× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতাখোশ আমদেদ মাহে রমজানস্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তীসেরা চিঠি
ঢাকা, ২১ সেপ্টেম্বর ২০২১, মঙ্গলবার , ৬ আশ্বিন ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ১২ সফর ১৪৪৩ হিঃ

সারা দেশে মডেল যশোদল আশ্রয়ণ প্রকল্প

দেশ বিদেশ

আশরাফুল ইসলাম, কিশোরগঞ্জ থেকে
১ আগস্ট ২০২১, রবিবার

মুক্তিযুদ্ধকালীন বাংলাদেশ সরকারের অস্থায়ী প্রেসিডেন্ট, জাতীয় চার নেতার অন্যতম শহীদ সৈয়দ নজরুল ইসলামের স্মৃতিধন্য কিশোরগঞ্জ সদর উপজেলার যশোদল ইউনিয়ন। এই ইউনিয়নের দামপাটুলী গ্রামটি যেন বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নময় সোনার বাংলার চিত্রকেই নতুন করে উদ্ভাসিত করেছে। প্রধানমন্ত্রীর উপহার দেশের হতদরিদ্র, গৃহহীন ও দুস্থ পরিবারকে আধাপাকা ঘর দেয়ার সরকারি প্রকল্পের আওতায় স্থানীয় প্রশাসনের তত্ত্বাবধানে যশোদল আশ্রয়ণ প্রকল্পের নামে গড়ে তোলা হয়েছে এক অসাধারণ ও দৃষ্টিনন্দন আবাসিক চত্বর। এখানে টেকসই ২২টি ঘরই শুধু নির্মাণ করা হয়নি, এখানকার প্রতিটি ঘরে রান্নাবান্নার জন্য এলপি গ্যাসের সুবিধা সংবলিত চুলা স্থাপন করা হয়েছে, রয়েছে শিশুদের খেলাধুলার জন্য একটি ছোট্ট মাঠ, প্রকল্পের পাশেই গড়ে তোলা হয়েছে একটি ছোট্ট পার্ক, পার্কে বসার জন্য সিমেন্ট ও টাইলস্‌ এ নির্মিত সুদৃশ্য বেঞ্চ এবং বয়স্কদের হাঁটাচলা ও শারীরিক কসরতের জন্য সময়োপযোগী রাস্তাও নির্মাণ করা হয়েছে। এছাড়া সাবমার্সিবল টিউবওয়েল থেকে ঠাণ্ডা ও বিশুদ্ধ পানির ব্যবস্থাও করা হয়েছে সেখানে। দেশের বিভিন্ন এলাকায় আশ্রয়ণ প্রকল্পে নিম্নমানের কাজ করার যেসব অভিযোগ উঠেছে, তার বিপরীতে কিশোরগঞ্জের এই আশ্রয়ণ প্রকল্পটি যেন সচ্ছতা ও জবাবদিহিতার এক নতুন উদাহরণ তৈরি করেছে।
গত শুক্রবার অতিমারি করোনার মধ্যে যথাযথভাবে স্বাস্থ্যবিধি অনুসরণ করে এক অনাড়ম্বর অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে নির্মিত ঘরগুলো স্থানীয় ২২টি হতদরিদ্র ও অসহায় পরিবারের মধ্যে হস্তান্তর করা হয়েছে। এ উপলক্ষে আয়োজিত অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ শামীম আলম। এতে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন কিশোরগঞ্জ-১ (সদর-হোসেনপুর) আসনের সংসদ সদস্য ডা. সৈয়দা জাকিয়া নূর লিপি।
গৃহ হস্তান্তর আনুষ্ঠানিকভাবে উদ্বোধনের পর বক্তব্য রাখতে গিয়ে ডা. সৈয়দা জাকিয়া নূর লিপি এমপি বলেন- মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা ঘোষণা দিয়েছিলেন, দেশে কোনো মানুষ গৃহহীন থাকবে না। আশ্রয়ণ প্রকল্পের মাধ্যমে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী তার সেই প্রতিশ্রুতি রক্ষার কার্যক্রম শুরু করেছেন। এই কার্যক্রম আরও বিস্তৃত হবে। প্রতিটি ইউনিয়নে এ রকম গৃহ নির্মাণ করে গৃহহীনদের মধ্যে বিতরণের কাজ চলছে। একটি মানুষও যাতে গৃহহীন না থাকে, কেউ যাতে অনাহারে না ভোগে তা নিশ্চিত করার জন্য সরকার কাজ করে যাচ্ছে। সেদিন খুব বেশি দূরে নয়, যেদিন আমরা পুরো বাংলাদেশকেই বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের সোনার বাংলায় পরিণত করতে পারবো।
জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ শামীম আলম বলেনন, মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর স্বপ্নের এই আশ্রয়ণ প্রকল্পের প্রথম ধাপেই আমরা যশোদল ইউনিয়নকে নির্বাচন করেছি। কারণ মহান মুক্তিযুদ্ধে এই ইউনিয়নের গৌরবোজ্জ্বল ভূমিকা জাতি ভুলে যায়নি। বঙ্গবন্ধুর অনুপস্থিতিতে মহান মুক্তিযুদ্ধে বিচক্ষণতার সঙ্গে যিনি নেতৃত্ব দিয়েছিলেন সেই মহান পুরুষ, প্রবাসী সরকারের অস্থায়ী রাষ্ট্রপতি শহীদ সৈয়দ নজরুল ইসলাম এই যশোদল ইউনিয়নের বীরদামপাড়া গ্রামে জন্ম  নিয়েছিলেন। মহান নেতার এই জন্ম-মৃত্তিকায় সে কারণেই আমরা প্রথম পর্যায়ে এই আশ্রয়ণ প্রকল্প বাস্তবায়ন করেছি। আজ যারা এই প্রকল্পে ঘর পেলেন সবার প্রতি অনুরোধ থাকবে, আপনারা মুক্তিযুদ্ধের কথা, বঙ্গবন্ধুর কথা, সৈয়দ নজরুল ইসলামের কথা এবং সর্বোপরি মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কথা ও তার এই জনবান্ধব অবদানেরর কথা ভুলে যাবেন না।
কিশোরগঞ্জ সদর উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. আব্দুল কাদির শিপু বলেন, দামপাটুলী গ্রামের এই আশ্রয়ণ প্রকল্পে যাতে কোনোভাবেই নিম্নমানের কাজ হতে না পারে, সে জন্য জেলা প্রশাসকের নির্দেশে আমি সব সময় নিবিড়ভাবে কাজ তদারক করেছি। ইনশাআল্লাহ আমরা সফল হয়েছি। সারা বাংলাদেশের মধ্যে কাজের মান ও সুযোগ-সুবিধার দিক থেকে এই আশ্রয়ণ প্রকল্প একটি মডেল হিসেবে বিবেচিত হবে।
ঘর বরাদ্দ পাওয়া দামপাটুলী গ্রামের বাচ্চু মিয়া (৪৫), মধ্যপাড়া গ্রামের মোছা. কমলা (৩২), একই গ্রামের আয়েশা আক্তার (৪০) ও আমাটিশিবপুর গ্রামের ফাতিমা (৪২) সহ অন্যরা এমন সুন্দর সুযোগ-সুবিধা সম্পন্ন ঘর পেয়ে চোখের পানি ধরে রাখতে পারেননি। তারা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা জানান।
অনুষ্ঠানে অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন- উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মামুন আল মাসুদ খান, সহকারী কমিশনার (ভূমি) সাগুপ্তা হক, ভাইস চেয়ারম্যান মো. আব্দুস সাত্তার, মাছুমা আক্তার, উপজেলা প্রকৌশলী মো. জুনায়েত আলম, পিআইও মোহাম্মদ শহীদ উল্লাহ, যশোদল ইউপি চেয়ারম্যান ইমতিয়াজ সুলতান রাজন প্রমুখ।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর