জানুয়ারি ২০২১, বুধবার, ৪:২৩

ব্যাপার না ডিজিটাল দেশ ডিজিটাল চলিবো........ আইন এরকম হওয়া উচিতৎ যে যদি উভয়ে মিলে যৌনমিলন করে পরে কোন মামলা হয় তাহলে উভয় শাস্তি পাবে.....ছেলে 20 বছর আর মেয়ে 10 দশ বছর..তাহলে দর্ষন ও মামলা কমে যাবে 100% সিউর...

Faruque Ahmed
১৩ জানুয়ারি ২০২১, বুধবার, ১:১৫

বিয়ের প্রলোভনে ধর্ষণ হয় না !!!! এটা প্রতারণা বলতে পারেন। কারণ দুজনেই সেক্স করতে রাজি ছিল।

অন্যান্য খবর