× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতাখোশ আমদেদ মাহে রমজানস্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তী
ঢাকা, ১৩ মে ২০২১, বৃহস্পতিবার, ৩০ রমজান ১৪৪২ হিঃ

ইলিয়াস আলীর গুম হওয়া নিয়ে যা বললেন মির্জা আব্বাস

অনলাইন

স্টাফ রিপোর্টার
(৩ সপ্তাহ আগে) এপ্রিল ১৭, ২০২১, শনিবার, ৭:৫৭ অপরাহ্ন

নিখোঁজের নয় বছর পর বিএনপি নেতা এম ইলিয়াস আলীকে নিয়ে নতুন তথ্য দিলেন দলটির স্থায়ী কমিটির সদস্য মির্জা আব্বাস। ইলিয়াস আলীর ‘গুমের’ পেছনে দলের ভেতরে থাকা কয়েকজন নেতাকে দুষলেন তিনি। ওই সব নেতার নাম উল্লেখ না করে বিএনপির স্থায়ী কমিটির এই সদস্য বলেন, দলের ভেতরে লুকিয়ে থাকা এই ব্যক্তিদের অনেকেই চেনেন তিনি। বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার রোগমুক্তি কামনা এবং সাবেক সাংসদ ও বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক এম ইলিয়াস আলীকে ফিরে পাওয়ার দাবিতে শনিবার বিকেলে এক ভার্চ্যুয়াল আলোচনা সভায় বিশেষ অতিথির বক্তব্যে মির্জা আব্বাস এসব কথা বলেন।

সিলেট বিভাগ জাতীয়তাবাদী সংহতি সম্মেলনী–ঢাকার উদ্যোগে ভার্চ্যুয়াল আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি ছিলেন দলের মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম।

মির্জা আব্বাস বলেন, ইলিয়াস গুম হওয়ার আগের রাতে দলীয় অফিসে কোনো এক ব্যক্তির সঙ্গে তার বাগ্বিত-া হয় মারাত্মক রকমের। ইলিয়াস খুব গালিগালাজ করেছিলেন তাকে। সেই যে পেছন থেকে দংশন করা সাপগুলো, আমার দলে এখনো রয়ে গেছে। যদি এদের দল থেকে বিতাড়িত না করেন, তাহলে কোনো পরিস্থিতিতেই দল সামনে এগোতে পারবে না।

ইলিয়াস আলীর গুমের খবর ওই দিন রাত দেড়টা থেকে পৌনে দুইটায় পেয়েছিলেন জানিয়ে বিএনপি নেতা মির্জা আব্বাস বলেন, গুমের সংবাদ পাওয়ার পর পরিচিত যারা ছিলেন, তাদের সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তারা জানান, ইলিয়াস আলীকে চট্টগ্রাম নিয়ে যাওয়া হয়েছে।
সবচেয়ে ইন্টারেস্টিং যে পুলিশ কর্তকর্তাদের সামনে তাকে নেয়া হলো, সেই পুলিশ কর্মকর্তাদের আজ পর্যন্ত পাওয়া যায়নি। এই খবর আপনারা কেউ জানেন না। পুলিশের গাড়িতে যে কজন কর্মকর্তা ছিলেন, তাদের আজও পাওয়া যায়নি। যেমন ইলিয়াস আলীর চালককেও পাওয়া যায়নি। তাহলে এই কাজটা করল কে?

বিএনপির এই সিনিয়র নেতা বলেন, আমি জানি আওয়ামী লীগ সরকার গুম করেনি। তাহলে গুমটা করল কে? এই সরকারের কাছে এটা আমি জানতে চাই। একজন জলজ্যান্ত তাজা রাজনৈতিক নেতা গুম হয়ে গেল দেশের অভ্যন্তর থেকে। আমাদের একজন নেতাকে দেশ থেকে পাচার করে নিয়ে গেল, সালাউদ্দিনকে। আমাদের চৌধুরী আলমকে গুম করে দেয়া হলো। আমাদের কত ছেলেদের গুম করে দেয়া হলো, বুঝলাম এই সরকার করে নাই। করল কারা? যারা করল, তাদের কি বিচার হতে পারে না? যারা করেছে, তারা এই দেশের স্বাধীনতা চায় নাই? তারা স্বাধীনতা, স্বার্বভৌমত্ব দেশে থাকতে দেবে না।

২০১২ সালের ১৭ এপ্রিল ঢাকার বনানী থেকে গাড়িচালক আনসার আলীসহ নিখোঁজ হন ইলিয়াস আলী।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
পাঠকের মতামত
**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।
Md.Shamsul Alam
১৯ এপ্রিল ২০২১, সোমবার, ৩:১৮

বাংলাদেশ এখন আওয়ামী মুল্লুক।এই মুল্লুকে পুলিশ এবং আমলাদের পোয়াবারো। যে যেভাবে পারছে, লুটেপুটে খাচ্ছে এটি দেশ, জনগন, সরকার, আওয়ামী লীগের জন্য খারাপ উদাহরণ হয়ে থাকবে। very shameful …….. দুঃখ পেলাম। ২০০৯ সালের জানুয়ারি থেকে ২০১৯ সালের ডিসেম্বর পর্যন্ত বর্তমান সরকারের অধীনে দেশে প্রায় ৩ হাজার মানুষ পুলিশ, র‍্যাব ও ডিবির হাতে বিচারবহির্ভূত হত্যাকাণ্ডের শিকার হয়েছেন। এঁদের অধিকাংশই বিরোধীদলীয় নেতা-কর্মী।

Mustafa Ahsanঅনেকদিন
১৭ এপ্রিল ২০২১, শনিবার, ১১:৫৬

নয় বৎসর পরে কেন ? সরকারের নূতন দালাল ।

সুলতান
১৭ এপ্রিল ২০২১, শনিবার, ৯:৪১

জনাব ইলিয়াস আলীর গুম হয়েছে নয়টি বছর হল অসহায় পরিবারটি একা। বিএনপি নেতারা সব সময়ই বর্ধমান ক্ষমতাশীনদের দায়ী করেছে সরাসরি। বিগত নয় বছর আপনি সব অবগত হওয়ার পরও আপনার মুখ বন্ধ রেখেছন কেন? বেছারী মেডাম ইলিয়াস আলী, চোখের পানি নিয়ে সবার দারে দারে গিয়েছেন কেউ অসহায়ের সাহায্য এগিয়ে আসে নাই, এতো বছর সব গোপন রেখে এখন ঠটাৎ করে কি উদ্দেশ্যে নিয়ে আপনি আপনার মুখ খুললেন? আপনার এ ধরনের অবাক তরা বক্তব্যে ক্ষমতাশীনদের কাছ থেকে আপনার কিছু সার্থ আদায় করার জন্য নতুন রাজনৈতিক খেলা নয়তো জনাব মির্জা আব্বাস? হাসবুনা আল্লাহ ওয়ানিম আলওয়াকিল, হাসবুনা আল্লাহ ওয়ানিম আলওয়াকিল, হাসবুনা আল্লাহ ওয়ানিম আলওয়াকিল, হাসবুনা আল্লাহ ওয়ানিম আলওয়াকিল, হাসবুনা আল্লাহ ওয়ানিম আলওয়াকিল, হাসবুনা আল্লাহ ওয়ানিম আলওয়াকিল, হাসবুনা আল্লাহ ওয়ানিম আলওয়াকিল। لا إلاه إلاالله محمد الرسول الله ولا حول ولا قوه الا بالله العلي العظيم

কুদ্দুস
১৮ এপ্রিল ২০২১, রবিবার, ১:২২

বিএনপি নেতা মির্জা আব্বাস বলেন, সবচেয়ে ইন্টারেস্টিং যে পুলিশ কর্তকর্তাদের সামনে তাকে নেয়া হলো, সেই পুলিশ কর্মকর্তাদের আজ পর্যন্ত পাওয়া যায়নি। এই খবর আপনারা কেউ জানেন না। পুলিশের গাড়িতে যে কজন কর্মকর্তা ছিলেন, তাদের আজও পাওয়া যায়নি। যেমন ইলিয়াস আলীর চালককেও পাওয়া যায়নি। তাহলে এই কাজটা করল কে?

মাসুদ রানা
১৭ এপ্রিল ২০২১, শনিবার, ১১:৫৯

ইলিয়াস আলী একটি টিপাইমুখের প্রতিবাদ করিয়া নিখোঁজ হইয়াছিলেন, তারেক সামসুর রেহমান অনেকগুলি টিপাইমুখের কথা জানাইতে গিয়া লাশ হইলেন।

Mahmud
১৭ এপ্রিল ২০২১, শনিবার, ৯:৩৫

ইলিয়াস আলীর গুমের বিষয়ে গত নয় বছর ধরে বিএনপি সরাসরি সরকারকে দায়ী করেছে । এই নয় বছর আপনি কোথায় ছিলেন ? হঠাৎ করে এতো বছর পরে আপনার এ ধরনের অবাক তরা বক্তব্যের পিছনে মতলবটা কি ?

হেদায়েত উল্লাহ
১৭ এপ্রিল ২০২১, শনিবার, ৯:১৭

সত্য কখনো চাপা থাকেনা । ধন্যবাদ মীর্জা আব্বাস কে দেরিতে হলেও সত্য প্রকাশ করার জন্য

সাইফুল ইসলাম ফিরোজ
১৭ এপ্রিল ২০২১, শনিবার, ৮:৫৮

ইলিয়াস আলী কে গুম করার পেছনের কুচক্রী মহল একদিন চিহ্নিত হবে। সরকারকেও একদিন কাঠগড়ায় দাঁড়াতে হবে।

অন্যান্য খবর