× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতাখোশ আমদেদ মাহে রমজানস্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তী
ঢাকা, ১৩ মে ২০২১, বৃহস্পতিবার, ৩০ রমজান ১৪৪২ হিঃ

বাউফলে মামলা তুলে নিতে আসামি পক্ষের হুমকি

বাংলারজমিন

বাউফল (পটুয়াখালী) প্রতিনিধি
১৭ এপ্রিল ২০২১, শনিবার

পটুয়াখালীর বাউফলে জমি সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে বসতঘর ও ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে ভাঙচুরের ঘটনায় দায়ের করা মামলা তুলে নিতে আসামি পক্ষের লোকজন বাদী ও তার পরিবারকে নানা ধরনের হুমকি দিচ্ছেন বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। মামলার বাদী নিলুফা বেগম স্থানীয় সাংবাদিকদের কাছে অভিযোগ করে বলেন, কেশবপুর ইউনিয়নের চৌরাস্তা বাজার এলাকায় স্বামী-সন্তান নিয়ে বসবাস করেন তিনি। তার স্বামী ছোবহান মেলকার একজন ব্যবসায়ী। বসতঘরের সঙ্গেই ব্যবসাপ্রতিষ্ঠান তার। গত ১০ই এপ্রিল জমিসংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে তার বসতঘরে ও স্বামীর ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে হামলা চালিয়ে ভাঙচুর করে ওই ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মহিউদ্দিন আহম্মেদ লাভলুর সমর্থকরা। এ সময় মারধর করা হয় তাকে, তার স্বামী ছোবহান মেলকার ও প্রসূতি মেয়ে রিয়া মনিকে। লুটপাট করে নিয়ে যাওয়া হয় নগদ টাকাসহ বিভিন্ন মালামাল। পরে চিকিৎসা নিয়ে তিনি নিজেই বাদী হয়ে ওই ইউপির চেয়ারম্যান মহিউদ্দিন লাবলুসহ ১৯ জনের নাম উল্লেখ করে গত ১৩ই এপ্রিল বাউফল থানায় একটি মামলা দায়ের করেন।
ওই মামলা তুলে নিতে আসামিরা কয়েকজন বিভিন্ন নম্বর দিয়ে ফোনে ও প্রকাশ্যে নানাভাবে চাপ প্রয়োগসহ তাকে ও তার পরিবারের লোকজনের হাত-পা গুঁড়িয়ে দেয়াসহ প্রাণনাশের হুমকি দিয়ে যাচ্ছে। আসামিদের কয়েকজন প্রকাশ্যে এলাকায় ঘুরে বেড়ালেও পুলিশ গ্রেপ্তার করছে না তাদের। ফলে নিরাপত্তাহীন  ভীতসন্ত্রস্ত দিন কাটাচ্ছেন তিনি ও তার পরিবারের লোকজন। এ ব্যাপারে অভিযুক্ত ইউনিয়ন চেয়ারম্যান মহিউদ্দিন আহম্মেদ লাভলু বলেন, ‘প্রতিপক্ষ আমাকে ও আমার কর্মী-সমর্থকদের সায়েস্তা করতে হত্যা মামলাসহ না ধরনের মামলায় জড়িয়ে হয়রানি করছেন। আমি যাতে ইউপি নির্বাচনে পুনরায় চেয়ারম্যান নির্বাচিত হতে না পারি এজন্য ষড়যন্ত্র করা হচ্ছে। আর এ ষড়যন্ত্রের সঙ্গে আমার প্রতিপক্ষ চেয়ারম্যান প্রার্থী জড়িত। এ ব্যাপারে বাউফল থানার ওসি (তদন্ত) আল মামুন বলেন, ‘ওই মালায় ইব্রাহিম (২৫) নামে একজনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। বাদীকে ভয়ভীতি কিংবা প্রাণনাশের হুমকির বিষয়টি জানা নেই। অভিযোগ পেলে ব্যবস্থা নেয়া হবে।’

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর