× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতাখোশ আমদেদ মাহে রমজানস্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তীসেরা চিঠিইতিহাস থেকে
ঢাকা, ৯ ডিসেম্বর ২০২১, বৃহস্পতিবার , ২৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ৪ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪৩ হিঃ

আরও ক’দিন হাসপাতালে থাকতে হবে খালেদা জিয়াকে

শেষের পাতা

স্টাফ রিপোর্টার
১৭ অক্টোবর ২০২১, রবিবার

বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার জ্বর এখনো নিয়ন্ত্রণে আসেনি। প্রতিদিন ওষুধ পরিবর্তন করে তার জ্বর কমানোর চেষ্টা করা হচ্ছে। বারবার জ্বর আসার কারণ খুঁজছে মেডিকেল বোর্ড। সেজন্য স্বাস্থের বেশকিছু পরীক্ষা করা হচ্ছে। রিপোর্টে দেখা গেছে, রক্তে প্রদাহের মাত্রা বেশি। চিকিৎসকের ভাষায়, ঈ-ৎবধপঃরাব ঢ়ৎড়ঃবরহ (ঈজচ)-এর লেভেল হাই। অর্থাৎ রক্তে সংক্রমণ আছে। এটিকে অ্যাবনরমাল বলে চিহ্নিত করেছেন চিকিৎসকরা।
আর রক্তের হিমোগ্লোবিনের ঘাটতি রয়েছে। যার মাত্রা ৯ গ্রামের কাছাকাছি। ডায়াবেটিসও খুব একটা নিয়ন্ত্রণে নেই। ইনসুলিনের মাত্রা ১২-১৩ এর মধ্যে উঠানামা করছে। ৮-১০ এর মধ্যের রাখার চেষ্টা করা হচ্ছে। সার্বিক দিক বিবেচনায় আরও বেশ কয়েকদিন হাসপাতালে থাকতে হবে বিএনপি চেয়ারপারসনকে।
খালেদা জিয়ার মেডিকেল বোর্ডের চিকিৎসকদের সঙ্গে কথা বলে এসব তথ্য পাওয়া গেছে। মেডিকেল বোর্ডের দুই চিকিৎসক বলেন, চিকিৎসায় খালেদা জিয়াকে আরও দশদিন এভার কেয়ার হাসপাতালে থাকতে হবে। রোববারও (আজ) বোর্ড পর্যালোচনা বৈঠক করবে। মূলত জ্বরই এখন খালেদা জিয়াকে ভোগাচ্ছে। এ কারণে তার খাবারের তেমন কোনো রুচি নেই। শরীরও দুর্বল।
উল্লেখ্য, শারীরিক পরীক্ষা-নিরীক্ষার জন্য গত মঙ্গলবার রাজধানীর এভারকেয়ার হাসপাতালে যান বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া। পরে চিকিৎসকদের পরামর্শে হাসপাতালে ভর্তি হন তিনি।
অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর