× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতাখোশ আমদেদ মাহে রমজানস্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তী
ঢাকা, ১৫ মে ২০২১, শনিবার, ২ শওয়াল ১৪৪২ হিঃ

গণপরিবহন চালুর দাবি

বাংলারজমিন


২৩ এপ্রিল ২০২১, শুক্রবার

চট্টগ্রাম
স্টাফ রিপোর্টার, চট্টগ্রাম থেকে: স্বাস্থ্যবিধি মেনে আগামী ২৮শে এপ্রিলের পর থেকে গণপরিবহন চালুর দাবিতে নগরীতে মানববন্ধন করেছে শ্রমিকরা। এ সময় শ্রমিকদের অসহায় জীবনযাপনের কথা তুলে  ধরা হয়। বৃহস্পতিবার সকাল ১১টায় চট্টগ্রাম প্রেস ক্লাবের সামনে পরিবহন শ্রমিক ফেডারেশনের ব্যানারে এ কর্মসূচি পালন করা হয়।
মানববন্ধনে শ্রমিক নেতারা বলেন, গণপরিবহন বন্ধ থাকায় শ্রমিকরা মানবেতর জীবনযাপন করছে। লকডাউনের মধ্যেও পরিবহন শ্রমিকরা সরকারের পক্ষ থেকে কোনো ধরনের সহায়তা পায়নি। শ্রমিক নেতাদের দাবি, এখন রমজান চলছে। কিন্তু অসহায় শ্রমিকদের ঘরে খাবার নেই। সামনে আবার ঈদ এমন পরিস্থিতিতে শ্রমিকদের পরিবারের কথা বিবেচনায় নিয়ে সীমিত পরিসরে গণপরিবহন চালু করা প্রয়োজন।
মানববন্ধনে  বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন শ্রমিক ফেডারেশন চট্টগ্রাম ও সিলেট বিভাগের সভাপতি মৃণাল চৌধুরী, বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন শ্রমিক ফেডারেশন চট্টগ্রাম অঞ্চলের সভাপতি মো. মূছা, সাধারণ সম্পাদক অলি আহমদ, কার্যনির্বাহী সদস্য রকিবুল মাওলা, ট্রাক-কাভার্ডভ্যান ইউনিয়নের প্রচার সম্পাদক মোহাম্মদ সবুরসহ বিভিন্ন পর্যায়ের শ্রমিক নেতারা বক্তব্য রাখেন।

ঝিনাইদহ
ঝিনাইদহ প্রতিনিধি: স্বাস্থ্যবিধি মেনে গণপরিবহন চালুর দাবি জানিয়েছেন ঝিনাইদহ পরিবহন শ্রমিক নেতারা। গতকাল সকালে জেলা বাস মিনিবাস কোচ মাইক্রোবাস শ্রমিক ইউনিয়নের কার্যালয়ে এক জরুরি সভায় সরকারের প্রতি এ আহ্বান জানান তারা।
সভায় সংগঠনটির সভাপতি ওয়ালিউর রহমান, সাধারণ সম্পাদক আশারাফুজ্জামান খোকন, সহ-সভাপতি অলিয়ার রহমান, আমির ফয়সাল মহব্বত, দপ্তর সম্পাদক চুন্নু বিশ্বাস, প্রচার সম্পাদক গোলাম মোস্তফা ডাবলু, ক্রীড়া সম্পাদক মিজানুর রহমানসহ শ্রমিক নেতারা উপস্থিত ছিলেন। সভা শেষে সভাপতি ওয়ালিউর রহমান বলেন, চলমান সর্বাত্মক লকডাউনের ৩য় ধাপে এখন সবকিছুই চালু রয়েছে। দোকানপাট খোলা হচ্ছে। ভ্যান, ইজিবাইক, রিকশা সবই চলছে। রাস্তায় মানুষ বের হচ্ছে। শুধুমাত্র বাস-মিনিবাস বন্ধ রয়েছে। বাস বন্ধ থাকার কারণে হাজার হাজার শ্রমিক পরিবার-পরিজন নিয়ে কষ্টের মাঝে দিন কাটাচ্ছে। দিন এনে দিন খাওয়া পরিবারগুলোর অবস্থা খুবই শোচনীয়। এ অবস্থায় সরকারের দেয়া নির্দেশনা মেনে ৫০ ভাগ যাত্রী নিয়ে গণপরিবহন চালুর দাবি জানাচ্ছি। একই সঙ্গে পরিবহন শ্রমিকদের ১০ টাকা কেজি দরে চাল কেনার সুবিধাসহ সরকারের সংশ্লিষ্ট মহলকে আহ্বান জানান।

সিলেট
স্টাফ রিপোর্টার, সিলেট থেকে: স্বাস্থ্যবিধি মেনে যানবাহন চলাচল খুলে দেয়ার দাবি সিলেটে বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ করেছে পরিবহন শ্রমিকরা। লকডাউনে সবধরনের জনসমাগম নিষিদ্ধ হলেও শ্রমিক স্বার্থ রক্ষার জন্য তারা এ কর্মসূচি পালন করেন জানিয়েছেন পরিবহন শ্রমিক নেতারা। এ সময় তারা দশ টাকা কেজি দরের ভিজিএফের চাল শ্রমিকদের মধ্যে বিতরণের দাবিও জানান। গতকাল বৃহস্পতিবার সকাল ১১টায় সিলেট জেলা বাস-মিনিবাস-কোচ-মাইক্রোবাস শ্রমিক ইউনিয়নের উদ্যোগে কদমতলীস্থ কেন্দ্রীয় বাস টার্মিনাল থেকে বিক্ষোভ মিছিল বের করা হয়। মিছিলটি হুমায়ূন রশিদ চত্বর ও কিনব্রিজ এলাকা ঘুরে ফের টার্মিনালে গিয়ে শেষ হয়। পরে টার্মিনালে অনুষ্ঠিত হয় সমাবেশ। সমাবেশে বক্তারা বলেন- বিমান চলাচল শুরু হয়েছে। প্রাইভেট গাড়ি চলছে। লকডাউনের অজুহাতে শুধুমাত্র গণপরিবহন বন্ধ করে রাখা হয়েছে। এতে দেশের লাখ লাখ শ্রমিক রমজান মাসে না খেয়ে আছে। এই অমানবিক অবস্থা থেকে শ্রমিকদের মুক্তি দিতে অবিলম্বে স্বাস্থ্যবিধি মেনে গণপরিবহন চালুর নির্দেশ দিতে হবে। বক্তারা বলেন, গণপরিবহন শ্রমিকরা মানবেতর জীবনযাপন করলেও তাদেরকে ভিজিএফ’র আওতায় নেয়া হচ্ছে না। তাই শ্রমিকদের ভিজিএফ’র আওতায় নিয়ে ১০ টাকা কেজি দরে তাদেরকে চাল দিতে হবে। সমাবেশে বক্তব্য রাখেন পরিবহন শ্রমিক নেতা ময়নুল ইসলাম, আবু সরকার, মোহাম্মদ জাকারিয়া, আলী আকবর রাজনসহ সিনিয়র নেতারা।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর