× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতাখোশ আমদেদ মাহে রমজানস্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তীসেরা চিঠিইতিহাস থেকে
ঢাকা, ৫ ডিসেম্বর ২০২১, রবিবার , ২১ অগ্রহায়ণ ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ২৯ রবিউস সানি ১৪৪৩ হিঃ

স্টেজে ফিরছেন সংগীতশিল্পীরা

বিনোদন

ফয়সাল রাব্বিকীন
১৭ অক্টোবর ২০২১, রবিবার

গত প্রায় দুই বছর করোনা মহামারির কারণে স্টেজ শো প্রায় বন্ধ ছিল। মধ্যে কিছু সময়ের জন্য শো শুরু হলেও বার বার করোনা পরিস্থিতির অবনতি ও লকডাউনের পরে তা থেমে যায়। এদিকে দেশ-বিদেশে স্টেজে ব্যস্ত শিল্পী-মিউজিশিয়ানরাও পড়ে যান বিপাকে। শুধু তাই নয়, লকডাউনের প্রভাবে অনেক শিল্পী-মিউজিশিয়ানই পেশা বদলাতেও বাধ্য হন। প্রিয় পেশা ছেড়ে ঢাকা ছেড়ে স্থায়ী হওয়ার কঠিন সিদ্ধান্ত নেন গ্রামে। এভাবেই এই দুই বছরে হারিয়ে গেছেন স্টেজের অনেক নিয়মিত শিল্পী, মিউজিশিয়ান, ছোট ছোট সংগীতের দল-সংগঠনও। মহামারিতে আর্থিক অনটনের ফলে চিন্তার ভাঁজ পড়েছে কম বেশি সব শিল্পী-মিউজিশিয়ানদের মধ্যে। অনিশ্চিত একটি সময়ের দেখা পেয়েছেন তারা। তবে এরইমধ্যে করোনা পরিস্থিতির বেশ উন্নতি হয়েছে। সুখবর হলো, এরইমধ্যে  শিল্পী-মিউজিশিয়ানরা ফিরতে শুরু করেছেন স্টেজে। করোনা পরিস্থিতির উন্নতির পাশাপাশি সামনেই শীতের মৌসুম হওয়ায় স্টেজের শিল্পীরা আশার আলো দেখছেন। ইনডোরেই আয়োজন হচ্ছে  এসব শো। তবে শিল্পী-মিউজিশিয়ানরা চান ওপেন এয়ার কনসার্টেরও অনুমোদন দেয়া হোক। কারণ প্রতিটি সেক্টরের কাজই স্বাভাবিক গতিতে চলছে। শিল্পীরাও চান তাই স্বাভাবিক ছন্দে ফিরতে। এরইমধ্যে নভেম্বরে স্টেজে ফেরার কথা রয়েছে নগর বাউল জেমসের। জানা গেছে, নভেম্বর-ডিসেম্বরে শো-টাইম মিউজিকের আয়োজনে এ ব্যান্ড তারকা শো করবেন আমেরিকায়। একই আয়োজনে শো করার কথা রয়েছে কিংবদন্তি সংগীতশিল্পী সাবিনা ইয়াসমিনেরও। বিষয়টি নিয়ে ব্যান্ড তারকা জেমসের ম্যানেজার রুবাইয়াৎ ঠাকুর রবিন জানান, সব প্রস্তুতি শেষ। দ্রুতই স্টেজে ফিরবেন জেমস। দেশ-বিদেশে পছন্দমতো শোগুলোতেই তিনি পারফর্ম করবেন। অন্যদিকে দেশের ভেতর শো শুরু করেছেন জনপ্রিয় সংগীতশিল্পী রবি চৌধুরী, আঁখি আলমগীর, দিলশাদ নাহার কনা, প্রতীক হাসান, ইমরান মাহমুদুল, মৌসুমী আক্তার সালমা, ঝিলিক, লুইপা, ঐশী, কর্ণিয়া, কামরুজ্জামান রাব্বীসহ অনেকেই। বিষয়টি নিয়ে রবি চৌধুরী বলেন, অনেকদিন পর শো করলাম সম্প্রতি চট্টগ্রাম অফিসার্স ক্লাবে। তিন ঘণ্টা পারফর্ম করেছি। এভাবেই যেন শোগুলো নিয়মিত হয় সেটাই চাওয়া। এদিকে সংগীতশিল্পী কনা বলেন, স্টেজ শো একজন শিল্পীর প্রকৃত জায়গা। মন খুলে গাওয়ার ও শ্রোতাদের ভালোবাসা সরাসরি পাওয়ার মাধ্যম। শো ইনডোরে শুরু করেছি। সামনে যেন পুরোদমে স্টেজ শুরু হয় সেটাই চাই। কণ্ঠশিল্পী সালমা বলেন, এরইমধ্যে শো শুরু করেছি। এটা আশার একটি বিষয়। এই ধারা যেন অব্যাহত থাকে সেটাই চাইবো।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর