× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতাখোশ আমদেদ মাহে রমজানস্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তীসেরা চিঠিইতিহাস থেকে
ঢাকা, ১ ডিসেম্বর ২০২১, বুধবার , ১৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ২৫ রবিউস সানি ১৪৪৩ হিঃ

করোনায় মারা গেছেন ৮০,০০০ থেকে ১,৮০,০০০ স্বাস্থ্যকর্মী- বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা

বিশ্বজমিন

মানবজমিন ডেস্ক
(১ মাস আগে) অক্টোবর ২২, ২০২১, শুক্রবার, ১০:২২ পূর্বাহ্ন

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা বলেছে, করোনা ভাইরাস মহামারি সারাবিশ্বে স্বাস্থ্যকর্মীদের মারাত্মক ক্ষতি করেছে। এই মহামারিতে ৮০ হাজার থেকে ১ লাখ ৮০ হাজার স্বাস্থ্য কর্মী মারা যেয়ে থাকতে পারেন। এ তথ্য দিয়ে এজন্য টিকা দেওয়ার ক্ষেত্রে স্বাস্থ্যকর্মীদের অগ্রাধিকার দেয়ার আহ্বান জানিয়েছেন বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার মহাপরিচালক ড. টেডরোস আধানম ঘেব্রেয়েসাস। এর পাশাপাশি টিকা বিতরণে বৈষম্যের সমালোচনা করেছেন তিনি। করোনাভাইরাস মহামারিতে বিশ্বে ২০২০ সালের জানুয়ারি থেকে এ বছর মে পর্যন্ত ওইসব স্বাস্থ্যকর্মী মারা গিয়েছেন বলে তিনি উল্লেখ করেছেন। এর আগে একই সংস্থার আরো একজন কর্মকর্তা সর্তকতা দিয়ে বলেছেন, টিকার অভাবে আগামী বছরও এই মহামারি অব্যাহত থাকতে পারে। বিশ্বজুড়ে স্বাস্থ্যকর্মীর সংখ্যা প্রায় ১৩ কোটি ৫০ লাখ। সংস্থার মহাপরিচালক বলেছেন, ১১৯টি দেশের ডাটা অনুযায়ী বিশ্বজুড়ে গড়ে প্রতি পাঁচজন স্বাস্থ্যকর্মীর মধ্যে দু’জনকে পূর্ণাঙ্গ টিকা দেয়া হয়েছে। তবে অঞ্চলভেদে এবং অর্থনৈতিক গ্রুপের উপর ভিত্তি করে এই হার বিভিন্ন স্থানে বিভিন্ন রকম। তিনি বলেছেন, আফ্রিকায় প্রতি ১০ জন স্বাস্থ্যকর্মীর মধ্যে একজনেরও কম স্বাস্থ্যকর্মীকে পূর্ণাঙ্গ টিকা দেয়া হয়েছে। কিন্তু উচ্চ আয়ের দেশগুলোতে এই সংখ্যা প্রতি ১০ জনে ৮। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার সিনিয়র কর্মকর্তা ডক্টর ব্রুস আইলওয়ার্ড দরিদ্র দেশগুলোতে পর্যাপ্ত পরিমাণ টিকা দেয়ার ব্যর্থতার কথা জোর দিয়ে তুলে ধরেছেন। তিনি বলেছেন, এর ফলে করোনা মহামারি ২০২২ সালে সহজেই আরো গভীরে প্রবেশ করতে পারে। আফ্রিকা মহাদেশের মোট জনসংখ্যার শতকরা ২.৬ভাগেরও কম মানুষকে টিকা দেয়া হয়েছে। তবে অন্য উপমহাদেশগুলোতে এই সংখ্যা শতকরা 40 ভাগ। উল্লেখ্য বিশ্বের সবচেয়ে বেশি টিকা ব্যবহার করা হয়েছে উচ্চ আয়ের এবং মধ্যম আয়ের দেশগুলোতে। বৈশ্বিক হিসেবে আফ্রিকায় শুধুমাত্র শতকরা ২.৬ টিকা ব্যবহার করা হয়েছে।

জাতিসংঘ সমর্থিত টিকা বিতরণ বিষয়ক সংগঠন কোভ্যাক্স গঠনের লক্ষ্য ছিল দরিদ্র দেশগুলোতে টিকার সমবন্টন। বিশেষ করে উন্নত দেশগুলোর কাছ থেকে টিকা সংগ্রহ করে সেগুলো দরিদ্র দেশগুলোর কাছে পৌছে দেয়া। এ অবস্থায় ধনী দেশগুলোর কাছে আবেদন জানিয়েছেন ড. আইলওয়ার্ড।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর