× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতা
ঢাকা, ২৭ ফেব্রুয়ারি ২০২১, শনিবার

কুষ্টিয়ার এসপি তানভীরকে হাইকোর্টে তলব

অনলাইন

স্টাফ রিপোর্টার
(১ মাস আগে) জানুয়ারি ২০, ২০২১, বুধবার, ১২:৩৯ অপরাহ্ন

কুষ্টিয়ার ভেড়ামারা পৌরসভা নির্বাচনে দায়িত্ব পালনকালে সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট মো. মহসিন হাসানের সঙ্গে দুর্ব্যবহারের অভিযোগে পুলিশ সুপার এস এম তানভীর আরাফাতকে তলব করেছেন হাইকোর্ট। আজ বুধবার বিচারপতি মামনুন রহমান ও বিচারপতি খিজির হায়াতের হাইকোর্ট বেঞ্চ স্বপ্রণোদিত হয়ে রুলসহ এই আদেশ দেন।

আগামী ২৫শে জানুয়ারি তাকে সশরীরে হাজির হয়ে ব্যাখ্যা দিতে বলা হয়েছে। সেই সাথে ওই এসপির বিরুদ্ধে আদালত অবমাননারও রুল জারি করা হয়েছে।

এর আগে এসপির বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে আবেদন করেন ওই ম্যাজিস্ট্রেট। আবেদনের অনুলিপি সুপ্রিম কোর্ট, নির্বাচন কমিশন, আইন মন্ত্রণালয়, স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় এবং পুলিশের আইজির দপ্তরেও পাঠানো হয়।

আবেদনে বলা হয়েছে, পুলিশ সুপার ও তার সঙ্গী ফোর্সদের আচরণ স্থানীয় সরকার নির্বাচন বিধিমালা ২০১০ এর ৬৯, ৭০, ৭৪, ৮০ ও ৮১ বিধির সরাসরি লঙ্ঘন। তাই প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য প্রার্থনা করছি।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
পাঠকের মতামত
**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।
আবির হাসান,কুষ্টিয়া।
২০ জানুয়ারি ২০২১, বুধবার, ৭:৪৫

এসপি এস এম তানভীর আরাফাত নিজেকে অত্যন্ত ক্ষমতাধর মনে করেন। তিনি কালোকে সাদা আর সাদাকে কালো বলতে পারদর্শী। তিনি মনে করেন মাহাবুবুল আলম হানিফ তার সাথে থাকলে সকল ধরনের অপরাধই জাযেজ করা সম্ভব। যার প্রমান পাওয়া যাবে ঐ একই আদালতের ১২ নভেম্বর ও ১৫ নভেম্বর ২০২০ সালের রায় পরিবর্তনের ঘটনায়।

MD. RAKIBUL ISLAM
২০ জানুয়ারি ২০২১, বুধবার, ৩:০৯

Akjon SP r behave aro smart and marjito howar proiojon chilo..SP saheb kibabe ai behave kore akjon 1st class Magistrate r sathe?? Asha kori Hon'ble Court strongly proper step niben jate kore further kew amn behave na kore...

Sarwar
২০ জানুয়ারি ২০২১, বুধবার, ১২:০৫

সুশাসনের জন্য 'Chain of Command' হলো ১ম শর্ত। রাস্ট্রের ভিত মজবুত রাখার জন্য এর বিকল্প নেই। আশা করি আদালত তার নিজস্ব নিয়মে কঠোর ব্যবস্থা নিবেন, যা হবে নিজের এবং অন্যের জন্য শিক্ষনীয় উদাহরণ। আমার মনে হয় চাকরিতে প্রবেশের আগে এই বিষয়ে উনি জানতেন না। অসুবিধা নাই। দেরীতে হলেও নতুন করে শুরু করা যায়।

অন্যান্য খবর