× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতা
ঢাকা, ১ মার্চ ২০২১, সোমবার

নির্বাচনী সহিংসতা পাথরঘাটায় ১৫০ জনকে আসামি করে মামলা

বাংলারজমিন

বরগুনা প্রতিনিধি
২৮ জানুয়ারি ২০২১, বৃহস্পতিবার

বরগুনার পাথরঘাটা পৌরসভা নির্বাচনী সহিংসতায় পুলিশ বাদী হয়ে দেড়শ’ জনকে আসামি করে পাথরঘাটা থানায় মামলা করেছে। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন অতিরিক্ত পুলিশ সুপার তোফায়েল হোসেন সরকার। তিনি জানান, ওই ঘটনায় ১২ পুলিশ সদস্য প্রাথমিকভাবে চিকিৎসা নিয়ে সুস্থ হলেও ওসিসহ ৮ জন পাথরঘাটা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেঙে চিকিৎসাধীন।
জানা যায়, স্বতন্ত্র প্রার্থী মোস্তাফিজুর রহমান সোহেল তার সমর্থকদের নিয়ে গত মঙ্গলবার দুপুরে পাথরঘাটা পৌর শহরে মিছিল বের করলে ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা বাধা দেয়। এ সময় পুলিশ উভয়পক্ষকে শান্ত করে দু’দিকে সরিয়ে দেয়। এর কিছুক্ষণ পরই তালতলা এলাকা থেকে প্রায় ৫ শতাধিক নারী-পুরুষ সোহেলের পক্ষে দেশীয় অস্ত্র রামদা, রড, জিআর পাইপ ও লাঠিসোটা নিয়ে থানার দিকে যায়। এ সময় পুলিশ কয়েক দফা বাধা দিলেও তাদের ইটপাটকেল, গাছের গুঁড়ি, লাঠি, কাঁচের বোতল, জুতা নিক্ষেপ করে মিছিল নিয়ে এগিয়ে থানার সামনে যায়। পাথরঘাটার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার তোফায়েল হোসেন সরকার আরো জানান, বিকাল সাড়ে ৪টার দিকে পাথরঘাটা শহরে জিরো পয়েন্টে নৌকা সমর্থনের লোকজন অবস্থান নেয়, অপরদিকে বিদ্রোহী প্রার্থী মোস্তাফিজুর রহমান সোহেলের সমর্থনের পাঁচ শতাধিক সশস্ত্রকর্মী থানার সামনে থেকে শহরে প্রবেশ করতে চেষ্টা করে।
এতে বাধা দিলে পুলিশ সদস্যদের ওপর হামলা করে। এতে ওসি শাহাবুদ্দিনসহ প্রায় ২০ জন পুলিশ এবং দুই সাংবাদিকসহ উভয়পক্ষের শতাধিক লোক আহত হন। পাথরঘাটা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও সহকারী রিটার্নিং কর্মকর্তা সাবরিনা সুলতানা জানান, রাজনৈতিক মাঠ যতই উত্তপ্ত থাকুক এর প্রভাব ভোটকেন্দ্রে পড়বে না। কেননা নির্বাচন কমিশনের দেয়া নির্দেশনা অনুযায়ী ভোটগ্রহণ করা হবে। আইনশৃঙ্খলা নিয়ন্ত্রণ রাখতে ইতিমধ্যে দু’জন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট শহরে ভ্রাম্যমাণ টহল দিচ্ছে। বৃহস্পতিবার থেকে অতিরিক্ত ৯ জন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট এবং বিজিবি মোতায়েন করা হবে পাথরঘাটা পৌরশহরে। পাথরঘাটা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ওসি (তদন্ত) সাঈদ আহমেদ জানান, মামলার এজাহার আসামিদের মধ্যে দু’জনকে আটক করা হয়েছে। বাকিদের গ্রেপ্তারের জন্য অভিযান চালাচ্ছে পুলিশ।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর