× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনরকমারিমত-মতান্তরবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে কলকাতা কথকতাসেরা চিঠিইতিহাস থেকেঅর্থনীতি
ঢাকা, ২৯ মে ২০২২, রবিবার , ১৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ২৭ শওয়াল ১৪৪৩ হিঃ

বাসের ধাক্কায় একই পরিবারের ৩ জনের মৃত্যু

শেষের পাতা

স্টাফ রিপোর্টার
২২ জানুয়ারি ২০২২, শনিবার

রাজধানীর যাত্রাবাড়ীর মাতুয়াইলে সেন্টমার্টিন পরিবহনের একটি বাসের ধাক্কায় সিএনজিচালিত অটোরিকশায়
একই পরিবারের তিন যাত্রী নিহত হয়েছেন। আহত হয়েছেন সিএনজি চালকসহ এক শিশু। গতকাল শুক্রবার সকাল পৌনে ৭টা দিকে মাতুয়াইল হাসপাতালের  সামনে এ দুর্ঘটনা ঘটে। নিহতরা হলেন- রিয়াজুল ইসলাম (৪৫), তার স্ত্রী সালমা (৩৫) ও রিয়াজুলের শ্বশুর আব্দুর রহমান (৬৫)। আহতরা হলেন, সিএনজিচালক রফিক (৫০) ও সালমার মেয়ে শাকিরা (৫)। এ ঘটনায় যাত্রাবাড়ী থানায় নিহত আব্দুর রহমানের বড় ছেলে নজরুল ইসলাম বাদী হয়ে সড়ক পরিবহন আইনের ১০৫/৯৮ ধারায় একটি মামলা দায়ের করেন। মামলা নম্বর ১০০। ঘটনার পরে ঘাতক সেন্টমার্টিন পরিবহনের বাসটি আটক করেছে পুলিশ।

নিহতদের গ্রামের বাড়ি বরিশাল জেলার উজিরপুরে। আব্দুর রহমানের স্ত্রী ঢাকায় ক্যান্সার হাসপাতালে চিকিৎসাধীন থাকায়। তাকে দেখতে বরিশাল থেকে ঢাকায় আসেন আব্দুর রহমান, তার মেয়ে ও মেয়ের জামাই। তারা সদরঘাট থেকে সিএনজিতে করে যাত্রাবাড়ী মাতুয়াইলে যাচ্ছিলেন। মাতুয়াইল হাসপাতালের সামনে এলেই ঘটে মর্মান্তিক দুর্ঘটনা।
নিহত আব্দুর রহমানের ভায়রা ভাই সাখায়াত হোসেন হানিফ বলেন, আব্দুর রহমানের পাঁচ ছেলে-মেয়ে। ছালমা ছিল তৃতীয় সন্তান। নিহত সালমার স্বামী রিয়াজুল ইসলাম কারসা ফাউন্ডেশনের উজিরপুরের ভবানীপুর শাখার এরিয়া ম্যানেজার হিসেবে চাকরি করতেন। তার বড় ছেলে শাহরিয়ার ও ছোট মেয়ে শাকিরা।
যাত্রাবাড়ী থানায় ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মাজহারুল ইসলাম বলেন, সকালে যাত্রাবাড়ী থানাধীন মাতুয়াইল এলাকায় একটি বাসের ধাক্কায় সিএনজিতে থাকা তিনজনের মৃত্যু হয়েছে। নিহতের পরিবার সড়ক পরিবহন আইন-২০১৮ একটি মামলা করেছে। ঘাতক সেন্টমার্টিন পরিবহনের বাসটি জব্দ করা হয়েছে। বাস চালককেও গ্রেপ্তারে বিভিন্ন জায়গায় অভিযান চলছে।
অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর