× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতা
ঢাকা, ১ মার্চ ২০২১, সোমবার

প্রথম কৃষ্ণাঙ্গ প্রতিরক্ষামন্ত্রী জেনারেল অস্টিন, ট্রাম্পের অভিশংসন শুনানি ৮ই ফেব্রুয়ারি

অনলাইন

হেলাল উদ্দীন রানা, যুক্তরাষ্ট্র থেকে
(১ মাস আগে) জানুয়ারি ২৩, ২০২১, শনিবার, ১০:১২ পূর্বাহ্ন

যুক্তরাষ্ট্রের প্রথম কৃষ্ণাঙ্গ হিসাবে বাইডেন প্রশাসনে প্রতিরক্ষামন্ত্রী পদে লয়েড অস্টিনের নিয়োগ সিনেটে নিশ্চিত করা হয়েছে। এর আগে কংগ্রেসে তার ওয়েইবার অনুমোদন করা হয়। অবসরপ্রাপ্ত ইউএস আর্মি জেনারেল অস্টিন পেন্টাগন পরিচলনা করবেন। তিনি শুক্রবার বিকালে এ পদে শপথ নিয়েছেন। এনিয়ে বাইডেন প্রসাশনের দু’টি ক্যাবিনেট পদ সিনেট কনফার্ম করলো।

সদ্য বিদায়ী মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডনাল্ড ট্রাম্পের অভিশংসনের শুনানি ৮ই ফেব্রুয়ারি শুরু হবে সিনেটে। তার রিরুদ্ধে হাউসে পাশ হওয়া অভিশংসন প্রস্তাব সোমবার সিনেটে পাঠানো হবে। সিনেটের নতুন ডেমোক্রেট মেজোরিটি নেতা চাক শুমার শুক্রবার একথা জানান। সাবেক প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের বিরুদ্ধে জনগণকে উত্তেজিত করে সশস্ত্র অভ্যুত্থানে উস্কানির অভিযোগে এখন যুক্তরাষ্ট্র কংগ্রেস বিচার চলছে।
হাউসে ইতিমধ্যে এই প্রস্তাব পাশ হয়েছে।

গত ৬ই জানুয়ারি ট্রাম্পের প্ররোচনা উস্কানিতে তার উগ্রবাদী সমর্থকরা যুক্তরাষ্ট্রের আইনসভায় ইতিহাসের ন্যাক্কারজনক এই হামলা চালায়। মার্কিন কংগ্রেসের প্রতিনিধিরা যখন বাইডেনের ইলেক্টোরাল ভোট সত্যায়নের জন্য সভায় মিলিত হয়ে এ ব্যাপারে কার্যক্রম চালাচ্ছিলেন তখন ট্রাম্পের নির্দেশে এই ভয়ংকর হামলা চালানো হয় । এতে পুলিশ সদস্যসহ ৫ জন মারা যান।

ক্ষমতা থেকে চলে যাওয়ার পর পরিস্থিতি এখন অনেকটাই সহনশীল হয়ে ওঠছে। ডনাল্ড ট্রাম্পের সময়কে আমেরিকার সাধারণ লোকজন ভুলে যেতে চাচ্ছে। মার্কিন সিনেটে ডনাল্ড ট্রাম্পকে অভিশংসন বিচারে দণ্ড নিশ্চিত করতে সিনেটে ১৭ জন রিপাবলিকানের সমর্থন প্রয়োজন। সময় যত গড়াচ্ছে, এমন সম্ভাবনা খুবই ক্ষীণ মনে হচ্ছে। সিনেটে সর্বোচ্চ ১০ জনের বেশি রিপাবলিকানের সমর্থন পাওয়া যাবে বলে এখনো মনে করা হচ্ছে না। রিপাবলিকান দলের অধিকাংশ লোকজন ডনাল্ড ট্রাম্পের দ্বিতীয় দফা অভিশংসনকে নিজেদের দলের একটি কালিমা হিসেবেই দেখছেন। পর্দার অন্তরালে এমন অভিশংসন প্রক্রিয়া থেকে সরে আসার জন্যও ডেমোক্রেটদের অনুরোধ করা হচ্ছে। রিপাবলিকান রন জনসন বলেছেন, প্রেসিডেন্ট বাইডেনকে সিদ্ধান্ত নিতে হবে তিনি অভিশংসন, নাকি তার প্রশাসনের লোকজনের নিয়োগ নিশ্চিত করাকে জরুরি মনে করেন।

ট্রাম্প তার অভিশংসন মোকাবিলার প্রয়োজনীয় প্রস্তুতি নিতে পর্যাপ্ত সময় পাবেন না এমন কারণ দেখিয়ে এই প্রস্তাব আগামী বৃহস্পতিবার সিনেটে উত্থাপন করতে বলেন সিনেটের মাইনোরিটি লিডার মিচ ম্যাককণেল । প্রেসিডেন্ট বাইডেন ম্যাককণেলের প্রস্তাব সমর্থন করেছেন। সিনেটে সময় নিয়ে ট্রাম্পের বিরুদ্ধে অভিশংসন শুনানির পক্ষে মত দিয়েছেন প্রেসিডেন্ট।

সদ্য সাবেক প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প তার নিরবতা ভেঙে বলেছেন, কিছু একটা করবো। তবে তা এখনই  নয়। শুক্রবার ট্রাম্প ইন্টরন্যাশনাল গলফ ক্লাবে তিনি একথা বলেন।

ফুডস্ট্যাম্প বর্ধিতসহ দুই নির্বাহী আদেশ
মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন বলেছেন, আমরা লোকজনকে অভুক্ত থাকতে দিতে পারি না। দেশের অর্থনৈতিক বিপর্যস্ত লোকজনের প্রতি সহমর্মিতার বাণী উচ্চারণ করে প্রেসিডেন্ট বাইডেন বলেন, দেশে করোনায় ৪ লাখের বেশি মানুষের মৃত্যু হয়েছে। আরও কয়েক লাখ মানুষের মৃত্যু আসন্ন হয়ে ওঠেছে। দেশে জরুরি অবস্থা বিরাজ করছে। আমেরিকার অনগ্রসর এবং অর্থনৈতিক বিপর্যয়ে পড়া লোকজনের জন্য নতুন দুই নির্বাহী আদেশে স্বাক্ষর করেন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন।

নতুন স্বাক্ষরিত দুই নির্বাহী আদেশে আমেরিকার অল্প আয়ের লোকজনের মধ্যে খাদ্য সহযোগিতা ( ফুড স্ট্যাম্প) বৃদ্ধি করা হয়েছে। যেসব লোকজন স্বাস্থ্য ঝুঁকির কারণে কাজে ফিরতে পারছে না তাদের কর্মহীন ভাতা সুবিধা বৃদ্ধি করা হয়েছে। নির্বাহী আদেশে স্বাক্ষর করার আগে দেয়া বক্তৃতায় প্রেসিডেন্ট বাইডেন বলেছেন, লোকজন কর্মহীন হয়ে পড়েছে, আমরা তা নীরব দর্শক হয়ে দেখতে পারি না । আমাদের অবশ্যই দ্রুত সক্রিয় হতে হবে ।

প্রেসিডেন্ট বাইডেন তার বক্তৃতায় বলেন, ক্ষুদ্র ব্যবসা প্রতিষ্ঠানগুলোকে ওঠে দাঁড়ানোর জন্য সর্বোচ্চ সহযোগিতা করতে সব ফেডারেল কতৃপক্ষকে তিনি নির্দেশ দিয়েছেন। বাড়ি ভাড়া দিতে না পারার জন্য ভাড়াটে উচ্ছেদ স্তগিত রাখার নির্দেশ দেয়া হয়েছে। গৃহঋণ পরিশোধ না করার কারণে কোন ব্যাংকে বাড়ি জব্দ না করার নির্দেশ দেয়া হয়।    

ভিন্ন এক নির্বাহী আদেশে প্রেসিডেন্ট বাইডেন ফেডারেল নাগরিক প্রণোদনা দ্রুত নিশ্চিত করা ও জনগণের হাতে পৌঁছানো সহজ করার জন্য অর্থ বিভাগের প্রতি নির্দেশ দিয়েছেন। দীর্ঘ চার বছরের বেশী সময় পর আমেরিকার লোকজন আবারও সহমর্মিতার কথা শুনতে পারছে তাদের প্রেসিডেন্টের মুখ থেকে। ওয়াশিংটনের রাজনীতিতে প্রায় অর্ধশতাব্দী থেকে জো বাইডেনকে কর্মজীবী পরিবার থেকে উঠে আসা এক রাজনীতিবিদ হিসেবেই দেখা হয়েছে। নিজের দারিদ্রতা তিনি কখনো আড়াল করেননি। আমেরিকার মধ্যবিত্ত কর্মজীবীদের মনের কথাই উচ্চারিত হচ্ছে প্রেসিডেন্ট বাইডেনের পক্ষ থেকে।  

বাইডেন প্রশাসনের পক্ষ থেকে আমেরিকার অভ্যন্তরীণ সহিংসতা ও চরমপন্থা সামাল দেয়ার উদ্যোগ নেয়া হয়েছে। প্রেসিডেন্ট বাইডেনের দ্বিতীয় পূর্ণ কর্মদিবসেই জাতীয় গোয়েন্দা বিভাগের সমন্বয়ে একটি পরিচালকের পদ সৃষ্টি করা হয়েছে। আমেরিকার জেগে ওঠা চরমপন্থি এবং তাদের নাশকতামুলক কর্মকান্ডের ওপর এখন নজরদারী করবে  আলাদা দপ্তর ।    

নতুন মার্কিন ফার্স্ট লেডি জিল বাইডেন শুক্রবার বিকালে হঠাৎ করেই হোয়াইট হাউসের বাইরে পাহারারত ন্যাশনাল গার্ডের সদস্যদের অভিনন্দন জানাতে এগিয়ে যান। প্রেসিডেন্ট বাইডেনের ছেলে প্রয়াত বিউ বাইডেনের উল্লেখ করে জিল বাইডেন বলে, ন্যাশনাল গার্ডে একসময় দায়িত্ব পালন করেছেন বিউ। তাদের হৃদয়ের সব সময় ন্যাশনাল গার্ডের কথা জাগ্রত থাকে উল্লেখ করে জিল বাইডেন তাদের পরিবারের নিরাপত্তা নিশ্চিত করার জন্য ন্যাশনাল গার্ডের সদস্যদের প্রতি ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা জানান।

ট্রাম্পের নতুন আইনজীবী নিয়োগ
সাবেক প্রেসিডেন্ট ডনাল্ড ট্রাম্প তার পক্ষে সিনেটে অভিশংসন মোকাবিলায় একজন আইনজীবী নিয়োগ দিয়েছেন। ট্রাম্পের জন্য তার দীর্ঘ দিনের ঘনিষ্ঠ বন্ধু সিনেটর লিন্ডসে গ্রাহাম-এর সহযোগিতায় সাউথ ক্যারোলিনা ভিত্তিক আইনজীবী বুচ বাউজারকে নিয়োগ প্রদানে সহযোগিতা করেন। বাউজার অনেক হাই প্রোফাইল রাজনৈতিক মামলায় লড়ার অভিজ্ঞতা সম্পন্ন। তিনি প্রাক্তন গভর্নর মার্ক স্যানফোর্ড ও নিকি হ্যালির পক্ষে প্রতিনিধিত্ব করেছিলেন।

ট্রাম্পের সাবেক প্রধান আইনজীবী ও দীর্ঘদিনের বন্ধু রুডি জুলিয়ানীর সাথে ট্রাম্পের সম্পর্ক এখন ভালো নয়। জুলিয়ানী নির্বাচনে হারার পরও ট্রাম্পকে বিজয়ী করবেন এমন নিশ্চয়তা শেষ পর্যন্ত হতাশায় পর্যবসিত হয়। নির্বাচন নিয়ে ট্রাম্পের পক্ষে করা কয়েক ডজন মামলায় জুলিয়ানী কোন ফল বয়ে আনতে পারেননি। ক্ষুব্ধ ও বিরক্ত ট্রাম্প ক্ষমতার শেষ দিকে জুলিয়ানীর ফি আটকে দেন। প্রায় প্রতিশ্রুত দায়মুক্তি থেকেও বাদ পড়েন রুডি জুলিয়ানী।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর