× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতাস্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তী
ঢাকা, ১৩ এপ্রিল ২০২১, মঙ্গলবার

পথশিশুদের সঙ্গে ডেপুটি স্পিকারের মধ্যাহ্নভোজ

অনলাইন

সংসদ রিপোর্টার
(১ মাস আগে) মার্চ ৫, ২০২১, শুক্রবার, ৬:২৭ অপরাহ্ন

প্রতিটি শিশুর মুখে খাবার দিয়ে নিজেই শিশুদের সাথে বসে মধ্যাহ্নভোজে অংশ নেন ডেপুটি স্পিকার মো: ফজলে রাব্বী মিয়া। আজ দুপুরে মুজিব শতবর্ষ উপলক্ষে ফজলে রাব্বী ফাউন্ডেশন এন্ড রিচার্স সেন্টার এর উদ্যোগে এবং আয়োজনে স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন ছায়াতল এর তত্ত্বাবধনে থাকা শতাধিক পথশিশুদের মধ্যাহ্নভোজ করান তিনি। ডেপুটি স্পিকারের সংসদ ভবনস্থ বাসভবন প্রাঙ্গণে এ মধ্যাহ্নভোজের আয়োজন করা হয়। এ সময় ডেপুটি স্পিকার ভোজন অনুষ্ঠানে উপস্থিত শিশুদের উদ্দেশ্যে বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা একজন শিশু দরদি মানুষ। শিশুদের সুন্দর জীবন গড়ার লক্ষ্যে শিক্ষা, সুস্বাস্থ্য, বাসস্থানসহ সব ধরনের সুযোগ সুবিধা দিয়ে যাচ্ছেন। ছায়াতলের প্রশংসা করে তিনি বলেন, এই সংগঠনটি সমাজের সুবিধাবঞ্চিত শিশুদেরকে যেভাবে ছায়াতলের ছায়ায় আশ্রয় দিয়ে খাদ্য, বস্ত্র, শিক্ষা, স্বাস্থ্য সেব দিয়ে মানুষ করছে তা সত্যি এক অনন্য অসাধারণ উদ্যোগ যা সমাজের সকলের জন্য অনুকরণীয়, অনুসরণীয়। এ সময় তিনি এসকল শিশুদের সাহায্যার্থে দেশের বিভিন্ন ব্যাংকসহ সমাজের বিত্তশালীদের সহযোগিতার হাত সমপ্রসারণ করার আহ্বান জানান। ডেপুটি স্পিকার বলেন, বিশ্বব্যাপী করোনা মহামারিতে যেখানে উন্নত বিশ্ব বিপর্যস্ত সেখানে আমাদের অর্থনৈতিক অগ্রগতি থেমে নেই।
এই মহামারি চলাকালীন বাংলাদেশ উন্নয়নশীল দেশের আন্তর্জাতিক স্বীকৃতি লাভ করেছে। এটা সম্ভব হয়েছে জাতির পিতার সুযোগ্য কন্যা প্রধানমন্ত্রীর বলিষ্ঠ দূরদৃষ্টি সম্পন্ন নেতৃত্ব ও সময়োপযোগী সিদ্ধান্ত গ্রহণ ও সঠিক বাস্তবায়নের জন্য। এ সময় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাসহ সকল দেশবাসীর সুস্বাস্থ্য ও দীর্ঘায়ু কামানা করে দোয়া ও মোনাজাত করেন ডেপুটি স্পিকার।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
পাঠকের মতামত
**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।
z Ahmed
৬ মার্চ ২০২১, শনিবার, ৯:১৮

এটি একটি খুব ভাল কাজ। তবে এতে সমস্যার সমাধান হবে না। দয়া করে এমন কিছু করুন যা problrm স্মারটিকে স্থায়ীভাবে সমাধান করবে।

অন্যান্য খবর