× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতাখোশ আমদেদ মাহে রমজানস্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তীসেরা চিঠি
ঢাকা, ১৯ অক্টোবর ২০২১, মঙ্গলবার , ৪ কার্তিক ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ১১ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩ হিঃ

সোনাইমুড়ীতে তালাকপ্রাপ্ত স্ত্রীকে অপহরণের অভিযোগ

বাংলারজমিন

সোনাইমুড়ী (নোয়াখালী) প্রতিনিধি
২০ সেপ্টেম্বর ২০২১, সোমবার

নোয়াখালীর সোনাইমুড়ীতে তালাকপ্রাপ্ত স্ত্রীকে ভাড়াটে সন্ত্রাসী দিয়ে আগের স্বামী রাশেদুল ইসলাম অপহরণ করেছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ বিষয়ে অপহৃতার বাবা আবুল কালাম বাদী হয়ে সোনাইমুড়ী থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন।
অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, উপজেলার জয়াগ ইউনিয়নের মাহুতলা আইয়ুব উল্যার নতুন বাড়ির মৃত আইয়ুব উল্যাহর ছেলে মাওলানা রাশেদুল ইসলামের সঙ্গে ২০১৮ সালের ২৬শে জানুয়ারি পারিবারকভাবে ফাতেমার বিয়ে হয়। গত ৩ মাস পূর্বে প্রথম স্ত্রী ২ সন্তানের জননী ফাতেমাকে রেখে রাশেদুল তার মাদ্রাসার এক ছাত্রীকে দ্বিতীয় বিয়ে করে। বিয়ের পর প্রথম স্ত্রী নোয়াখালী চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে যৌতুক নিরোধ আইনে একটি মামলা দায়ের করে। ওই মামলা চলমান থাকা অবস্থায় গত ২ মাস পূর্বে প্রথম স্ত্রীকে মোহরানা পরিশোধ না করেই কয়েকজন সাক্ষীর উপস্থিতিতে মৌখিকভাবে তালাক দেয়। তালাকের পর উপজেলার ভাওরকোট হাজী বাড়ির বাবার বাড়ি থেকে গত ১৪ই আগস্ট নদনা মারকাযুন নূর মহিলা মাদ্রাসায় শিক্ষিকা হিসেবে চাকরি নেন। ১৮ই সেপ্টেম্বর মাদ্রাসা ছুটির পর তার ২ সন্তান ও তার বাবা আবুল কালামসহ সিএনজি যোগে নদনা থেকে জয়াগ যাওয়ার পথে পাঁচ বাড়িয়া পেশকার রোড নামক স্থানে পাকা রাস্তার ওপর রাশেদুল ও কয়েকজন ভাড়াটে সন্ত্রাসী গাড়ির গতিরোধ করে।
এ সময় রাশেদুল ইসলাম ও সন্ত্রাসীরা ২টি সিএনজি ও ২টি মোটরসাইকেল যোগে এসে বাদী আবুল কালামকে সিএনজি থেকে জোরপূর্বক টেনেহিঁচড়ে ও মারধর করে ধাক্কা দিয়ে ফেলে দিয়ে তার পকেটে থাকা নগদ ৬ হাজার টাকা ছিনিয়ে নিয়ে যায়। পরে ভিকটিম ফাতেমা ও তার দুই সন্তান তাহিদুল ইসলাম (৩) ও তাহসিনা আক্তার (১০ মাস) জোরপূর্বক অপহরণ করে সিএনজি যোগে সোনাইমুড়ীর দিকে নিয়ে যায়। এ সময় ফাতেমার বাবা আবুল কালামসহ কয়েকজন পথচারী সিএনজি আটকানোর চেষ্টা করে ব্যর্থ হয়। এই ঘটনায় ভুক্তভোগীর বাবা আবুল কালাম বাদী হয়ে ওইদিন (রোববার) রাতেই সোনাইমুড়ী থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন। সোনাইমুড়ী থানার ওসি তহিদুল ইসলাম জানান, এ ঘটনায় একটি অভিযোগ পেয়েছি। তদন্তপূর্বক আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
পাঠকের মতামত
**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।
ইমরান খান
২১ সেপ্টেম্বর ২০২১, মঙ্গলবার, ৮:০৫

সোনাইমুড়ী উপজেলার অধিবাসী হিসেবে জানতে পেরেছি মানবজমিনে সংবাদ প্রকাশের পর বিষয়টার মিমাংসা হয়েছে। ধন্যবাদ মানবজমিন কে এবং রিপোর্টকারী সাংবাদিক কে।

অন্যান্য খবর