× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতা
ঢাকা, ৪ মার্চ ২০২১, বৃহস্পতিবার

প্রকাশিত সংবাদের বিষয়ে রাজউক পরিচালকের প্রতিবাদ

শেষের পাতা


১৪ জানুয়ারি ২০২১, বৃহস্পতিবার

গত ১০ই জানুয়ারি মানবজমিনে ‘বিচারকের কাছে ২ কোটি টাকা ঘুষ দাবি রাজউক পরিচালকের’ শীর্ষক সংবাদের প্রতিবাদ জানিয়েছেন রাজধানী উন্নয়ন কর্তৃপক্ষের পরিচালক (এস্টেট ও ভূমি-২) শেখ শাহীনুল ইসলাম। এতে সংবাদটি ভিত্তিহীন দাবি করে তিনি বলেন, পূর্বাচল নতুন শহর আবাসিক প্রকল্পে ‘সরকারি চাকরিজীবী’ ক্যাটাগরিতে প্রাপ্ত ১১৫৮৭ নং কোডের বিপরীতে বিগত ৬ই ডিসেম্বর ২০০৩-এ আবুল হোসেন খন্দকার, পিতা-মরহুম আবদুল আলিম খন্দকারের নামে বরাদ্দ দেয়া হয়।
বরাদ্দ গ্রহীতা সাময়িক বরাদ্দপত্রের আলোকে ১ম কিস্তির অর্থ পরিশোধ করেন। পরবর্তীতে বিগত ২১-০৫-২০০৫ খ্রি. তারিখে তার নামে চূড়ান্ত বরাদ্দপত্র জারি করা হয়। জারিকৃত চূড়ান্ত বরাদ্দপত্রে বিগত ৩১-০৭-২০০৫ তারিখের মধ্যে ২য় কিস্তি অথবা এককালীন পরিশোধের জন্য বলা হলেও চূড়ান্ত বরাদ্দপত্রের ৫ নং ক্রমিকের শর্তানুযায়ী উল্লিখিত তারিখের মধ্যে এককালীন অথবা কিস্তির টাকা যথাসময় জমা করতে ব্যর্থ হলে এবং কর্তৃপক্ষ অন্যরূপ সিদ্ধান্ত গ্রহণ না করলে কোনো নোটিশ ছাড়াই প্লটের বরাদ্দ বাতিল বলিয়া গণ্য হইবে। চূড়ান্ত বরাদ্দপত্রের ৫ নং ক্রমিকের শর্তানুযায়ী তিনি ২য় কিস্তির অর্থ যথাসময়ে পরিশোধ করতে ব্যর্থ হন। অধিকন্তু কর্তৃপক্ষের ১১/২০১১তম সাধারণ সভায় যেকোনো প্লটের ২য় কিস্তির অর্থ ০৭ (সাত) বছরের ঊর্ধে সময় অতিবাহিত হলে প্লট বাতিলের প্রস্তাবসহ কর্তৃপক্ষের সভায় বিষয়ভিত্তিক (ঈধংপ ঃড় ঈধংপ) উপস্থাপনের সিদ্ধান্ত রয়েছে।
প্রতিবাদপত্রে বলা হয়, বরাদ্দ গ্রহীতা আবুল হোসেন খন্দকার ১ম পর্যায়ে বিগত ২১-০৯-২০০৬খ্রি. অত্র প্লটের দ্বিতীয় কিস্তির অর্থ পরিশোধের জন্য আবেদন করলে রাজউক কর্তৃপক্ষ বিগত ১৮-০৪-২০০৭ খ্রি. তারিখে এক মাসের সময় নিয়ে ২য় কিস্তির অর্থ পরিশোধের অনুমতি প্রদান করা হলেও তিনি ২য় কিস্তির অর্থ পরিশোধ করতে ব্যর্থ হন। পরবর্তীতে পুনরায় বিগত ০৬-০৮-২০০৭ খ্রি. তারিখে অত্র প্লটের ২য় কিস্তির অর্থ পরিশোধের জন্য আবেদন করলে রাজউক কর্তৃপক্ষ বিগত ৩১-১০-২০০৭ খ্রি. তারিখে ১ মাসের সময় নিয়ে ২য় কিস্তির অর্থ পরিশোধের অনুমতি প্রদান করা হলেও তিনি ২য় কিস্তির অর্থ পরিশোধ করতে ব্যর্থ হন।
প্রতিবাদপত্রে বলা হয়, অপরদিকে একই ব্যক্তি উত্তরা সমপ্রসারিত (৩য় পর্ব) আবাসিক এলাকায় জি-৮৩৯ নং কোডের বিপরীতে ০৫ (পাঁচ) কাঠা আয়তনের আরেকটি প্লট বরাদ্দ পান।
রাজউকের নিয়ম অনুযায়ী একই ব্যক্তি দুটি প্লট বরাদ্দ পেতে পারেন না বিধায় রাজউক কর্তৃপক্ষ গত ২২-০৪-২০১২খ্রি. তার নামে উত্তরা সমপ্রসারিত (৩য় পর্ব) আবাসিক এলাকায় জি ৫-৮৩১ নং কোডের বিপরীতে সাময়িকভাবে বরাদ্দকৃত ০৫ (পাঁচ) কাঠা আয়তনের প্লটটির বরাদ্দ বাতিল করেন।
অত্র প্লট গ্রহীতা আবুল হোসেন খন্দকার (অবসরপ্রাপ্ত বিচারক) তার কাছে ঘুষ দাবি, ফাইল আটকে অর্থ দাবি, গোল্ডেন মনিরের সঙ্গে ঘনিষ্ঠতা রয়েছে ইত্যাদি বিষয়ে যে সংবাদ প্রকাশ করা হয়েছে তা সম্পূর্ণ মিথ্যা, বানোয়াট ও ভিত্তিহীন।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর