× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতাখোশ আমদেদ মাহে রমজানস্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তীসেরা চিঠি
ঢাকা, ১৮ অক্টোবর ২০২১, সোমবার , ৩ কার্তিক ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ১০ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩ হিঃ

অনিয়মের অভিযোগে নৌকার দুই প্রার্থীর ভোট বর্জনের ঘোষণা

অনলাইন

অনলাইন ডেস্ক
(৪ সপ্তাহ আগে) সেপ্টেম্বর ২০, ২০২১, সোমবার, ১০:৪০ পূর্বাহ্ন
প্রতীকী ছবি

জালভোট, কেন্দ্রদখল আর অনিয়মের অভিযোগে নোয়াখালীর হাতিয়া উপজেলায় ভোট বর্জনের ঘোষণা দিয়েছেন আওয়ামী লীগ মনোনীত নৌকা প্রতীকের দুই চেয়ারম্যান প্রার্থী। ভোটগ্রহণ শুরুর এক ঘণ্টার মধ্যে বর্জনের ঘোষণা দেন তারা। নৌকার দুই চেয়ারম্যান প্রার্থী হলেন- হাতিয়ার ৯ নম্বর বুড়িরচর ইউনিয়নের আওয়ামী লীগের চেয়ারম্যান প্রার্থী জিয়া আলী মোবারক কল্লোল (নৌকা প্রতীক), ১০ নম্বর জাহাজমারা ইউনিয়নের আওয়ামী লীগের চেয়ারম্যান প্রার্থী এটিএম সিরাজ উল্যাহ (নৌকা প্রতীক)।

এছাড়া ভোটগ্রহণ শুরুর পর একই অভিযোগে বর্জনের ঘোষণা দেন ৫ নম্বর চরঈশ্বর ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী চেয়ারম্যান প্রার্থী আবদুল হালিম আজাদ (আনারস প্রতীক), ৮ নম্বর সোনাদিয়া ইউনিয়নের আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী চেয়ারম্যান প্রার্থী (মোটরসাইকেল প্রতীক) নূরুল ইসলাম, ১১ নম্বর নিঝুম দ্বীপ ইউনিয়নের আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী চেয়ারম্যান প্রার্থী (মোটরসাইকেল প্রতীক) মো. মেহেরাজ উদ্দিন। তাৎক্ষণিকভাবে সাংবাদিকদের তারা ভোটবর্জনের ঘোষণার কথা জানান। এর মধ্য দিয়ে হাতিয়ার সাত ইউপির নির্বাচনে পাঁচটিতেই চেয়ারম্যান প্রার্থীরা ভোট বর্জন করলেন।

এদিকে নৌকার প্রার্থীদের ভোটবর্জনের কারণ সম্পর্কে খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, হাতিয়া নিয়ন্ত্রণ করেন উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মোহাম্মদ আলী। ৯ নম্বর বুড়িরচর ও ১০ নম্বর জাহাজমারা ইউপিতে আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থীদের বাইরে বিকল্প প্রার্থী দিয়েছেন তিনি। ফলে ওই দুটি ইউপিতে ভোটগ্রহণ শুরুর পরপরই কেন্দ্রগুলো নিয়ন্ত্রণে নেন দলীয় বিদ্রোহী প্রার্থীরা। বিভিন্ন কেন্দ্রে অনিয়ম দেখে ভোটগ্রহণ শুরুর পরপরই বর্জনের ঘোষণা দেন নৌকার দুই প্রার্থী।।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
পাঠকের মতামত
**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।
শহীদ
২০ সেপ্টেম্বর ২০২১, সোমবার, ১২:২৬

ভাল সবার জন্য ভাল। খারাপ খারাপের জন্যও খারাপ।

Kazi
১৯ সেপ্টেম্বর ২০২১, রবিবার, ১০:০৫

অভিযোগ বিশ্বাস যোগ্য নয়। আওয়ামীলীগের রাজত্ব আর বিরোপীরা অনিয়ম করার সাহস পাবে । আসলে ঐ দুই অকাল কুষ্মাণ্ড এলাকায় জনপ্রিয় নয় । ভোটে হারবে ভয়।

Sujon
১৯ সেপ্টেম্বর ২০২১, রবিবার, ৯:৪৪

পাগল হওয়া ছাড়া আর কোন উপায় নেই

অন্যান্য খবর