× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতা
ঢাকা, ২৯ নভেম্বর ২০২০, রবিবার

নবীগঞ্জে দিনদুপুরে সরকারি গাছ কর্তন

বাংলারজমিন

স্টাফ রিপোর্টার, নবীগঞ্জ (হবিগঞ্জ) থেকে | ৩০ অক্টোবর ২০২০, শুক্রবার, ৮:০৬

নবীগঞ্জে পাহাড়ি জনপদখ্যাত দিনারপুর এলাকায় সরকারি গাছ কর্তনের মহোৎসব চলছে। পরিবেশ অধিদপ্তর ও হবিগঞ্জ জেলা প্রশাসকের নির্দেশনায় একাধিক অভিযান পরিচালিত হলেও থামছে না দুর্বৃত্তদের তাণ্ডব। ক্ষমতাসীন বলয়ের সিন্ডিকেটে অনেকটা অসহায় উপজেলা প্রশাসন। বুধবার গজনাইপুর ইউনিয়নের শতক গ্রামস্থ গ্রামীণ ব্যাংকের নিকটবর্তী সড়কের পাশে থাকা প্রায় ১০-১৫টি বিভিন্ন প্রজাতির গাছ কর্তন করে একদল দুর্বৃত্ত। দিবালোকে গাছ কর্তনের দৃশ্য ভিডিও ধারণ করে উপজেলা প্রশাসনকে অবহিত করে স্থানীয় লোকজন। ইউএনও শেখ মহিউদ্দিনের তাৎক্ষণিক নির্দেশে গাছগুলো জব্দ করা হয়েছে। উপজেলা প্রশাসন ও স্থানীয় সূত্র জানায়, দীর্ঘদিন ধরে ওই এলাকায় একটি মহল গাছ বিক্রির সিন্ডিকেট গড়ে তুলেছে। এসব কর্তনকৃত গাছ স্থানীয় স্থমিলে মজুদ করে বিভিন্নস্থানে বিক্রি করে অসাধু চক্র।
সিন্ডিকেটের  নেপথ্যে জনপ্রতিনিধি ও স্থানীয় প্রভাবশালী জড়িত থাকায় প্রকাশ্যে প্রতিবাদ করতে ভয় পান এলাকাবাসী। ওদিকে, জব্দকৃত গাছ কর্তন কাজে নিয়োজিত শ্রমিকরা বলেন, গজনাইপুর ইউনিয়নের বরখাস্তকৃত চেয়ারম্যান ইমদাদুর রহমান মুকুল ও ইউপি সদস্য আব্দুল আলীর নির্দেশে তারা গাছ কাটেন। খবর পেয়ে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা শেখ মহিউদ্দিন তাৎক্ষণিক ইউনিয়ন ভূমি অফিসের সহকারী ভূমি কর্মকর্তাকে ঘটনাস্থলে পাঠান। পরবর্তীতে বন বিভাগের কর্মকর্তা ও থানার একদল পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেন। এনিয়ে পানিউমদা ইউনিয়ন ভূমি অফিসে নিয়োজিত সহকারী ভূমি কর্মকর্তা মহসিন ভূইয়া বলেন, ঘটনাস্থলে গিয়ে গাছ কাটার সত্যতা পেয়েছি এবং গাছ কাটায় নিয়োজিত শ্রমিকরা জানিয়েছেন, স্থানীয় চেয়ারম্যান ইমদাদুর রহমান মুকুল ও মেম্বার আব্দুল আলীর নির্দেশেই তারা গাছ কর্তন করেন। উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা শেখ মহিউদ্দিন বলেন, ঘটনাটি জানার পরপর ঘটনাস্থলে লোক পাঠানো হয়েছে। যে বা যারাই জড়িত থাকুক তাদের আইনের আওতায় আনা হবে। পাহাড়ি জনপদের বাসিন্দা সংসদ সদস্য গাজী মোহাম্মদ শাহনওয়াজ মিলাদ এমপি বলেন, যে বা যারা ক্ষমতার দাপট দেখিয়ে গাছ কর্তন করে পরিবেশ নষ্ট করবে তাদের বিরুদ্ধেই অবশ্যই কঠোর ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর