× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতাখোশ আমদেদ মাহে রমজানস্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তীসেরা চিঠিইতিহাস থেকে
ঢাকা, ২৮ অক্টোবর ২০২১, বৃহস্পতিবার , ১৩ কার্তিক ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ২০ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩ হিঃ

অতিরিক্ত মদ্যপানে ছাত্রলীগ নেতার মৃত্যু

অনলাইন

স্টাফ রিপোর্টার, চট্টগ্রাম থেকে
(১ মাস আগে) সেপ্টেম্বর ১৮, ২০২১, শনিবার, ৯:৫৪ পূর্বাহ্ন

কক্সবাজার সমুদ্র সৈকতে বেড়াতে গিয়ে রাফসান ইরফান (২৮) নামে চট্টগ্রাম মহানগরের এক ছাত্রলীগ নেতার রহস্যজনক মৃত্যু হয়েছে। বিশেষ সূত্রে জানা যায়, হোটেলে অতিরিক্ত মদ্যপানের কারণে এই তরুণের মৃত্যু হয়েছে।
শুক্রবার (১৭ সেপ্টেম্বর) সকালে কলাতলী বীচ পয়েন্টের বে ওয়ান্ডার হোটেল হতে কক্সবাজার সদর হাসপাতালে নেয়ার পথে এই ছাত্রলীগ নেতার মৃত্যু হয়।
রাফসান ইরফান নগরীর কোতোয়ালি থানার এনায়েতবাজার বাটালি রোডের বাসিন্দা। দলের তার কোন পদ পদবী না থাকলেও তিনি ছাত্রলীগ নেতা হিসেবে পরিচিত। সামনের কাউন্সিলে তিনি কোতোয়ালি থানা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক পদপ্রত্যাশী ছিলেন বলে জানা যায়।
একাধিক সূত্রে জানাগেছে, গত ১৫ই সেপ্টেম্বর রাফসানসহ ৭ বন্ধু মিলে কক্সবাজার বেড়াতে যান। সেখানে তারা ‘বে ওয়ান্ডারস’ নামে একটি হোটেলে অবস্থান করেন। গতকাল ১৬ই সেপ্টেম্বর গভীর রাত পর্যন্ত হোটেলে তারা মদ পান করে পরে তারা ঘুমিয়ে পড়ে। এর মধ্যে অসুস্থ হয়ে পড়ে রাফসান।
ভোরে তার বুকে ব্যথা অনুভব করলে তাকে তার সঙ্গীরা কক্সবাজারের বেসরকারি একটি হাসপাতালে নিয়ে যায়। পরে অবস্থা আরো খারাপ হলেতাকে কক্সবাজার সদর হাসপাতালে নেয়া হয়। সেখানে রাফসান ইরফানের মৃত্যু হয়।
ট্যুরিস্ট পুলিশ কক্সবাজারের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মহিউদ্দিন বলেন, প্রাথমিক ভাবে ধারণা করছি অতিরিক্ত পরিমাণে মদ পানে অসুস্থ হয়ে মারা গেছেন রাফসান। এরপরও ময়নাতদন্তের পর বাকিটা জানা যাবে।
তবে এই ব্যাপারে চট্টগ্রাম মহানগর ছাত্রলীগ সাধারণ সাম্পাদক জাকারিয়া দস্তগীর বলেন, কক্সবাজারে রাফসান ইরফানের মৃত্যুর খবর শুনেছি। যতটুকু জেনেছি, সে স্ট্রোক করছে। তার পরিবারের সদস্যরা সেখানে গেছেন। এখন পোস্টমর্টেম রিপোর্ট পেলে মৃত্যুর কারণ জানা যাবে।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
পাঠকের মতামত
**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।
Masud Abdullah
১৮ সেপ্টেম্বর ২০২১, শনিবার, ৩:৩০

Good job! I am sure more and more "sonar chelera" will follow suit just like this soon!

Md.Al-Amin
১৮ সেপ্টেম্বর ২০২১, শনিবার, ১২:২৭

Ah, ai na holo sonar chele!!!

sultan
১৮ সেপ্টেম্বর ২০২১, শনিবার, ১১:৩৮

They are called Golden son ! How strange! No drunken/intoxicated person can't be a leader any political party..... But unfortunately we got it & how much long the Unlucky Country continue to get it !!!!!!! Should arrest his guardian and banned the political party where he has involved ...

অন্যান্য খবর