× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতাখোশ আমদেদ মাহে রমজানস্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তী
ঢাকা, ১৭ এপ্রিল ২০২১, শনিবার

প্রতিবেশীর হৃৎপিণ্ড আলু দিয়ে রান্না, চাচা-চাচীকে খেতে দিয়ে তিনজনকে খুন

অনলাইন

মানবজমিন ডিজিটাল
(১ মাস আগে) ফেব্রুয়ারি ২৫, ২০২১, বৃহস্পতিবার, ৪:৩০ অপরাহ্ন

যুক্তরাষ্ট্রের জেল থেকে সাজার মেয়াদ শেষ হওয়ার কিছুদিন আগে জানুয়ারিতে ছাড়া পাওয়া এক ব্যক্তিকে এখন পুনরায় তিন ব্যক্তিকে হত্যার অভিযোগে অভিযুক্ত করা হয়েছে। মঙ্গলবার লরেন্স পল অ্যান্ডারসন নামের ওই ব্যক্তিকে আদালতে হাজির করা হলে বিচারক তার জামিন নামঞ্জুর করেন। যুক্তরাষ্ট্রের প্রভাবশালী সব গণমাধ্যম বিষয়টি নিশ্চিত করেছে।

ওকলাহোমা স্টেট ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন এর বরাত দিয়ে এপি এবং ওয়াশিংটন পোস্ট জানায়, লরেন্স প্রথমে প্রতিবেশী নারী এন্ড্রিয়া লিনের (৪১) বাসায় যায়। এরপর লিনের হৃৎপিণ্ড কেটে সাথে করে তার চাচার বাসায় নিয়ে আসে। সেখানে আলু দিয়ে ওই হৃৎপিণ্ড রান্না করে লরেন্স এবং চাচা-চাচীকে তা খেতে দেয়। এরপর চাচা এবং চাচার ৪ বছর বয়সী নাতনিকে খুন করে। চাচীও তার হামলায় গুরুতর আহত হন।

৯ ফেব্রুয়ারি এই মর্মান্তিক ঘটনা ঘটেছিল বলে তদন্তকারীরা জানিয়েছেন। লরেন্স নিজ অপরাধের কথা স্বীকার করেছে বলে জানানো হয়েছে সে দেশের সংবাদমাধ্যমের প্রতিবেদনে।
তদন্তকারীরা আদালতে জানান- লরেন্স তাদের বলেছে ‘পরিবার থেকে দৈত্য তাড়াতে’ সে এই কাজ করেছিল।
মঙ্গলবার আদালতে নিজের দোষও স্বীকার করেছে সে।

জানা গেছে, অপরাধের সঙ্গে লরেন্সের যোগাযোগ দীর্ঘদিনের। বিভিন্ন কারণে একাধিকবার জেলে গিয়েছে সে। ২০১৭ সালেই মাদক সংক্রান্ত অপরাধে ধরা পড়েছিল। তখন থেকে সে জেলেই ছিল। এখন জেল থেকে বেরিয়েই ৩ জনকে খুন করলো।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর