× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতাখোশ আমদেদ মাহে রমজানস্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তীসেরা চিঠি
ঢাকা, ৩১ জুলাই ২০২১, শনিবার, ২০ জিলহজ্জ ১৪৪২ হিঃ

অন্তঃসত্ত্বা এলকোহল পান করলে গর্ভস্থ শিশুর অঙ্গহানী হতে পারে- বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা

বিশ্বজমিন

মানবজমিন ডেস্ক
(১ মাস আগে) জুন ১৭, ২০২১, বৃহস্পতিবার, ১১:০০ পূর্বাহ্ন

মদ বা এলকোহল পান করলে অন্তঃসত্ত্বার গর্ভস্থ শিশুর ভ্রুণে ‘ডিসঅর্ডার’ বা অঙ্গপ্রত্যঙ্গের নানা জটিলতা দেখা দেয়ার আশঙ্কা থাকে। তাই বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা শিশু জন্মদান উপযোগী যুবতী বা নারীদের জন্য এলকোহল পান নিষিদ্ধ করার আহ্বান জানিয়েছে। এ বিষয়ে ক্ষতিকর দিকটি তুলে ধরে দেশগুলোর প্রতি সচেতনা বৃদ্ধির আহ্বান জানিয়েছে গ্লোবাল এলকোহল একশন প্লান। সতর্ক করা হয়েছে শিশু, অন্তঃসত্ত্বা এবং শিশু জন্মদানের উপযোগী বয়সী নারীদের এলকোহল পান না করতে। তবে এমন প্রস্তাবকে পুরুষতান্ত্রিক বলে মন্তব্য করেছে এ জাতীয় পানীয় সংক্রান্ত শিল্প। এ খবর দিয়েছে অনলাইন ডেইলি মেইল। প্রস্তাবনায় বলা হয়েছে এলকোহল পান করলে বিভিন্ন রোগ বৃদ্ধির ঝুঁকি থাকে। এ ছাড়া মানসিক স্বাস্থ্যের ক্ষতি হয়।
সহিংসতা বৃদ্ধি পায়। কর্মক্ষমতা লোপ পায় এবং সম্পর্ক নষ্ট হয়। তবে সবচেয়ে ভয়ের বিষয় হলো এলকোহল পান করলে নারীর গর্ভস্থ শিশুর অঙ্গহানি হওয়ার আশঙ্কা থাকে। এতে মায়ের গর্ভে থাকা অবস্থায় শিশুর বৃদ্ধি কম হয়, বিকৃত মৌখিক আকৃতির হয়, শিক্ষা গ্রহণ এবং আচরণগত সমস্যা দেখা দেয়। আন্তর্জাতিক ‘ওয়ার্ল্ড নো এলকোহল ডে/উইক’ বা এলকোহলমুক্ত দিন বা সপ্তাহ পালনের মাধ্যমে এসব ক্ষতিকর বিষয় ফুটিয়ে তোলা যায়। এতে আরো বলা হয়, শিশুদের মদ পান থেকে বিরত রাখার জন্য পদক্ষেপ নেয়া উচিত। অন্তঃসত্ত্বা বা সন্তান জন্মদানে সক্ষম এমন বয়সী নারীদেরকেও মদপান থেকে বিরত রাখা উচিত। বৃটেনের প্রধান মেডিকেল অফিসাররা বলছেন, যেসব নারী অন্তঃসত্ত্বা বা সন্তান ধারণ করতে যাচ্ছেন, তাদের জন্য সবচেয়ে নিরাপদ উপায় হলো মদ পান একেবারে ছেড়ে দেয়া। তবে বৃটেনে এলকোহল ব্যবসায়ী পরিষদ পোর্টম্যান গ্রুপের ম্যাট ল্যাম্বার্ট বলেছেন, বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা যে প্রস্তাব দিয়েছে তা চরমভাবে উদ্বেগজনক। তিনি বলেছেন, এর সঙ্গে বিজ্ঞানের কোনো সম্পর্ক নেই। ওদিকে বৃটেনের জাতীয় স্বাস্থ্যসেবা বিষয়ক এনএইচএসের ওয়েবসাইটে বলা হয়েছে, অন্তঃসত্ত্বাদের জন্য এলকোহল পান করা কতটা নিরাপদ সে বিষয়ে এখনও নিশ্চিত করে বলা যায় না। তবে এতে সতর্কতা দেয়া হয়েছে। তাতে বলা হয়েছে, অন্তঃসত্ত্বা অবস্থায় মদ পান করলে শিশুর দীর্ঘমেয়াদি ক্ষতি হতে পারে। এলকোহল চেঞ্জ ইউকের প্রধান নির্বাহী ড. রিচার্ড পিপার বলেছেন, অন্তঃসত্ত্বার প্রাথমিক পর্যায়ে, এমনকি যখন অনেকে মনে করেন তিনি অন্তঃসত্ত্বা- তখন মদ বা এলকোহল পান করলে গর্ভস্থ ভ্রুণের মারাত্মক ক্ষতি হতে পারে।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর