× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতাখোশ আমদেদ মাহে রমজানস্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তী
ঢাকা, ১৫ মে ২০২১, শনিবার, ২ শওয়াল ১৪৪২ হিঃ

পাকুন্দিয়ায় লিমন হত্যাকাণ্ডে গ্রেপ্তার ২

বাংলারজমিন

পাকুন্দিয়া (কিশোরগঞ্জ) প্রতিনিধি
১২ এপ্রিল ২০২১, সোমবার

কিশোরগঞ্জের পাকুন্দিয়া উপজেলায় রবিউল আউয়াল লিমন (১৭) নামে এক কিশোরকে হত্যার ঘটনায় জড়িত থাকার অভিযোগে দুই কিশোরকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। গতকাল ভোরে উপজেলার শৈলজানী এলাকা থেকে তাদের গ্রেপ্তার করে পাকুন্দিয়া থানা পুলিশ। গ্রেপ্তারকৃতরা হলেন- উপজেলার কোদালিয়া মধ্যপাড়া গ্রামের আজিজুল হকের দুই ছেলে ইয়াসিন (১৭) ও মুরসালিন (১৪)। জানা যায়, গত শুক্রবার বিকালে কিশোরগঞ্জ সদর উপজেলার বাটাইল গ্রামের একটি মাঠে গোল্লাছুট খেলা অনুষ্ঠিত হয়। খেলা দেখে লিমন ও তার তিন বন্ধু পার্শ্ববর্তী পাকুন্দিয়া উপজেলার কোদালিয়া পূর্বপাড়া গ্রামের মুর্শিদ আলীর ধান ক্ষেতের পাশে বসে আড্ডা দিচ্ছিল। এ সময় পাকুন্দিয়া উপজেলার সীমানার ভেতরে বসে আড্ডা দেয়ার কারণ জানতে চায় ইয়াসিন ও মুরসালিনসহ তার বন্ধুরা। এনিয়ে উভয়পক্ষের মধ্যে তর্ক-বিতর্ক শুরু হয়। একপর্যায়ে ইয়াসিন ও মুরসালিনের বন্ধু একই গ্রামের মোবারক (২০) উত্তেজিত হয়ে সঙ্গে থাকা ছুরি দিয়ে লিমনকে উপর্যুপরি আঘাত করে।
এতে লিমন গুরুতর আহত হয়ে পাশের ধান ক্ষেতে পড়ে যায়। পরে লিমনের বন্ধুরা মুমূর্ষু অবস্থায় তাকে উদ্ধার করে কিশোরগঞ্জ সদর জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। এ ঘটনায় গত শনিবার রাতে লিমনের মামা মো. মনির হোসেন বাদী হয়ে চারজনের নাম উল্লেখসহ অজ্ঞাত আরো ২-৩ জনকে আসামি করে পাকুন্দিয়া থানায় একটি মামলা করেন।  পাকুন্দিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. সারোয়ার জাহান বলেন, ‘লিমন হত্যার ঘটনায় তার মামা বাদী হয়ে পাকুন্দিয়া থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেছেন। অভিযুক্ত দু’জনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। অন্যদের দ্রুত গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।’

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর