× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনরকমারিমত-মতান্তরবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে কলকাতা কথকতাসেরা চিঠিইতিহাস থেকেঅর্থনীতি
ঢাকা, ২০ মে ২০২২, শুক্রবার , ৬ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ১৮ শওয়াল ১৪৪৩ হিঃ

কুয়াকাটায় পর্যটকদের ভিড়, উপেক্ষিত স্বাস্থ্যবিধি

বাংলারজমিন

কলাপাড়া (পটুয়াখালী) প্রতিনিধি
২২ জানুয়ারি ২০২২, শনিবার

পর্যটনকেন্দ্র কুয়াকাটা সমুদ্র সৈকতে ভিড় জমেছে পর্যটকের। সাপ্তাহিক ছুটির দিন উপলক্ষে গতকাল সৈকতে এ সকল পর্যটকের আগমন ঘটে। আগত পর্যটকরা সমুদ্রে সাঁতার কাটাসহ প্রিয়জনদের সঙ্গে আনন্দ উন্মাদনায় মেতেছেন। বাড়তি পর্যটকদের আনাগোনায় বুকিং রয়েছে অধিকাংশ হোটেল-মোটেল। তবে এ সকল পর্যটকদের মানতে দেখা যায়নি স্বাস্থ্যবিধি। অনেকেই ব্যবহার করছে না মাস্ক। অনেকেই মানছে না সামাজিক দূরত্ব। তবে করোনার নতুন ভ্যারিয়েন্ট অমিক্রনের সংক্রমণ ঠেকাতে সৈকতে ট্যুরিষ্ট পুলিশের পক্ষ থেকে বারবার মাইকিং করতে দেখা গেছে।
স্থানীয় ও পর্যটক ব্যবসায়ীরা জানান, বরিশাল-কুয়াকাটা সড়কের লেবুখালী পয়েন্টে ‘পায়রা সেতু’ চালু হওয়ায় পর্যটক বেড়েছে।
তবে সাপ্তাহিক ছুটি শুক্রবার ও শনিবারে ভ্রমণ পিপাসুরা এখানে ছুটে আসেন। উপভোগ করছেন সাগরের সৌন্দর্য, একই স্থান থেকে সূর্যোদয়-সূর্যাস্তের অপরূপ দৃশ্য। সৈকতজুড়ে পর্যটকের ঢল। শামুক-ঝিনুকের দোকানসহ বিপনি বিতানগুলোতে রয়েছে পর্যটকদের উপচেপড়া ভিড়।
তবে করোনা পরিস্থিতিতে গত দেড় বছর কুয়াকাটায় হোটেল ব্যবসায় মন্দা পরিস্থিতি ছিল। এ সময় প্রত্যেকটি হোটেলের মালিকদের লোকসান গুনতে হয়েছে। ধারকর্জ করে কর্মচারীদের বেতন দিতে হয়েছে বলে একাধিক আবাসিক হোটেল ব্যবসায়ী বলেছেন। সৈকত লাগোয়া আচার ও ঝিনুক ব্যবসায়ী খাইরুল ইসলাম সংগ্রাম জানান, বেশি পর্যটক আসায় তাদের বিক্রিও বেড়েছে। তবে সাপ্তাহিক ছুটি শুক্র ও শনিবার পর্যটকের সংখ্যা বেশি থাকে।
আবাসিক হোটেল ‘সমুদ্রবাড়ি রিসোর্টের’ পরিচালক জহিরুল ইসলাম মিরণ বলেন, তাদের হোটেলে স্বাস্থ্যবিধি মেনেই রুম বুকিং দেয়া হচ্ছে।
কুয়াকাটা ট্যুরিস্ট পুলিশ জোনের সহকারী পুলিশ সুপার মো. আবদুল খালেক বলেন, অনেক পর্যটক আসায় পর্যটন পুলিশের কয়েকটি দল মাঠে কাজ করছে। পর্যটকদের স্বাস্থ্যবিধি মানা, মাস্ক পরা এবং সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে চলাফেরা করতে মাইকিং করা হচ্ছে বলে তিনি সাংবাদিকদের জানিয়েছেন।
অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর