× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতাখোশ আমদেদ মাহে রমজানস্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তীসেরা চিঠি
ঢাকা, ৩১ জুলাই ২০২১, শনিবার, ২০ জিলহজ্জ ১৪৪২ হিঃ

ওয়াসাকে বিএনপির স্মারকলিপি প্রদান

অনলাইন

স্টাফ রিপোর্টার
(১ মাস আগে) জুন ২৪, ২০২১, বৃহস্পতিবার, ৩:১০ অপরাহ্ন

পানির দাম ফের বৃদ্ধির সিদ্ধান্তের প্রতিবাদে ওয়াসাকে স্মারকলিপি দিয়েছে বিএনপি। ঢাকা মহানগর দক্ষিণ ও উত্তর শাখা বিএনপির উদ্যোগে বৃহস্পতিবার এ স্মারকলিপি প্রদান করা হয়।

ঢাকা ওয়াসার ব্যবস্থাপনা পরিচালক বরাবর পাঠানো স্মারকলিপিতে বলা হয়, জীবনধারণের অতি আবশ্যকীয় পানির মূল্য বৃদ্ধির এই সিদ্ধান্ত সম্পূর্ণরুপে অযৌক্তিক ও গণবিরোধী।নিরবচ্ছিন্নভাবে সুপেয় ও নিরাপদ পানি সরবরাহ নিশ্চিত করা সরকারের নৈতিক দায়িত্ব ও কর্তব্য, কিন্তু দুঃখজনক হলেও সত্য যে, ওয়াসা কর্তৃপক্ষ সেটি করতে ব্যর্থ হচ্ছে। বারবার অযৌক্তিকভাবে পানির দাম বৃদ্ধি করা সরকারের ধারাবাহিক কর্মকান্ডে পরিণত হয়েছে, কিন্তু নগরবাসীর জন্য সুপেয় ও নিরাপদ পানি সরবরাহ করতে পারেনি।

লিখিত স্মারকলিপিতে বলা হয়, বর্তমান সরকারের আমলে বিগত ১৩ বছরে ১৪ বার পানির দাম প্রায় তিন গুন বৃদ্ধি করা হয়েছে, কিন্তু তাতে নগরবাসীর ভোগান্তি কমে নাই, বরঞ্চ নাগরিক জীবনে নাভিশ্বাস উঠেছে। বারবার পানির দাম বৃদ্ধিতে ঢাকার নাগরিকদেরকে পানি নিয়ে একদিকে যেমন নানা দুর্দশা ও বিড়ম্বনার শিকার হতে হয়েছে, অন্যদিকে নতুন নতুন সমস্যার সৃষ্টি হয়েছে, সংকট দুরীকরণে কার্যকর কোন পদক্ষেপ গ্রহণ করা হয় নাই। সরবরাহকৃত পানিতে ময়লা ও দুর্গন্ধ থাকায় নাগরিকরা চরম দুর্ভোগের শিকার ও নানা রোগে আক্রান্ত হচ্ছেন। কোন কোন এলাকায় ওয়াসার সরবরাহকৃত পানি এতটাই দুষিত যে, তা পান ও ব্যবহার অযোগ্য।


স্মারকলিপিতে আরো বলা হয়, একটি আন্তর্জাতিক সংস্থার সমীক্ষায় দেখা গেছে-ওয়াসার পানির মান অতিমাত্রায় নিম্ন হওয়ার কারণে ৯৩ শতাংশ গ্রাহক বিভিন্ন পদ্ধতিতে পানি বিশুদ্ধ করে তা পান ও ব্যবহার করে থাকেন। যে কারণে মহানগরীতে সুপেয়, বিশুদ্ধ পানির জন্য হাহাকার দেখা যায়। অথচ সরকার এই সমস্যাগুলো আমলে না নিয়ে প্রতিবছর পানির মূল্য বৃদ্ধির মতো গণবিরোধী সিদ্ধান্ত নিয়ে জনজীবনকে বিপন্ন করে তুলেছে। মহামারী করোনাকালে নাগরিকরা যখন তীব্র আর্থিক সংকটে নিপতিত ও কর্মহীন হয়ে পড়ছেন, আয়-রোজগার সংকুচিত হয়ে যাচ্ছে, নতুন করে বেকার ও দারিদ্রের সংখ্যা বেড়েই চলেছে, তখন ঢাকা ওয়াসা’র পানির দাম বৃদ্ধির সিদ্ধান্ত অমানবিক, অনাকাঙ্খিত, অযৌক্তিক, মৌলিক অধিকারের পরিপন্থী ও গণবিরোধী-যা নগরবাসীর জন্য ‘মরার ওপর খাঁড়ার ঘা’। করোনা মহামারীর এই দুঃসময়ে পানির দাম বৃদ্ধি করা হলে জনজীবনে বিরাজমান নাভিশ্বাস আরও বৃদ্ধিসহ জীবনযাত্রার ব্যয়ও বাড়বে।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর