× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতা
ঢাকা, ৮ মার্চ ২০২১, সোমবার

স্বাভাবিক হতে চায় বৃটেন

অনলাইন

নিজস্ব সংবাদদাতা
(১ সপ্তাহ আগে) ফেব্রুয়ারি ২৩, ২০২১, মঙ্গলবার, ২:৪০ অপরাহ্ন

বৃটেন ফের ফিরতে চায় স্বাভাবিক ছন্দে। প্রধানমন্ত্রী রবিস জনসনের কথায় তেমনই বার্তা মিলেছে। দেশের বিভিন্ন প্রান্তে লকডাউন তোলার পক্ষে তিনি সায় দিয়েছেন। তবে আগে থেকেই তার হুঁশিয়ারিতে কোনো ধরনের তাড়াহুড়ো যেন না করা হয়। দ্যা হিন্দুতে প্রকাশিত খবর অনুসারে বরিস বৃটেনবাসীকে ধীরে চলার নীতি নিতে বলেছেন। ধীরে ধীরে লকডাউনের পর্ব কাটিয়ে স্বাভাবিক করতে হবে বৃটেনকে। বিশ্বের অন্য দেশগুলিকে অনুকরণ করে তারাও লকডাউনকে নকআউট করতে চান। তবে করোনার মত মহামারি যে এত সহজে পথ ছাড়বে না সেকথাও মনে করে দিয়েছেন বরিস।
ইংল্যান্ড, স্কটল্যান্ড, হোয়েলসকে তাই আগে থেকে নজরে রাখা হচ্ছে। এই স্থানগুলিতে লকডাউন আগে তোলা হবে বলে জানিয়েছেন বরিস। বৃটেনে ইতিমধ্যে ১ লাখ ২০ হাজার মানুষ করোনার বলি হয়েছেন। এমনকি প্রধানমন্ত্রী বরিস জনজনকেও কাবু করেছিল করোনা। বৃটেন করোনার জেরে অর্থনৈতিকভাবে পিছিয়ে পড়ছে সেখান থেকে ফের তাদের ঘুরে দাড়াতে হবে বলেই মনে করেন বরিস। তবে দ্রুত দেশের বিভিন্ন প্রান্তে লকডাউন তুলে নিলে ফের করোনার বাড়বাড়ন্ত হতে পারে বলে। তাই তারা এতটা তাড়াহুড়ো করতে চান না। বৃটেনে স্কুল খোলার পাশাপাশি বিভিন্ন কর্মস্থলগুলিকেও বিশেষ নজরে রাখতে চান তিনি। দরকার না পড়লে যেন কেউ বাইরে না বের হয় সে বিষয়টিতে বিশেষ জোর দিয়েছেন বরিস জনসন। বৃটেনে করোনাকালে যে পরিস্থিতি তৈরি হয়েছিল তা ছিল ভয়াবহ। বরিস তাই দেশবাসীকে ধীরে চলো নীতি অবলম্বন করতে বলেছেন। টিকাকরণও যাতে দ্রুত সেখানে হয় সেদিকেও জোর দিয়েছেন বরিস।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর