× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতাখোশ আমদেদ মাহে রমজানস্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তী
ঢাকা, ১৪ মে ২০২১, শুক্রবার, ১ শওয়াল ১৪৪২ হিঃ

কোম্পানীগঞ্জ আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদকের ওপর হামলা, গুলি

শেষের পাতা

কোম্পানীগঞ্জ (নোয়াখালী) প্রতিনিধি
২০ এপ্রিল ২০২১, মঙ্গলবার

নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও ১নং সিরাজপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান নূরনবী চৌধুরীর ওপর হামলা ও পায়ে গুলি চালিয়েছে দুর্বৃত্তরা। এতে নূরনবী চৌধুরীসহ ২জন আহত
হয়েছেন। জানা গেছে, সোমবার সকাল সাড়ে ১০টায় নূরনবী চৌধুরী মোটরসাইকেলযোগে তার কর্মস্থল সিরাজপুর ইউনিয়ন থেকে কোম্পানীগঞ্জ উপজেলা চত্বরের দিকে আসছিলেন। পথিমধ্যে বসুরহাট পৌরসভার ৩নং ওয়ার্ডের মাস্টারপাড়ায় একদল অস্ত্রধারী সন্ত্রাসী তার ওপর অতর্কিত হামলা চালায় এবং পায়ে গুলি করে। এ সময় তার সঙ্গে থাকা তার সহযোগী আবদুর রব পিন্টু তাকে বাঁচাতে এলে তাকেও পিটিয়ে আহত করা হয়। তাকে আশঙ্কাজনক অবস্থায় কোম্পানীগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেয়া হলে কর্তব্যরত ডাক্তার ঢাকা পঙ্গু হাসপাতালে প্রেরণ করেন। বর্তমানে কোম্পানীগঞ্জ উপজেলায় থমথমে পরিস্থিতি বিরাজ করছে।  এলাকায় র‌্যাব, ডিবি পুলিশ ও কোম্পানীগঞ্জ থানা পুলিশ টহল দিচ্ছে। এদিকে এ হামলার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়ে সন্ত্রাসীদের অনতিবিলম্বে গ্রেপ্তারের দাবি জানিয়েছে উপজেলা আওয়ামী লীগ।

এ ব্যাপারে কোম্পানীগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা  মো. সেলিম বলেন, তার বাম পায়ের হাঁটুর নিচে গুলির ক্ষত চিহ্ন পাওয়া গেছে। গুলির চিহ্ন অনেক ভিতরে চলে গেছে। উন্নত চিকিৎসার জন্য তাকে ঢাকা পঙ্গু হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে।
কোম্পানীগঞ্জ থানার ওসি মীর জাহেদুল হক রনি হামলার বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, আমরা এখনো কোনো অভিযোগ পায়নি। অভিযোগ পেলে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
পাঠকের মতামত
**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।
Neutral and Sufferer
২০ এপ্রিল ২০২১, মঙ্গলবার, ৪:২৩

This all done by Mr. Quader Mirza and his supporter. Mr. Quader Mirza, please stop torturing your opponent group. Torturing opponent group is not "Satta Bachan". This is "Bhandami"

অন্যান্য খবর