× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতাস্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তী
ঢাকা, ১৩ এপ্রিল ২০২১, মঙ্গলবার
পুলিশ হেফাজতে শিক্ষানবিশ আইনজীবীর মৃত্যু

বিচার বিভাগীয় তদন্তের নির্দেশ হাইকোর্টের

অনলাইন

স্টাফ রিপোর্টার
(১ মাস আগে) মার্চ ৩, ২০২১, বুধবার, ১২:৫৮ অপরাহ্ন

পুলিশ হেফাজতে শিক্ষানবিশ আইনজীবীর মৃত্যুর ঘটনায় বিচার বিভাগীয় তদন্তের নির্দেশ দিয়েছেন হাইকোর্ট। বুধবার  বিচারপতি এম. এনায়েতুর রহিম এবং মো. মোস্তাফিজুর রহমানের দ্বৈত বেঞ্চে এ আদেশ দেন। বরিশাল মেট্রোপলিটন পুলিশের ডিবি হেফাজতে বরিশাল জজ কোর্টের শিক্ষানবিশ আইনজীবী রেজাউল করিমের মৃত্যুর ঘটনায় তার বাবা ইউনুস মুন্সির করা এক আবেদনে আদালত এ আদেশ দেন। আদালতে  আবেদনেরর পক্ষে শুনানী করেন আইনজীবী মোহাম্মদ শিশির মনির। পরে শিশির মনির সাংবাদিকদের বলেন, গত বছরের  ২৯ ডিসেম্বর রাত ৮টায় রেজাউল করিমকে ৩ জন সাদা পোশাকধারী পুলিশ ধরে তার পিতার সামনে শারীরিকভাবে নির্যাতন শুরু করে। এরপর তাকে তারা ডিবি কার্যালয়ে নিয়ে যায়। পরেরদিন তাকে আদালতে নিয়ে যাওয়া হয়। কোর্ট হাজতে থাকাকালীন রেজাউল করিম তার ভাইকে জানায়, তাকে সারারাত এসআই মহিউদ্দিনসহ আরো দু'জন ডিবি পুলিশ রুলার দিয়ে পিটিয়েছে।
অমানুষিক নির্যাতনে সে সেখানেই পায়খানা প্রশ্রাব করে দেয়। সারারাত তাকে কোন খাবার দেয়া হয়নি। সে আরো জানায়, বাবা-মাকে দোয়া করতে বলিও, আমি বাঁচবো না। ওইদিন তাকে জেলহাজতে প্রেরণ করা হয়। কারাগারে বেশী অসুস্থ হয়ে পড়লে তাকে বরিশাল শের-ই-বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়। কারা কর্তৃপক্ষ বিষয়টি তার বাবা ইউনুস মুন্সিকে জানায়। তখন পরিবারের সদস্যরা গিয়ে দেখেন, আঘাতের কারণে তার শরীর থেকে রক্ত ঝরছে এবং সে মৃত্যু যন্ত্রণায় কাতরাচ্ছে। পেেরদিন চলতি বছরের ১লা জানুয়ারি রাত ১২টায় হাসপাতালে মৃত্যুবরণ করেন তিনি।
ভিক্টিমের বাবা ইউনুস মুন্সি উক্ত ঘটনায় সংশ্লিষ্ট থানায় মামলা দিতে গেলে কর্তৃপক্ষ মামলা নিতে অস্বীকার করেন। তখন তিনি বরিশাল মেট্রোপলিটন  ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে নির্যাতন ও হেফাজতে মৃত্যু (নিবারন) আইনে মামলা দায়ের করলে আদালত পিবিআই-কে তদন্তের নির্দেশ প্রদান করেন। ওই আদেশের বিরুদ্ধে তিনি বিচার বিভাগীয় তদন্তের প্রার্থনায়  হাইকোর্টে আবেদন করেন। আজ শুনানি শেষে  উক্ত আবেদন নিষ্পত্তি করে আদালত বিচার বিভাগীয় তদন্তের নির্দেশ প্রদান করেন।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
পাঠকের মতামত
**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।
Shobuj Chowdhury
৩ মার্চ ২০২১, বুধবার, ৮:০৯

I don't understand why HC is worried about it. They have joined hands with police and administration to put innocent people in jail and some cases they also died in police custody.

মামুন হাজারী
৩ মার্চ ২০২১, বুধবার, ৬:৫৭

গুন্ডা তন্ত্র কায়েমের ফসল, আজ দেশের শত্রুরা দেশ পরিচালনা করতেছে।

Farhad munshi
৩ মার্চ ২০২১, বুধবার, ৪:৪৪

জঘন্য ঘটনা এটার কঠিন শাস্তি হওয়া উচিৎ

মুঃওয়াসিউল হক
৩ মার্চ ২০২১, বুধবার, ১:০০

এই দেশ আমরা চাইনি!

কাজি
৩ মার্চ ২০২১, বুধবার, ১২:০৪

পুলিশের নির্যাতন বন্ধ করতে হবে। পুলিশ নির্যাতনে কারও মৃত্যু হলে ঐ পুলিশের ফাঁসির আইন হওয়া দরকার। বাংলাদেশ ছাড়া কোন দেশ এ এমন ঘটনা বিরল। এমন কি প্রতিবেশী ভারতে ও নাই।

অন্যান্য খবর