× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতাখোশ আমদেদ মাহে রমজানস্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তী
ঢাকা, ১৪ মে ২০২১, শুক্রবার, ১ শওয়াল ১৪৪২ হিঃ

সুধারামের ভূমিদস্যু বাহিনীর গুলির ঘটনায় ৬ দিনেও গ্রেপ্তার হয়নি কেউ

বাংলারজমিন

স্টাফ রিপোর্টার, নোয়াখালী থেকে
২১ এপ্রিল ২০২১, বুধবার

নোয়াখালী সুধারামের জমি দখলের চেষ্টায় গুলির ঘটনায় করা মামলার ৬ দিনেও কাউকে গ্রেপ্তার করেনি পুলিশ। এ বিষয়ে এলাকাজুড়ে ক্ষোভের সৃষ্টি হয়েছে। জানা গেছে, গত বৃহস্পতিবার দিবাগত সাড়ে ১২টার দিকে সদর উপজেলার ২০নং আন্ডারচর ইউনিয়নের আন্ডারচর গ্রামের মো. কামাল উদ্দিন মাস্টারের মালিকানা ভূমিতে যায় ভূমিদস্যু আবু জাফর প্রিন্স ও তার সন্ত্রাসী বাহিনীরা। এ সময় স্থানীয় লোকজনকে আতঙ্কিত করার জন্য জমিতে মাটি কাটার মেশিন নামাতে গিয়ে হকার খুরশিদের নেতৃত্বে ৫ রাউন্ড ফাঁকাগুলি ছুড়লে এলাকাবাসী চারপাশ থেকে তাদেরকে ঘিরে ফেলেন। পরে তারা সুধারাম মডেল থানায় কল করে সহায়তা চাইলে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে তাদেরকে উদ্ধার করে আনে। এ ব্যাপারে মো. কামাল উদ্দিন মাস্টার বলেন, আমি চাকরি করার কারণে দীর্ঘদিন যাবৎ জেলা শহর মাইজদীতে বাসা ভাড়া নিয়ে অবস্থান করছি। এ সুযোগে আবু জাফর তার সন্ত্রাসী বাহিনী নিয়ে রাতের আঁধারে আমার মালিকীয় জমি অবৈধভাবে দখল করার চেষ্টা করছে। তিন মাস আগেও সে তার সন্ত্রাসী বাহিনী দিয়ে আমার ২ একর জমি দখল করে নেয়।
এ ঘটনায় আমি থানায় অভিযোগ করলে প্রশাসন আমার অভিযোগ গ্রহণ করেনি। অপরদিকে অভিযুক্ত আবু জাফর প্রিন্স জানান, আমার মালিকীয় জমিতে আমার কর্মচারীরা মাটি কাটতে গেলে কামাল মাস্টার তার লোকজন নিয়ে আমার লোকজনের ওপর হামলা চালায়। আমি এ ঘটনায় থানায় মামলা করেছি। এদিকে সুধারাম মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো. সাহেদ উদ্দিন জানান, এ বিষয়ে আমি অবগত আছি। এ ঘটনায় একটি মামলা হয়েছে।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর