× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতাখোশ আমদেদ মাহে রমজানস্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তীসেরা চিঠিইতিহাস থেকে
ঢাকা, ৫ ডিসেম্বর ২০২১, রবিবার , ২১ অগ্রহায়ণ ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ২৯ রবিউস সানি ১৪৪৩ হিঃ

শ্রীনগরে অগ্নিকাণ্ডে দুই সন্তানসহ মা দগ্ধ, ছেলের মৃত্যু

বাংলারজমিন

শ্রীনগর (মুন্সীগঞ্জ) প্রতিনিধি
১৯ অক্টোবর ২০২১, মঙ্গলবার

শ্রীনগরে নিজ বাড়ির তৃতীয়তলার একটি শয়ন কক্ষে মা ও তার দুই ছেলে-মেয়ে অগ্নিদগ্ধ হয়েছেন। সোমবার রাত সাড়ে ৮টার দিকে উপজেলার কুকুটিয়া ইউনিয়নের পূর্ব মুন্সীয়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। তাদেরকে উদ্ধার করে শ্রীনগর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে এলে সেখানে ১ বছর বয়সী ছেলে আয়াতকে মৃত বলে ঘোষণা করেন কর্তব্যরত চিকিৎসক। মা খাদিজা আক্তার মিম (২৫) ও মেয়ে আয়শা আক্তার (২)কে আশংকা অবস্থায় ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের শেখ হাসিনা বার্ন ইউনিটে ভর্তি করা হয়েছে।
স্থানীয়রা জানায়, ওই গ্রামের হোসেন মৃধার ছেলে বাপ্পি মৃধার পাকা ভবনের তৃতীয় তলায় এই অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটে। আগুনের ধোঁয়া দেখে শয়ন কক্ষের দরজা ভেঙে মা সহ শিশু সন্তানদের উদ্ধার করে স্থানীয়রা। বাপ্পি মৃধা ঢাকার ইসলামপুরের বস্ত্র ব্যবসায়ী। তার স্ত্রী অগ্নিদগ্ধের শিকার খাদিজা আক্তার মিম কুকুটিয়া ইউনিয়নের ঝাপুটিয়া গ্রামের আব্দুল জলিল বেপারীর কন্যা।
প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, আগুনের বিষয়টি রহস্যজনক। এসি বিস্ফোরণের কোন চিহ্ন নেই। কয়েল থেকে আগুন লাগলে নিচ থেকে উপরের দিকে যেত। কিন্তু আগুন উপর থেকে নিচের দিকে নেমে এসেছে বলে বিষয়টি নিয়ে রহস্যের সৃষ্টি হয়েছে।

শ্রীনগর ফায়ার সার্ভিস ভারপ্রাপ্ত স্টেশন অফিসার মো. মাহফুজ রিবেন জানান, প্রাথমিকভাবে এখনও বিল্ডিংয়ে অগ্নিকান্ডের সূত্র জানা যায়নি।
বার্ন ইউনিটে উপস্থিত ঢাকা মহানগর (দক্ষিণ) আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক গোলাম সারোয়ার কবির ও কুকুটিয়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান বাবুল হোসেন বাবু। গোলাম সারোয়ার কবির জানান, কন্যা শিশুটিকে আইসিইউতে রাখা হয়েছে। কর্তব্যরত চিকিৎসক জানিয়েছেন তার শ্বাস নালি পুড়ে গেছে।
মুন্সীগঞ্জের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (শ্রীনগর সার্কেল) আসাদুজ্জামান ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন। শ্রীনগর থানার ওসি (তদন্ত) মো. কামরুজ্জামান জানান, বিষয়টি গুরুত্বের সাথে খতিয়ে দেখা হচ্ছে।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর