× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতাখোশ আমদেদ মাহে রমজানস্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তী
ঢাকা, ১৩ মে ২০২১, বৃহস্পতিবার, ৩০ রমজান ১৪৪২ হিঃ

সোনাইমুড়ীতে ব্যবসায়ীকে মারধর, বসতবাড়ি ভাঙচুর

বাংলারজমিন

সোনাইমুড়ী (নোয়াখালী) প্রতিনিধি
১৭ এপ্রিল ২০২১, শনিবার

 নোয়াখালীর সোনাইমুড়ীতে একটি দোকানঘর ক্রয়কে কেন্দ্র করে আব্দুল গফুর (৩১) নামে এক ব্যবসায়ীকে মারধর ও তার বসতবাড়ি ভাঙচুরের অভিযোগ পাওয়া গেছে। গত বৃহস্পতিবার সন্ধ্যা সাড়ে ৬টায় উপজেলার ১০নং আমিশাপাড়া ইউনিয়নের পালপাড়া গ্রামে আব্দুল গনি পাটোয়ারির বাড়িতে এই ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় আব্দুল গফুর ৯৯৯ কল করে পুলিশ এলে হামলাকারী স্থানীয় সন্ত্রাসীরা পালিয়ে যায়। স্থানীয় ও ভুক্তভোগী সূত্রে জানা যায়, উপজেলার আমিশাপাড়া ইউনিয়নের পালপাড়া গ্রামের নুরুল ইসলামের ছেলে আব্দুল গফুর প্রবাস থেকে ফিরে একই গ্রামের নুরু নবীর একটি দোকানঘর কিনেন। দোকানের পাশে দুইটি গাছ কাটাকে কেন্দ্র করে গত বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় একই গ্রামের মিলন ও সাদ্দামের নেতৃত্ব ১৫-২০ জন স্থানীয় সন্ত্রাসী আব্দুল গফুরের সঙ্গে বাকবিতণ্ডা করে। একপর্যায়ে মিলন তার হাতে থাকা গরম চা ব্যবসায়ী গফুরের গায়ে ঢেলে দেয়। এ সময় গফুরকে এতোপাতাড়ি কিল, ঘুসি ও তার ডান পায়ে আঘাত করে জখম করে। পরে স্থানীয়রা এগিয়ে এলে সন্ত্রাসীরা তার বাড়িতে গিয়ে হামলা চালিয়ে বসতঘরে ব্যাপক ভাঙচুর চালায়।
একপর্যায়ে ৯৯৯ কল করে পুলিশ আসলে সন্ত্রাসীরা পালিয়ে যায়। এই ঘটনায় ভুক্তভোগী ব্যবসায়ী আব্দুল গফুর জানান, হামলার পর থেকে আমি সোনাইমুড়ী থানায় যাওয়ার অনেক চেষ্টা করি, আমাকে ভয়ভীতি দেখানো হচ্ছে। অভিযোগ করলে আমাকে প্রাণে মারার হুমকি দেয় সন্ত্রাসীরা। এই ঘটনায় মামলার প্রস্তুতি চলছে। পরিবারটি স্থানীয় সন্ত্রাসীদের ভয়ে নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছেন বলে স্থানীয়রা জানান।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর