× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতা
ঢাকা, ৩১ অক্টোবর ২০২০, শনিবার

সুদের টাকা দিতে না পারায় গৃহবধূকে গাছে বেঁধে নির্যাতন

অনলাইন

উল্লাপাড়া (সিরাজগঞ্জ) প্রতিনিধি | ৩০ সেপ্টেম্বর ২০২০, বুধবার, ৮:০১

উল্লাপাড়ায় বুধবার দুপুরে পৌরসভার এনায়েতপুর আদর্শগ্রামে ঋণের সুদ দিতে না পারায় সোমা রানী দাস নামের এক গৃহবধূকে গাছের সঙ্গে বেঁধে নির্যাতন করা হয়। সোমা রানী দাস এনায়েতপুর আদর্শগ্রামের সঞ্জীব দাসের স্ত্রী। সুদের টাকার পাশাপাশি ঋণদাতা আরো ৫০ হাজার টাকা চাঁদা দাবি করেন। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে সোমা রানীকে গাছের সঙ্গে বেঁধে নির্যাতনের একটি ভিডিওটি ভাইরাল হয়েছে।

নির্যাতিত গৃহবধূ জানায়, তার গ্রামের আব্দুল কাদেরের মেয়ে দিপ্তী বেগম দীর্ঘদিন ধরে সুদের ব্যবসা করে আসছেন। কিছুদিন আগে সোমা তার নিকট থেকে ৫০ হাজার টাকা ঋণ গ্রহণ করেন। আর্থিক অসচ্ছলতার কারণে তিনি সময়মতো সুদের টাকা পরিশোধ করতে না পারায় দিপ্তী বেগম তার লোকজন নিয়ে বুধবার তাকে বাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে গাছের সঙ্গে বেঁধে নির্যাতন করেন। এ সময় সোমার কাছে আরো ৫০ হাজার টাকা দাবি করে দিপ্তী।
নির্যাতনের চিত্রটি ভিডিও ধারণ করেন স্থানীয় যুবকেরা।

ঘটনাটি জানতে পেরে উল্লাপাড়া মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) দীপক কুমার দাশ পুলিশ বাহিনী নিয়ে ঘটনাস্থল থেকে সোমাকে উদ্ধার করেন। এ সময় দিপ্তী বেগমকে আটক করা হয়। অভিযুক্ত সোমা রানী দাস দিপ্তী বেগম ও তার লোকজনের বিরুদ্ধে থানায় চাঁদাবাজির মামলা দায়ের করা হয়েছে।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
পাঠকের মতামত
**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।
Tarun Kumar Das
৩০ সেপ্টেম্বর ২০২০, বুধবার, ৮:৩৯

দাদন ব্যবসায়ীর বিচার চাই ।

অন্যান্য খবর