× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতাখোশ আমদেদ মাহে রমজানস্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তীসেরা চিঠি
ঢাকা, ৩ আগস্ট ২০২১, মঙ্গলবার , ১৯ শ্রাবণ ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ২৩ জিলহজ্জ ১৪৪২ হিঃ

ধামরাইয়ে দুই গৃহবধূর লাশ উদ্ধার

দেশ বিদেশ

ধামরাই (ঢাকা) প্রতিনিধি
১৫ জুন ২০২১, মঙ্গলবার

ঢাকার ধামরাইয়ে একদিনে পৃথক স্থান থেকে দুই গৃহবধূর লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। এ নিয়ে এলাকায় বেশ চাঞ্চল্যকর অবস্থার সৃষ্টি হয়েছে। গতকাল  লাশ দু’টি উদ্ধার করে থানা পুলিশ।
জানা গেছে, পৌরসভার ৬নং ওয়ার্ডের কাগুজিপাড়া মহল্লার নূর নাহার (৩২) নামে এক স্কুল শিক্ষিকা গলায় ফাঁস দিয়ে মারা গেছেন। নূর নাহার পৌরসভার বেজিরটেক এলাকার নূর হাসানের মেয়ে। তিনি কুমরাইল মহল্লায় মর্নিং ডিউ স্কুল এন্ড কলেজের শিক্ষিকা। তার মৃত্যুর ঘটনায় স্বামী খোকন ও স্বামীর ছোট ভাই রাসেল পলাতক রয়েছেন। নূর নাহার দুই সন্তানের মা। নূর নাহারের গলায় ও কপালে আঘাতের চিহ্ন রয়েছে।
আত্মীয়-স্বজনের দাবি, নূর নাহারকে মেরে ঘরের আড়ার সঙ্গে ঝুলিয়ে রাখা হয়েছে। অপরদিকে, উপজেলার আমতা ইউনিয়নের জোয়ার আমতা গ্রামে সকালে গায়ে কেরোসিন ঢেলে আগুন লাগিয়ে আলেয়া বেগম নামে এক গৃহবধূ আত্মহত্যা করেছেন বলে জানা গেছে। নিহত আলেয়া বেগম মানিকগঞ্জ জেলার সাটুরিয়া উপজেলার দড়গ্রাম এলাকার মেয়ে। এ ঘটনায়ও নিহতের স্বামী আলমগীর হোসেন পলাতক রয়েছেন। আলমগীর হোসেন আমতা ইউনিয়নের জোয়ার আমতা গ্রামের হানিফ আলীর ছেলে। দু’টি মৃত্যু নিয়ে এলাকায় বেশ চাঞ্চল্য সৃষ্টি হয়েছে। এ বিষয়ে ধামরাই থানার এস আই নজরুল ইসলাম বলেন, নিহত নূর নাহারের গলায় ও কপালে দাগ রয়েছে। লাশ ময়নাতদন্তের জন্য পাঠানো হয়েছে। রিপোর্ট আসার পর সঠিক তথ্য পাওয়া যাবে। নূর নাহারের স্বামী ও দেবর পলাতক রয়েছে।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর