× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতাখোশ আমদেদ মাহে রমজানস্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তীসেরা চিঠি
ঢাকা, ২১ সেপ্টেম্বর ২০২১, মঙ্গলবার , ৬ আশ্বিন ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ১২ সফর ১৪৪৩ হিঃ

র‍্যাবের জেরাতে পর্নো ভিডিওর খবর ফাঁস করেছেন পরীমনি: ভারতীয় গণমাধ্যম

অনলাইন


(১ মাস আগে) আগস্ট ৫, ২০২১, বৃহস্পতিবার, ৮:০৫ অপরাহ্ন

আলোচিত নায়িকা পরীমনি ও প্রযোজক নজরুল ইসলাম রাজের বাসায় বুধবার তল্লাশি চালিয়ে তাদের গ্রেপ্তার করেছে র‍্যাব (র‍্যাপিড একশান ব্যাটালিয়ন)।  র‍্যাব জানিয়েছে, বুধবার বিকেলে সুনির্দিষ্ট কিছু অভিযোগের ভিত্তিতে পরীমনির বাসায় অভিযান পরিচালনা করা হয়। এ সময় বিভিন্ন মাদকদ্রব্য উদ্ধার করা হয়। এরপর প্রযোজক ও অভিনেতা নজরুল ইসলাম রাজের বাসা থেকেও বিপুল পরিমাণ মাদক ও সিসার সরঞ্জাম জব্দ করা হয়।

কি সেই সুনির্দিষ্ট অভিযোগ, তা নিয়ে শুরু হয় ব্যাপক জল্পনা। মূলধারার গণমাধ্যম বিভিন্ন সূত্রে জানিয়েছে, পরীমনি ও তার পরিচিত কয়েক জনের বিরুদ্ধে পর্নোগ্রাফি ও ব্ল্যাকমেইলের অভিযোগ পাওয়া গেছে। সেই অভিযোগের ভিত্তিতেই র‍্যাব ওই অভিযান পরিচালনা করে।

ভারতীয় বেশকিছু গণমাধ্যমেও পরীমনির সাথে পর্নোগ্রাফি জড়িয়ে বিভিন্ন প্রতিবেদন প্রকাশিত হয়েছে। এশিয়ানেট নিউজ বাংলার এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে- পরীমনি ব়্যাবের জেরায় নজরুল সম্পর্কে বহু গুরুত্বপূর্ণ তথ্য ফাঁস করে দিয়েছেন বলে খবর। এই খবরের ভিত্তিতেই বুধবার ঢাকার বনানীতে রাজ মাল্টিমিডিয়ার কর্ণধার প্রযোজক ইসলাম নজরুল রাজ-এর বাড়িতে তল্লাশি অভিযান করে ব়্যাব। এই তল্লাশি অভিযানে নজরুলের বাড়িতে যেমন বেহিসেবি বিদেশি মদ এবং মাদক উদ্ধার হয়, ঠিক তেমনি একটি ঘরের সন্ধানও মেলে।
যেখানে একটি বিছানার উপর যৌন ক্রীড়ায় ব্যবহৃত নানা ধরনের সরঞ্জাম পাওয়া গিয়েছে। এই ঘরটি রাজ মাল্টিমিডিয়ার শ্যুটিং-এর জন্য ব্যবহৃত হতো। কী কাজ হতো এখানে? ব়্যাবের এমন প্রশ্নের উত্তরে অনেক ঢোক গেলার পর নজরুল স্বীকার করেছেন সেখানে পর্নো ভিডিও-র শ্যুটিং হতো। সেই কারণে যৌন ক্রীড়ায় ব্যবহৃত সরঞ্জাম সেখানে রাখা থাকত।

প্রতিবেদনে লেখা হয়- জেরায় পরীমনি এও জানিয়েছে যে, নিজের বাড়িতে পার্টির আয়োজন করত নজরুল। আর সেখানে আমন্ত্রিত থাকতেন সমাজের বিত্তশালী পরিবারের ছেলে-মেয়েরা। পার্টিতে এসে অকাতরে মদ্যপান এবং মাদক নেওয়ার ভিডিও নাকি ক্যামেরাবন্দি করত নজরুলের ঠিক করা লোকজন। পরে সেই ভিডিও দেখিয়ে বিত্তশালী পরিবারের ছেলে-মেয়েদের ব্ল্যাকমেলিং-ও করত নজরুল। আদায় করা হত মোটা অঙ্কের টাকা। ব়্যাব অবশ্য এই বিষয়ে এখনও সরাসরি কোনও মন্তব্য করেনি।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
পাঠকের মতামত
**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।
monir
৬ আগস্ট ২০২১, শুক্রবার, ৫:২২

ক্রেতা সাধারনের নাম প্রকাশ করুন ।

মোঃ সাহারুল ইসলাম
৫ আগস্ট ২০২১, বৃহস্পতিবার, ১০:২৪

পিয়াসা,মৌ,পরিমনির মতো দেহ পসারিণীদের হাত থেকে দেশের যুব সমাজ ও ভবিষ্যৎ প্রজন্মকে বাচাতে বিদ্যমান আইনের সংস্কার ও আইনের সঠিক প্রয়োগ করতে হবে। সরকারকে কঠোর হতে হবে। জনসচেতনতা বারাতে হবে। মিডিয়ার সহযোগী ভূমিকা পালন করতে হবে।

আমিক
৬ আগস্ট ২০২১, শুক্রবার, ১২:৫৩

ভারতীয় গন মাধ্যমে বাংলাদেশের খবর ছাপা হচ্ছে আর সে খবর তুলে এনে ছাপাচ্ছে বাংলাদেশের পত্রিকা! আর কত কৌতুক দেখতে হবে? নির্লজ্জ পরিমনির প্রতি আমার কোন শ্রদ্দ্ধা বা মমতা নাই কিন্তু তার নামে প্রমান ছাড়া লাগামহীন নোংরা কাহিনি রটানোও কোন সুস্থ বিবেক বোধের মধ্যে পড়েনা। এতে কিছু লোকের উটকো মানসিকতার তৃপ্তি হতে পারে কিন্তু সমাজের বিবেক আরও কলুষিত হয়। একদিন দেখা যাবে কোন একজন নিরীহ ভালো মানুষের নামে সন্দেহের বশে নোংরা অশ্লীল কাহিনী রটানো শুরু হয়ে গেছে।

অন্যান্য খবর