× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতাখোশ আমদেদ মাহে রমজানস্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তীসেরা চিঠিইতিহাস থেকে
ঢাকা, ২৯ জানুয়ারি ২০২২, শনিবার , ১৫ মাঘ ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ২৫ জমাদিউস সানি ১৪৪৩ হিঃ

‘বায়ার্নকে হারিয়েই শেষ ষোলোয় খেলবে বার্সেলোনা’

খেলা

স্পোর্টস ডেস্ক
২৭ নভেম্বর ২০২১, শনিবার

মৌসুমের শুরু থেকেই ধুঁকছে বার্সেলোনা। উয়েফা চ্যাম্পিয়ন্স লীগে খুব বাজে শুরুর পর মাঝে ঘুরে দাঁড়ালেও ফের প্রতিযোগিতাটির গ্রুপ পর্ব থেকে ছিটকে যাওয়ার শঙ্কায় পড়েছে তারা। ভীষণ কঠিন চ্যালেঞ্জের সামনে দাঁড়িয়েও অবশ্য আত্মবিশ্বাসের কমতি নেই কাতলান ক্লাবটির সভাপতি হুয়ান লাপোর্তার। তার বিশ্বাস, বায়ার্ন মিউনিখকে তাদেরই মাঠে হারিয়ে পরের রাউন্ডে খেলবে বার্সা। নিজ মাঠে গত মঙ্গলবার বেনফিকার বিপক্ষে জিতলেই নকআউট পর্বের টিকিট নিশ্চিত হতো বার্সেলোনার। বরং গোলশূন্য ড্র করে বিদায়ের শঙ্কায় পড়ে গেছে তারা। পাঁচ ম্যাচের সবকটি জিতে ১৫ পয়েন্ট নিয়ে ‘ই’ গ্রুপের শীর্ষস্থান আগেই নিশ্চিত করেছে বায়ার্ন মিউনিখ। ৭ পয়েন্ট নিয়ে দুইয়ে আছে বার্সেলোনা।
৫ পয়েন্ট নিয়ে তিন নম্বরে বেনফিকা। বার্সেলোনার টিকে থাকতে গ্রুপ পর্বের শেষ রাউন্ডে হারাতে হবে শক্তিশালী বায়ার্নকে, নয়তো তাকিয়ে থাকতে হবে অন্য ম্যাচের দিকে। যেখানে দিনামো কিয়েভের বিপক্ষে বেনফিকা পয়েন্ট হারালে বার্সেলোনা নিজেদের ম্যাচে হারলেও পরের রাউন্ডে উঠবে।
বৃহস্পতিবার স্পেনের সংবাদমাধ্যম এএসকে লাপোর্তা বলেন, ‘বায়ার্নকে হারানো অসম্ভব নয়। মিরাকল হতে যাচ্ছে, আমি নিশ্চিত যে আমরা জিততে যাচ্ছি। জাভি  (কোচ) খুব অনুপ্রাণিত ও দৃঢ় মানসিকতার। আশা করি, সবকিছু আমাদের পক্ষে থাকবে। আমি মনে করি, এই সময়ে জাভির আগমনে আমরা প্রতিপক্ষের কাছ থেকে কিছুটা সম্মান বেশি পাচ্ছি। তারা জানে আমরা আবার নিজেদের সেরা ছন্দে ফিরতে পারি।’ বেনফিকার বিপক্ষে লড়াইটি ছিল
ঘরের মাঠে চ্যাম্পিয়ন্স লীগে বার্সেলোনার ১৩৩তম ম্যাচ। এর মাত্র আটটি ড্র। বাংলাদেশ সময় আগামী ৯ই ডিসেম্বর রাত ২টায় বায়ার্নের মাঠে খেলবে বার্সেলোনা। প্রথম দেখায় নিজমাঠে  ৩-০ গোলে হেরেছিল বার্সা। ইউরোপ সেরার মঞ্চে বার্সেলোনা সবশেষ গ্রুপ পর্বের বৈতরণী পার হতে ব্যর্থ হয়েছিল ২০০০-০১ মৌসুমে, সেবার গ্রুপে তাদের পেছনে ফেলে শেষ ষোলোতে জায়গা করে নিয়েছিল এসি মিলান ও লিডস ইউনাইটেড।
অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর