× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতা
ঢাকা, ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২১, রবিবার

কবি যখন জ্বলে ওঠেন

বিশ্বজমিন

মানবজমিন ডেস্ক
(১ মাস আগে) জানুয়ারি ২১, ২০২১, বৃহস্পতিবার, ১:৫৮ অপরাহ্ন

যুক্তরাষ্ট্রের ক্যাপিটল হিল। ডানে-বামে বসা অথবা দাঁড়ানো নতুন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন ও তার পরিবার এবং ভাইস প্রেসিডেন্ট কমালা হ্যারিস ও তার পরিবার। বিশ্বের সবচেয়ে শক্তিধর এই দু’নেতা এবং সমবেত অতিথিদের সামনে উপস্থিত মাত্র ২২ বছর বয়সী এক কবি। প্রেসিডেন্ট, ভাইস প্রেসিডেন্টের শপথের আনুষ্ঠানিকতার ভিতর আকস্মিক জ্বলে উঠলেন তিনি। শোনালেন নিজের লেখা কবিতায় ‘ঐক্য আর ঐক্যবদ্ধতা’র কথা। তার শব্দ চয়ন, আবৃতির দ্যুতি যেন কয়েক মুহূর্তের জন্য মূল অনুষ্ঠান থেকে দৃষ্টি কেড়ে নিয়েছিল উপস্থিত অতিথি ও বিশ্ববাসীর। আকস্মিক তার কণ্ঠে যে দ্যুতি, যে প্রত্যয় উচ্চারণ হলো তা অবাক করে দেয় বাইডেন, কমালা হ্যারিস, সাবেক প্রেসিডেন্ট বিল ক্লিনটন, জর্জ ডব্লিউ বুশ, বারাক ওবামা সহ তাবৎ দুনিয়াকে। এর মধ্য দিয়েই আরেক নতুন ইতিহাস নির্মিত হলো এবারের প্রেসিডেন্টের শপথ অনুষ্ঠানে।
এ অনুষ্ঠানে যাবৎকাল যেসব কবি যোগ দিয়ে পারফরম করেছেন তার মধ্যে আমান্ডা গোরম্যান সবার চেয়ে ছোট। তিনি লিখেছেন কবিতা ‘দ্য হিল উই ক্লাইম্ব’। তার ৫ মিনিটের কবিতায় অবাক, স্তব্ধ চারদিক। পিনপতন নীরবতায় যেন তার কবিতার প্রতিটি শব্দ সবার মনে গেঁথে যাচ্ছিল বর্শার মতো।

তিনি উচ্চারণ করলেন-

যখন দিন আসে, আমরা নিজেদের কাছে প্রশ্ন করি
এই অন্তহীন অন্ধকারে কোথায় পাবো আলো?

এখানে তিনি ৬ই জানুয়ারি যুক্তরাষ্ট্রের ক্যাপিটলে ভয়াবহ নৃশংসতার দিকে ইঙ্গিত করেছেন। আবৃতি করেছেন-

সেই শক্তিকে দেখেছি আমরা, যা
ভাগাভাগি করার চেয়ে ছিন্নভিন্ন করে দেবে আমার দেশকে
গণতন্ত্র বিলম্বিত হলে আমার দেশকে ধ্বংস করে দেবে।

বিদায়ী প্রেসিডেন্ট ডনাল্ড ট্রাম্পের উস্কানিতে তার সমর্থকরা ক্যাপিটল হিলে যে নৈরাজ্য, তা-বলীলা চালিয়েছে সেসব নিজের কবিতায় এভাবে তুলে ধরেছেন আমান্ডা। তার কণ্ঠ ছিল জোরালো। তেজে বলিয়ান। ট্রাম্প সমর্থকরা গণতন্ত্রকে ধ্বংস করে ক্যাপিটল হিল দখলের চেষ্টা করেছিলেন। তা নিয়ে আমান্ডার দৃপ্ত উচ্চারণ-

সেই প্রচেষ্টায় তারা সফল হয়েছিল প্রায়
কিন্তু গণতন্ত্রও পর্যায়ক্রমিকভাবে বিলম্বিত হতে পারে
তাই বলে গণতন্ত্রকে স্থায়ীভাবে পরাজিত করা যায় না কখনো।

নিজের এই কবিতায় আমান্ডা নিজেকে পরিচয় দেন একজন চর্মসার কৃষ্ণাঙ্গ মেয়ে হিসেবে। তিনি কবিতায় বলেন-

দাসদের উত্তরসূরি আমি এক চর্মসার কৃষ্ণাঙ্গ মেয়ে
আমার বড় করেছেন এক সিঙ্গেল মা-
যার স্বপ্ন একদিন প্রেসিডেন্ট হবেন
একদিন কেউ তার আবৃত্তি শুনবে, তার খোঁজে।


যুক্তরাষ্ট্রে এযাবতকালের প্রথম ন্যাশনাল ইয়ুথ পয়েট লরিয়েট আমান্ডা গোরম্যান। তিনি যথাসময়ে ঠিক কাজটিই করেছেন। এতে তিনি তুলে ধরেছেন চমৎকার সব উপমা। বিশেষ অনুষ্ঠানের জন্য তার এ কবিতা সুবিচারিক কবিতা। ফলে তিনি যা শুনিয়েছেন বুধবার ক্যাপিটল হিলের মুক্তমঞ্চে, তা এখন সময়ের কাছে জমা হয়ে থাকবে। বহু বছর তা স্থান করে নেবে মানুষের মনে। তিনি কবিতায় যেসব শব্দ ব্যবহার করেছেন তা সারাবিশ্বের মানুষের মনে আজ, আগামীকাল এবং ভবিষ্যতে অনুরণন তুলবে। ২০১৭ সালে তিনি যুক্তরাষ্ট্রে এযাবতকালের মধ্যে প্রথম ন্যাশনাল ইয়ুথ পয়েট লরিয়েট নির্বাচিত হন। বিখ্যাত কবি রবার্ট ফ্রস্ট এবং মায়া অ্যানজেলোর পদাঙ্ক অনুসরণ করছেন তিনি।


অনুষ্ঠানের আগে এ বিষয়ে তিনি বিবিসিকে বলেছেন, আমি আসলে একতা, সহযোগিতা এবং একত্রিত হওয়ার দিকে শব্দের ব্যবহার করেছি। আমি মনে করি এটা যুক্তরাষ্ট্রের জন্য একটি নতুন অধ্যায়। তা ভবিষ্যতের জন্যও। সেই শুভক্ষণে ভাল ও মনোহারী শব্দ ব্যবহার করার চেষ্টা করেছি। তার কবিতার ভক্ত হয়ে গেছেন মার্কিন ব্রডকাস্টার ও অভিনেত্রী অপরা উইনফ্রে। তিনি এক টুইটে বলেছেন, এর আগে তিনি অন্য যুবতীর উত্থান দেখে এতটা উৎসাহিত হননি। আমান্ডার কবিতার প্রশংসায় পঞ্চমুখ মেডিসিনস সানস ফ্রন্টিয়াসর্সে দাতব্য সংস্থার সাবেক প্রধান জোয়ানে লিউ। তিনি টুইটারে বলেছেন, (আবৃতির) এই ৫ মিনিট ৪৩ সেকেন্ড তার কাছে ছিল সবচেয়ে দীর্ঘ সময়ের উৎসাহ। সাবেক ফার্স্টলেডি মিশেলে ওবামা প্রশংসায় বলেছেন, শক্তিশালী এবং মর্মভেদী শব্দমালা। তিনি আরো বলেন, আরো জ্বলে ওঠো আমান্ডা!

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
পাঠকের মতামত
**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।
কালাম ফয়েজী
২২ জানুয়ারি ২০২১, শুক্রবার, ৮:১৫

আমান্দা গোরম্যান মাত্র ২২বছর বয়সী নারী কবি, তার উপর তিনি কালো। কি দু:সাহস, কি দু:সাহসী সত্য উচ্চারণ! ধন্য কবি< ধন্য আমেরিকার গণতন্ত্রকামী মানুষ। যারা রাষ্ট্রীয় এতবড় আয়োজনে কালো কবিকে সত্য উচ্চারণের সুযোগ করে দিয়েছেন তারা কি কম বড়! যে জাতি নিজেদের লোকদের সম্মান জানাতে পারে তারাই বিশ্বের নেতৃত্ব দেয়ার অধিকার রাখে।

Mohammed shamsul Kar
২১ জানুয়ারি ২০২১, বৃহস্পতিবার, ৩:৫৩

Hilary Clinton Tweeted with excitement to introduce Amanda Gorman as the president of the USA for 2036.

Citizen
২১ জানুয়ারি ২০২১, বৃহস্পতিবার, ২:৫৭

Where's Bangladeshi KOBI ?

অন্যান্য খবর