× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতাস্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তী
ঢাকা, ১৩ এপ্রিল ২০২১, মঙ্গলবার

ইলিয়াস আলীর আসনে এডভোকেট আনোয়ারের প্রার্থিতা ঘোষণা

বাংলারজমিন

ওসমানীনগর (সিলেট) প্রতিনিধি
২৪ ফেব্রুয়ারি ২০২১, বুধবার

সিলেট-২ আসনে নিজের প্রার্থিতা ঘোষণা করলেন সিলেট জেলা জাতীয়তাবাদী মুক্তিযোদ্ধা দলের আহ্বায়ক এডভোকেট আনোয়ার হোসেন। ওসমানীনগর উপজেলা প্রেস ক্লাব ভবনে সাংবাদিকদের সঙ্গে এক মতবিনিময় সভায় তিনি নিজেকে আগামী সংসদ নির্বাচনে বিএনপি’র টিকিট প্রার্থী বলে জানান। এ আসনে পরপর ৩ বার বিএনপি’র মনোনয়নে জাতীয় সংসদে প্রতিনিধিত্ব করেন দলটির কেন্দ্রীয় নেতা ‘নিখোঁজ’ এম. ইলিয়াস আলী। সর্বশেষ নির্বাচনে বিএনপি’র সমর্থন নিয়ে এমপি নির্বাচিত হন গণফোরামের কেন্দ্রীয় নেতা মোকাব্বির খান।
বিএনপি’র কেন্দ্রীয় নেতা এম. ইলিয়াস আলীর সন্ধান দাবি করে এডভোকেট আনোয়ার হোসেন বলেন, ওসমানীনগর এবং বিশ্বনাথে বিএনপি, যুবদল, ছাত্রদল ও অঙ্গ সংগঠনগুলো অন্য যেকোনো সময়ের চাইতে অনেক বেশি সুসংহত ও আন্দোলনমুখী। কিন্তু প্রশাসনিক হয়রানি ও সাজানো মামলার কারণে অনেকেই মাঠে নামতে পারছে না। তবে ইলিয়াস আলীকে ফিরে পেতে ওসমানীনগর-বিশ্বনাথের বিএনপিসহ সাধারণ মানুষ যে কোনো ত্যাগ স্বীকারে রাজি। সবাইকে সম্পৃক্ত করে ইলিয়াস মুক্তি আন্দোলন আরো বেগবান করা হবে।
বিএনপি’র অভ্যন্তরীণ কোন্দল প্রসঙ্গে তিনি বলেন, কিছু কিছু রাজনৈতিক নেতা রয়েছেন যাদের দ্বিচারিতার কারণে প্রতিটি দলেই অভ্যন্তরীণ কোন্দল লেগে থাকে। বিএনপিও এর ব্যতিক্রম নয়। তবে রাজনৈতিক নেতাদের অবশ্যই দলীয় আদর্শ মেনে চলা উচিত। কতিপয় ব্যক্তি কোন্দলকে কেন্দ্র করে ব্যক্তিগতভাবে লাভবান হলেও দলের জন্য তা মারাত্মক ক্ষতিকর। এদের সামাজিক ও রাজনৈতিকভাবে বয়কট করা উচিত। মতবিনিময় সভায় উপস্থিত ছিলেন ওসমানীনগর উপজেলা বিএনপি’র আহ্বায়ক কমিটির সদস্য নজরুল ইসলাম, বুরুঙ্গা ইউনিয়ন বিএনপি’র সাবেক সভাপতি সুলেমান আলী, তাজপুর ইউনিয়ন বিএনপি’র সাবেক সাধারণ সম্পাদক শাইস্তা মিয়া, গোয়ালাবাজার ইউপি বিএনপি নেতা ছোরাব আলী, মো. আবুল কালাম, ওসমানীনগর উপজেলা যুবদল নেতা লাল মিয়া, উসমানপুর ইউপি যুবদলের যুগ্ম সম্পাদক মিঠু মিয়া প্রমুখ।

 

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
পাঠকের মতামত
**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।
Fahima Chowdhury
২৩ ফেব্রুয়ারি ২০২১, মঙ্গলবার, ২:১১

This reporter needs to gain more knowledge on sylhet 2 constitency. elias ali was mp only once not three times. Maybe 2 if you want to count Feb 95 election. But in reality only once. BNP needs new faces in this constituency. At the moment their is nobody outstanding, the only person capable was Osmani himself but since Osmani generally the MPs have been very poorly qualified people for this constituency, thats why no one is made a minister from bnp or awami league. It is good advocate anowar hossain has come forward. We need good educated people like him to come forward. Time will tell who will get nomination.

অন্যান্য খবর