× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতাস্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তী
ঢাকা, ১৩ এপ্রিল ২০২১, মঙ্গলবার

নোট-গাইড নিষিদ্ধ, শিক্ষা আইনের খসড়া চূড়ান্ত

শিক্ষাঙ্গন

স্টাফ রিপোর্টার
(১ মাস আগে) ফেব্রুয়ারি ১৬, ২০২১, মঙ্গলবার, ৭:৩৬ অপরাহ্ন

পাঠ্যপুস্তকের আদলে নোট-গাইড নিষিদ্ধ করে ‘শিক্ষা আইন ২০২০’-এর খসড়া চূড়ান্ত করা হয়েছে। আজ মঙ্গলবার মন্ত্রণালয়ে শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনির সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত এক বৈঠকে এটি চূড়ান্ত করা হয়।

বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন শিক্ষা উপমন্ত্রী মুহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেল, শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা বিভাগের সচিব, কারিগরি ও মাদ্রাসা বিভাগের সচিব, অতিরিক্ত সচিব প্রমুখ।

বৈঠক শেষে জানা যায়, শিগগিরই এটি মন্ত্রিপরিষদ সভায় পাঠানো হবে। এরপর ভাষাগত সংশোধনের জন্য আইন মন্ত্রণালয় হয়ে জাতীয় সংসদে উত্থাপন হবে। প্রেসিডেন্টের অনুমোদনক্রমে এটি কার্যকর করা হবে।

জানা গেছে, শিক্ষা আইনে শিক্ষার্থীদের জন্য সব ধরনের নোট, গাইড নিষিদ্ধের উদ্যোগ নিয়েছে সরকার। তবে সরকারের অনুমতি নিয়ে সহায়ক বই প্রকাশ করা যাবে। শিক্ষকরা নিজ শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থীদের প্রাইভেট, কোচিং করাতে পারবেন না। তবে ফ্রিল্যান্সিং কোচিং চালাতে বাধা থাকবে না। শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা তাদের শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান চলাকালে কোচিংয়ে যেতে পারবেন না।

খসড়ায় আরো বলা হয়, কোনো ধরনের নোট বই বা গাইড বই মুদ্রণ, বাঁধাই, প্রকাশ বা বাজারজাত করা যাবে না।
এই বিধান লঙ্ঘন করলে অনূর্ধ্ব তিন বছর কারাদণ্ড বা অনূর্ধ্ব পাঁচ লাখ টাকা অর্থদণ্ড বা উভয় দণ্ডে দণ্ডিত হবেন। কোনো শিক্ষক শিক্ষার্থীদের নোট বই বা গাইড বই কিনতে বা পাঠে বাধ্য করলে বা উৎসাহ দিলে তা অসদাচরণ হিসেবে গণ্য হবে এবং সংশ্লিষ্ট শিক্ষক, শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের প্রধান, ব্যবস্থাপনা কমিটি বা পরিচালনা কমিটির সংশ্লিষ্ট সদস্যদের বিরুদ্ধে প্রশাসনিক এখতিয়ারে শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নেয়া যাবে।
 

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
পাঠকের মতামত
**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।
আনছারুল হক কামালী
১৮ ফেব্রুয়ারি ২০২১, বৃহস্পতিবার, ৬:৩০

খবরটা পড়ে বেশ ভাল লেগেছে ।দীপু মনিকে ধন্যবাদ

Dr,Abdul Momin,Cox,s
১৭ ফেব্রুয়ারি ২০২১, বুধবার, ৯:৩৫

বিলম্বে সিদ্ধান্ত নেয়া হলেও সরকারবে এই মহতী সিদ্ধান্তকে,একজন পোড় খাওয়া অভিভাবক হিসাবে অভিনন্দন জানাই।

লাবনি
১৬ ফেব্রুয়ারি ২০২১, মঙ্গলবার, ১০:৩৭

আইনের বাস্তবায়ন হলে জাতি উপকৃত হবে।

Titu Meer
১৬ ফেব্রুয়ারি ২০২১, মঙ্গলবার, ৯:৪৯

সময়োপযোগী সাহসী সিদ্ধান্ত ৷ বাস্তবায়নে আন্তরিক হতে হবে ৷ শুধু কাগজ-কলমে থাকলেই হবে না ৷

MD. ISKENDER ALI MOL
১৬ ফেব্রুয়ারি ২০২১, মঙ্গলবার, ৮:১৮

6

Dr,Abdul Momin,Cox,s
১৬ ফেব্রুয়ারি ২০২১, মঙ্গলবার, ৬:৫৪

আমি খুবই খুশী হয়েছি,তবে আইনের সুসঠু প্রয়োগ কাম্য।

অন্যান্য খবর