× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতাখোশ আমদেদ মাহে রমজানস্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তী
ঢাকা, ১৩ মে ২০২১, বৃহস্পতিবার, ৩০ রমজান ১৪৪২ হিঃ

ইংল্যান্ডের স্কুলে পড়ানো হবে মালাইকার গান!

বিনোদন

বিনোদন ডেস্ক
১৫ এপ্রিল ২০২১, বৃহস্পতিবার

ইংল্যান্ডের স্কুলে এবার পড়ানো হবে ‘মুন্নি বদনাম হুয়ি’ গান। না, আজ এপ্রিল ফুল নয়। আর এ কোনও কল্প কাহিনিও নয়। একেবারে ঘোর বাস্তব। ইংল্যান্ডের মিউজিক স্কুলের পাঠ্যক্রমে যুক্ত হয়েছে সালমান খানের ‘দাবাং’ সিনেমার গানটি। সম্প্রতি ইংল্যান্ডের শিক্ষা মন্ত্রকের তরফে একথা জানানো হয়েছে। গানটি ২০১০ সালে মুক্তি পেয়েছিল ‘দাবাং’ সিরিজের প্রথম ছবিতে। ‘মুন্নি বদনাম হুয়ি’ গেয়েছিলেন মমতা শর্মা, ঐশ্বর্য নিগম, মাস্টার সেলিম।
আর গানে পারফর্ম করেছিলেন মালাইকা অরোরা। তখন অবশ্য মালাইকা ছবির অন্যতম প্রযোজক আরবাজ খানের স্ত্রী ছিলেন। বক্স অফিসে যেমন ‘দাবাং’ সুপারহিট হয়েছিল, তেমনই চার্ট বাস্টারে সবচেয়ে উপরে জায়গা করে নিয়েছিল আইটেম গানটি। সেই গান সম্পর্কে এবার পড়াশোনা করবেন ইংল্যান্ডের পড়ুয়ারা।
‘মুন্নি বদনাম হুয়ি’র পাশাপাশি আরও একাধিক গান ইংল্যান্ডের মিউজিক স্কুলগুলির পাঠ্যক্রমে রাখা হয়েছে। এর মধ্যে রয়েছে প্রখ্যাত সংগীতশিল্পী কিশোরী অমনকরের ‘সহেলি রে’, আনুশকা শংকরের ‘ইন্ডিয়ান সামার’ এবং এ আর রহমানের অস্কারজয়ী গান ‘জয় হো’। কেন এত ভারতীয় গান রাখা হয়েছে সেদেশের স্কুলের পাঠ্যক্রমে? ভারতীয় গানের বৈচিত্র বোঝাতেই এই পদক্ষেপ বলে জানা গিয়েছে। পাঠ্যক্রমে ‘মুন্নি বদনাম হুয়ি’ গান সম্পর্কে লেখা হয়েছে, গল্পের প্রয়োজন ছাড়াই আইটেম গানটি বলিউড ছবিতে ফুটে উঠেছে। ছবির কেন্দ্রীয় চরিত্র পুলিশ অফিসার চুলবুল পাণ্ডেকেও (সালমান খান) দেখা গিয়েছে মালাইকা আরোরার সঙ্গে গানে। নাচ-গান-রঙিন দৃশ্যে ভরপুর গানটি। গানের মধ্যে ‘টিপিক্যাল বলিউড’-এর বহু বিশেষত্ব ফুটে উঠেছে বলেও জানানো হয়েছে। ব্যাখ্যা যাই হোক। ইংল্যান্ডের স্কুলগুলির পাঠ্য হওয়ায় খুশি মালাইকা।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর