× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতাখোশ আমদেদ মাহে রমজানস্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তী
ঢাকা, ২০ জুন ২০২১, রবিবার, ৮ জিলক্বদ ১৪৪২ হিঃ

গলাচিপায় গরু চোর সন্দেহে গণপিটুনি সাবেক ইউপি সদস্যসহ আটক ৪

বাংলারজমিন

গলাচিপা (পটুয়াখালী) প্রতিনিধি
৯ মে ২০২১, রবিবার

গলাচিপায় জালে ট্রলারের পাখা আটকে যাওয়ায় বাকবিতণ্ডার এক পর্যায় গরু চোরের গুজব রটিয়ে এক পরিবারের ৬ জনকে গণপিটুনি দিয়ে আহত করেছে। গত শুক্রবার দিবাগত রাত সাড়ে ১০টায় গলাচিপা রামনাবাদ নদীর গজালিয়া এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় জড়িত থাকার অভিযোগে গজারিয়ার সাবেক ইউপি সদস্যসহ চারজনকে আটক করেছে পুলিশ। আটককৃতরা হলো- গজালিয়ার সাবেক ইউপি সদস্য মো. কলিমুল্লা, বেল্লাল হাওলাদার, সুমন মৃধা ও মনিরুল ইসলামকে আটক করেছে পুলিশ। গলাচিপা থানার অফিসার ইনচার্জ (তদন্ত) আতিকুল ইসলাম জানান, গত শুক্রবার রাত আনুমানিক সাড়ে ১০টার দিকে পটুয়াখালীর লোহালিয়া ইউনিয়নের হাসেম খান প্রতি বছর মাছ শিকারে পরিবার নিয়ে জেলার কলাপাড়া উপজেলার ধুলারসর এলাকায় যায়। এ বছরও মাছ শিকার শেষে ধুলারসর থেকে গ্রামের বাড়ি পটুয়াখালীর লোহারিয়ার উদ্দেশ্যে ট্রলার যোগে রওয়ানা হয়। রাত সাড়ে ১০টার দিকে রামনাবাদ নদীর ডাকুয়া এলাকার কাছে একটি মাছের জালের সঙ্গে ট্রলারের পাখা আটকে যায়। এ নিয়ে ডাকুয়ার ওই জেলের সঙ্গে বাকবিতণ্ডা হয়।
এক পর্যায় ওই জেলে গরু চোর বলে চিৎকার দিলে ডাকুয়া, গজালিয়া ও আমখোলার লোকজন এসে হাসেম খানের ট্রলার আটক করে। ট্রলারে গরু, হাস-মুরগি দেখতে পেয়ে লোকজন ক্ষিপ্ত হয়ে ওঠে। এ সময় গণপিটুনিতে হাসেম খান (৬৫), শাহাবুদ্দিন খান (৩৫), শহিদুল খান (৩০), বাহাদুর খান (২৮), ছিদ্দিক খান (৪৫), সেন্টু খান (২০) গুরুতর আহত হন। খবর পেয়ে পুলিশ গজালিয়া ইউনিয়নের চরচন্দ্রাইল এলাকা থেকে আহতদের উদ্ধার করে। এ প্রসঙ্গে গলাচিপা থানার অফিসার ইনচার্জ এমআর শওকত আনোয়ার ইসলাম বলেন, ‘শুক্রবার রাতে গরু চুরির গুজব রটিয়ে পটুয়াখালীর লোহালিয়ার কুড়ি পাইক গ্রামের হাসেম খানের পরিবার ও ট্রলারে হামলা চালিয়ে মারধর ও হামলা চালিয়ে ভাঙচুরা করা হয়। গণপিটুনিতে ট্রলারে থাকা ওই পরিবারের সদস্যরা আহত হয়েছেন। এ ঘটনায় জড়িতদের কয়েকজনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। অন্য অভিযুক্তদের গ্রেপ্তারের জন্য অভিযান চলছে। এ ঘটনায় মামলার প্রক্রিয়া চলছে।’

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর