× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতাখোশ আমদেদ মাহে রমজানস্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তীসেরা চিঠি
ঢাকা, ১৯ অক্টোবর ২০২১, মঙ্গলবার , ৩ কার্তিক ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ১১ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩ হিঃ

রাশিয়ায় বিশ্ববিদ্যালয়ে শিক্ষার্থীর গুলিতে নিহত কমপক্ষে ৮

বিশ্বজমিন

মানবজমিন ডেস্ক
(৪ সপ্তাহ আগে) সেপ্টেম্বর ২০, ২০২১, সোমবার, ৩:০৬ অপরাহ্ন

রাশিয়ার পার্ম স্টেট ইউনিভার্সিটিতে এক শিক্ষার্থীর এলোপাতাড়ি গুলিতে কমপক্ষে আটজন নিহত হয়েছেন। ঘটনার সময় লোকজনকে জানালা দিয়ে লাফিয়ে নিচে নামতে দেখা যায়। আবার অনেকে নিজেদেরকে বিভিন্ন রুমের ভিতর আবদ্ধ রেখে আত্মরক্ষার চেষ্টা করেন। জাতীয় ইনভেস্টিগেটিভ কমিটি’র আইন প্রয়োগকারী সংস্থার উদ্ধৃতি দিয়ে এ খবর দিয়েছে অনলাইন আল জাজিরা। এতে বলা হয়, ওই বিশ্ববিদ্যালয়ে আজ সোমবার সকালে এই হামলা হয়। এটি রাজধানী মস্কো থেকে পূর্বে প্রায় ১৩০০ কিলোমিটার দূরের একটি বিশ্ববিদ্যালয়। হামলার পরপরই সন্দেহভাজন শিক্ষার্থীকে আটক করা হয়েছে। সে ওই বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র।
তাকে আটক করার পর ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে কর্তৃপক্ষ। স্থানীয় পর্যায়ে ধারণ করা ফুটেজে দেখা যায়, শিক্ষার্থীরা এলোপাতাড়ি ছুটছেন। অনেককে ইউনিভার্সিটি ভবনের দ্বিতীয় তলা থেকে জানালা দিয়ে লাফিয়ে পড়তে দেখা যায়। অন্য শিক্ষার্থী এবং স্টাফরা নিজেদেরকে বিভিন্ন কক্ষে আবদ্ধ করে রাখেন। এ সময় যারা সম্ভব তাদেরকে পালানোর অনুরোধ করে ইউনিভার্সিটি। রাশিয়ার ইনভেস্টিগেটিভ কমিটি বলেছে, হামলায় আহত হয়েছেন কমপক্ষে ৬ জন। তবে তারা কি মাত্রায় আহত হয়েছেন, তা তাৎক্ষণিকভাবে নিশ্চিত হওয়া যায়নি। পার্ম অঞ্চলের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় বলেছে, এতে আহত হয়েছেন ১৪ জন। উল্লেখ্য, রাশিয়ায় বেসামরিক পর্যায়ে ব্যক্তিগতভাবে অস্ত্রের মালিকানা পাওয়ার ওপর কঠোর বিধিনিষেধ আছে। তবে শিকার ধরা, আত্মরক্ষা এবং স্পোর্টসের জন্য অস্ত্রের মালিক হওয়া যায়। এসব উদ্দেশে অস্ত্র কেনা যায়। এক্ষেত্রে পরীক্ষায় পাস করতে হয় এবং অন্যান্য শর্ত পূরণ করতে হয়। রাশিয়ায় স্কুল এবং বিশ্ববিদ্যালয়ে গুলির ঘটনা তুলনামূলকভাবে বিরল। এ বছর ১১ই মে কাজানের এক টিনেজার সাতটি শিশু এবং দু’জন শিক্ষককে এক স্কুলে গুলি করে হত্যা করে। এর ফলে ব্যক্তিগত পর্যায়ে অস্ত্রের মালিকানা আইন কঠোর করেন প্রেসিডেন্ট ভøাদিমির পুতিন।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর