× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনরকমারিমত-মতান্তরবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে কলকাতা কথকতাসেরা চিঠিইতিহাস থেকেঅর্থনীতি
ঢাকা, ১৯ মে ২০২২, বৃহস্পতিবার , ৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ১৭ শওয়াল ১৪৪৩ হিঃ

বাইডেনের জিদ, আবারও কমালা হ্যারিসকে বেছে নেবেন

বিশ্বজমিন

মানবজমিন ডেস্ক
(৩ মাস আগে) জানুয়ারি ২০, ২০২২, বৃহস্পতিবার, ১০:৫৬ পূর্বাহ্ন

দৃশ্যত দ্বিতীয় মেয়াদে প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের জিদ ধরেছেন জো বাইডেন। যদি তিনি প্রেসিডেন্ট নির্বাচন করেনই, তবে রানিংমেট বা ভাইস প্রেসিডেন্ট হিসেবে বেছে নেবেন বর্তমান ভাইস প্রেসিডেন্ট কমালা হ্যারিসকে। তার ভূয়সী প্রশংসা করেছেন বাইডেন। হোয়াইট হাউজে ভোটাধিকার প্রচেষ্টার জন্য কমালা হ্যারিসের কাজে তিনি সন্তুষ্ট কিনা এবং তাকে তিনি আরো একবার একই টিকেটে নির্বাচন করার জন্য বেছে নেবেন কিনা- এমন প্রশ্ন করেন একজন সাংবাদিক। এর সরাসরি জবাব দেন জো বাইডেন। তিনি বলেন, হ্যাঁ এবং হ্যাঁ। অর্থাৎ একই সঙ্গে দুটি প্রশ্নের উত্তরই তিনি দিয়ে দিয়েছেন। কমালা হ্যারিসের কাজে তিনি সন্তুষ্ট এবং তাকে পরবর্তী নির্বাচনেও রানিংমেট হিসেবে বেছে নেবেন।
কিন্তু কেন? এমন ব্যাখ্যা চান ওই সাংবাদিক। জবাবে বাইডেন বলেছেন, এটা ব্যাখ্যা করার কোনো প্রয়োজন নেই। প্রথমত, তিনি আমার রানিংমেট হতে যাচ্ছেন। দ্বিতীয়ত, আমি তাকে দায়িত্বে রেখেছি। আমি মনে করি তিনি বেশ ভালভাবে দায়িত্ব পালন করছেন। এ খবর দিয়েছে অনলাইন সিএনএন।

বুধবার এমন মন্তব্য করেছেন যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন। এর আগে গত সপ্তাহে বিভিন্ন মতামত কলামে বলা হয়েছিল, আগামী নির্বাচনে কমালা হ্যারিসের পরিবর্তে উইওমিংয়ের রিপাবলিকান প্রতিনিধি লিজ চেনি’কে বেছে নিতে পারেন জো বাইডেন। এর প্রেক্ষিতে এনবিসি একটি সাক্ষাতকার নেয় কমালা হ্যারিসের। তাকে প্রশ্ন করা হয়েছিল, তিনি ২০২৪ সালের নির্বাচনে একই টিকেটে নির্বাচন করতে যাচ্ছেন কিনা। জবাবে কমালা হ্যারিস এ প্রশ্নকে পুরোপুরি প্রত্যাখ্যান করেছেন। জবাবে বলেছেন, এ প্রশ্ন নিয়ে উত্তর দিতে আমি দুঃখ প্রকাশ করছি। কারণ, আমি বর্তমান নিয়ে চিন্তা করছি। আমি সততার সঙ্গেই বলছি, আপনি কেন আমাকে এ প্রশ্ন করছেন! আমাদের সামনে যেসব বিষয় আছে আমি সেদিকে মনোযোগ দিয়েছি।

ওদিকে ২০২৪ সালে যুক্তরাষ্ট্রে অনুষ্ঠেয় প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে প্রকৃতপক্ষেই জো বাইডেন প্রতিদ্বন্দ্বিতা করবেন কিনা তা নিয়ে প্রশ্ন আছে। কারণ, তার অনেক বয়স এখন, ৭৯ বছর। যুক্তরাষ্ট্রের ইতিহাসে তিনিই সবচেয়ে বেশি বয়সে প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত হয়েছেন। তিনি আবার নির্বাচন করবেন কিনা এ বিষয়ে তিনি ও কমালা হ্যারিস এখনও কোনো আলোচনা করেননি বলে অনেকবার জানিয়েছেন কমালা হ্যারিস।

ডিসেম্বরে এবিসি নিউজকে একটি সাক্ষাতকার দিয়েছেন জো বাইডেন। সেখানে তিনি আবারও বলেছেন, যদি আমি সুস্থ থাকি তাহলে আবার নির্বাচন করবো। তার উত্তর ছিল এমন- হ্যাঁ নির্বাচন করবো। দেখুন আমি ভাগ্যের ওপর বিশ্বাস করি। আমার জীবনে অনেকবার ভাগ্য হস্তক্ষেপ করেছে। যদি আমি এখনকার মতো সুস্থ থাকি, তাহলে আবার নির্বাচন করবো।

ওই সাক্ষাতকার নিয়েছিলেন এবিসির সাংবাদিক ডেভিড মুইর। তিনি জো বাইডেনের কাছে জানতে চেয়েছিলেন, সাবেক প্রেসিডেন্ট ডনাল্ড ট্রাম্পের বিরুদ্ধে তিনি আবার প্রতিদ্বন্দ্বিতা করবেন কিনা। জবাবে জো বাইডেন একটু কৌতুক করেন। বলেন, আপিনি আমাকে এখনই প্রলুব্ধ করছেন! অবশ্যই, কেন আমি ডনাল্ড ট্রাম্পের বিরুদ্ধে নির্বাচন করবো না। যদি তিনি (রিপাবলিকান দলের) মনোনয়ন পান, তাহলে প্রতিদ্বন্দ্বিতার ক্ষেত্র বেড়ে যায়।

ফলে প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন এখন পর্যন্ত যা বলছেন, তাতে এটা স্পষ্ট যে, তিনি ২০২৪ সালে অনুষ্ঠেয় প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে আবারো প্রতিদ্বন্দ্বিতা করবেন এবং এ বিষয়ে তার মধ্যে একরকম জিদ কাজ করছে। তবে আগামী নির্বাচনের দিনে তার বয়স হয়ে যাবে ৮১ বছর। বর্তমানে তিনি যুক্তরাষ্ট্রের ইতিহাসে সবচেয়ে বেশি বয়সী প্রেসিডেন্ট হলেও দায়িত্ব পালন করে চলেছেন যথাযথভাবে। হোয়াইট হাউজের চিকিৎসক ড. কেভিন ও’কনোর বলেছেন, তিনি প্রধান নির্বাহী, রাষ্ট্রের প্রধান এবং কমান্ডার ইন চিফ হিসেবে সফলতার সঙ্গে দায়িত্ব পালন করছেন।
অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর