× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতাখোশ আমদেদ মাহে রমজানস্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তীসেরা চিঠি
ঢাকা, ৩১ জুলাই ২০২১, শনিবার, ২০ জিলহজ্জ ১৪৪২ হিঃ

ভারতে করোনার ৩য় ঢেউ 'অনিবার্য': এআইআইএমএস প্রধান

বিশ্বজমিন

মানবজমিন ডেস্ক
(১ মাস আগে) জুন ১৯, ২০২১, শনিবার, ৫:৩৯ অপরাহ্ন

দ্বিতীয় ঢেউতে ভয়াবহ সংকটের মুখে পড়তে হয়েছিল ভারতকে। কোনোমতে সেখান থেকে ভালো পরিস্থিতির দিকে যাচ্ছে দেশটি। এরইমধ্যে তৃতীয় ঢেউকে 'অনিবার্য' বলে সতর্ক বাণী দিলেন ভারতের অল ইন্ডিয়া ইনস্টিটিউট অব মেডিকেল সাইন্স (এআইআইএমএস) এর প্রধান ডা. রনদিপ গুলেরিয়া। তার মতে, আগামী ছয় থেকে আট সপ্তাহের মধ্যেই ভারতে তৃতীয় ঢেউ আঘাত হানবে। ভারতীয় গণমাধ্যম এনডিটিভিকে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে তিনি বলেন, আমরা যতই নিষেধাজ্ঞা শিথিল করছি, ততোই মানুষের মাঝে করোনাকালীন আচরণবিধি হ্রাস পাচ্ছে। আমরা প্রথম ও দ্বিতীয় ঢেউ থেকে কিছুই শিখিনি। আবার ভিড় বাড়ছে, লোকসমাগম বাড়ছে। এই অবস্থায় সংক্রমণ আবার বাড়বে।
ভারতে করোনার তৃতীয় ঢেউ অনিবার্য।

করোনাভাইরাসের তৃতীয় ঢেউ কেনো অনিবার্য তার ব্যাখ্যাও দিয়েছেন গুলেরিয়া। তিনি বলেন, ভারতে এ পর্যন্ত মাত্র ৫ শতাংশ মানুষকে ভ্যাকসিনের উভয় ডোজের আওতায় আনা হয়েছে। যদিও এ বছরের মধ্যেই ১৩০ কোটি জনসংখ্যার ১০৮ কোটিকে ভ্যাকসিনের আওতায় আনার লক্ষ্য নির্ধারণ করেছিল সরকার। করোনাভাইরাস মোকাবিলায় মানুষকে দ্রুত ভ্যাকসিনের আওতায় আনা সবচেয়ে জরুরি বলে জানান এ স্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞ। তিনি আরো বলেন, বৃটেনে ডেল্টা ভ্যারিয়েন্ট তৃতীয় ঢেউয়ের কারণ হয়েছে। এটি এখনও মিউটেশন চালিয়ে যাচ্ছে। ভারতকেও তাই সতর্ক থাকতে হবে।

তিনি উদ্বেগ জানিয়ে বলেন, নতুন নতুন ঢেউগুলোর মধ্যেকার সময়ের ব্যবধান কমে আসছে। ভারতের করোনার প্রথম ঢেউয়ে ভাইরাসটি এত দ্রুত ছড়ায়নি। কিন্তু দ্বিতীয় ঢেউয়ে এটি অপেক্ষাকৃত দ্রুত ছড়িয়েছে। ভাইরাসটি এখন ক্রমাগত বেশি শক্তিশালী হয়ে উঠেছে।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর