× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনরকমারিমত-মতান্তরবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে কলকাতা কথকতাসেরা চিঠিইতিহাস থেকেঅর্থনীতি
ঢাকা, ২২ মে ২০২২, রবিবার , ৮ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ২০ শওয়াল ১৪৪৩ হিঃ

রিভিউ সিস্টেমের অভাবে স্থগিত জিম্বাবুয়ে-আফগানিস্তান সিরিজ

খেলা

স্পোর্টস ডেস্ক
২৯ জানুয়ারি ২০২২, শনিবার

করোনার প্রকোপ সামলে চলছে ক্রিকেট। কিছুদিন আগেই শেষ হয়েছে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ। চলছে ফ্র্যাঞ্চাইজি টুর্নামেন্ট, দ্বি-পক্ষীয় সিরিজ। সবমিলিয়ে ঠাসা সূচিতে বিশ্ব ক্রিকেট অঙ্গন। ব্যস্ততম সময়ে ডিসিশন রিভিউ সিস্টেমের (ডিআরএস) যোগান দেয়া সম্ভব হয়নি বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লীগে (বিপিএল)। বাংলাদেশের ফ্র্যাঞ্চাইজি টুর্নামেন্টটি চললেও ডিআরএসের অভাবে স্থগিত হলো আফগানিস্তান-জিম্বাবুয়ের সিরিজ। রয়েছে প্রচারস্বত্ব জটিলতাও।

আগামী ফেব্রুয়ারিতে হারারেতে হওয়ার কথা ছিল জিম্বাবুয়ে-আফগানিস্তানের মধ্যকার দ্বি-পাক্ষিক সিরিজটি। সফরে তিনটি ওয়ানডে এবং পাঁচ ম্যাচের টি-টোয়েন্টি সিরিজ খেলার কথা ছিল দুদলের।
এর মধ্যে ওয়ানডে তিনটি আইসিসি ক্রিকেট বিশ্বকাপের সুপার লীগের অন্তর্ভুক্ত ছিল। দুই দেশের ক্রিকেট বোর্ড যৌথভাবে সিরিজ পেছানোর সিদ্ধান্ত নেয়। এ প্রসঙ্গে দুুই বোর্ড আলাদা বিবৃতি দিয়েছে।

জিম্বাবুয়ে ক্রিকেট বোর্ড থেকে বলা হয়, ‘দুর্ভাগ্যবশত, বিশ্বজুড়ে অন্য সব জায়গায় ঘটতে থাকা অনেক ক্রিকেট ইভেন্টের কারণে জিম্বাবুয়ে ক্রিকেট ডিসিশন রিভিউ সিস্টেম সহ প্রয়োজনীয় সমস্ত সম্প্রচার পরিসেবাগুলো সুরক্ষিত করতে পারেনি। তাই পিছিয়ে দেয়া হয়েছে সিরিজ।’
জিম্বাবুয়ে ক্রিকেট বোর্ডের ম্যানেজিং ডিরেক্টর গিভমোর মাকোনি বলেন, ‘আমরা আফগানিস্তানকে আতিথ্য দেয়ার ব্যাপারে খুব আগ্রহী ছিলাম। কিন্তু পরিস্থিতির পরিপ্রেক্ষিতে, সফর পিছিয়ে দেওয়াই একমাত্র বিকল্প ছিল। তবে, আমরা যত তাড়াতাড়ি সম্ভব সিরিজের তারিখ পুনঃনির্ধারণের অপেক্ষায় আছি।’

আফগানিস্তান ক্রিকেট বোর্ড তাদের বিবৃতিতে জানায়, ‘জিম্বাবুয়ে ক্রিকেট অল্প দিনের নোটিশে প্রয়োজনীয় সম্প্রচার প্রযুক্তি পায়নি, যার মধ্যে ডিআরএসও ছিল। পুরো বিশ্বে এখন অনেকগুলো ক্রিকেট ইভেন্ট একসঙ্গে চলছে।’
২০২১ সালের ডিসেম্বরে অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা ছিল সিরিজটি। পরে আফগানিস্তান ক্রিকেট বোর্ডের অনুরোধে সফরসূচি পিছিয়ে দেয়া হয়। তবে ফেব্রুয়ারিতে হতে চলা সিরিজটি স্থগিত হওয়ায় নতুন করে সূচি নির্ধারণ করতে হবে দুই বোর্ডকে।

এদিকে আগামী ফেব্রুয়ারিতে বাংলাদেশ সফরে আসার কথা রয়েছে আফগানিস্তানের। সিরিজে তিনটি ওয়ানডে ও দুইটি টি-টোয়েন্টি ম্যাচ রয়েছে। এই সিরিজের ওয়ানডে ম্যাচগুলো আইসিসি সুপার লীগের অংশ।
অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর