× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনরকমারিমত-মতান্তরবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে কলকাতা কথকতাসেরা চিঠিইতিহাস থেকেঅর্থনীতি
ঢাকা, ২৯ মে ২০২২, রবিবার , ১৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ২৭ শওয়াল ১৪৪৩ হিঃ

বাসপ পুরস্কার পেলেন বাংলাটিভির সিফাত আরা তাবাসসুম

দেশ বিদেশ

স্টাফ রিপোর্টার
২৯ নভেম্বর ২০২১, সোমবার
সর্বশেষ আপডেট: ৪:৪৭ অপরাহ্ন

সংবাদপাঠে বিশেষ অবদান রাখায় টিভি সংবাদ পাঠিকা ক্যাটাগরিতে বাংলাদেশ সাংস্কৃতিক পরিষদ (বাসপ) পুরস্কার-২০২১ পেয়েছেন বাংলাটিভির সিফাত আরা তাবাসসুম। গত ১৩ই নভেম্বর বিকাল ৪টায় কেন্দ্রীয় কচিকাঁচার মেলা মিলনায়তনে এই পুরস্কার হাতে তুলে দেন সাবেক তথ্য সচিব সৈয়দ মাগূব মোর্শেদ।

২১ বছর ধরে নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছে বাংলাদেশ সাংস্কৃতিক পরিষদ (বাসপ)। সংগঠনটি বিভিন্ন জেলা-উপজেলা ঘুরে খুঁজে বের করে সেই সব গুণী ব্যক্তিদের যারা দেশের জন্য এবং দেশের মানুষের জন্য জীবনের মায়া ত্যাগ করে নিরলসভাবে কাজ করেন। সেই ধারাবাহিকতায় ‘করোনা মহামারী সময়ে শিল্প-সাহিত্য ও সংস্কৃতির ভূমিকা কতটুকু’ শীর্ষক আলোচনা ও করোনাকালীন সময়ে বিভিন্ন ক্ষেত্রে কাজের স্বীকৃতি স্বরূপ গুণী ব্যক্তিদের বাসপ পুরস্কার-২০২১ প্রদান করা হয়। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন সংস্কৃতি প্রতিমন্ত্রী কে এম খালিদ। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন সাবেক তথ্য সচিব সৈয়দ মার্গূব মোর্শেদ। অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন বাসপ-এর চেয়ারম্যান বিশিষ্ট নাট্যকার ও নির্মাতা কবি রানা হোসেন।
অনুষ্ঠানে আরও উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ সংবাদ সংস্থার ব্যবস্থাপনা পরিচালক আবুল কালাম আজাদ, বঙ্গবন্ধু সেটেলাইট-১ এর চেয়ারম্যান ড. শাহাজাহান মাহমুদ, ঢাকা সাংবাদিক ইউনিয়নের সাবেক সভাপতি এলাহী নেওয়াজ খান, বাংলাদেশ কলেজ শিক্ষক সমিতি জেলা শাখার সভাপতি একে এম আবদুল আউয়াল, সংগীত শিল্পী ও তেজগাঁও কলেজের সহযোগী অধ্যাপক মাহবুবা বেগম। সংক্ষিপ্ত বক্তব্যে প্রধান অতিথি বলেন, আজ যাদের পুরস্কৃত করা হলো তাদের দায়িত্ব আরও বেড়ে গেল। তারা তাদের অবস্থান থেকে দেশ তথা দেশের মানুষের জন্য আগামী দিনগুলোতে আরও ভালো কিছু করবে- এটাই জাতির প্রত্যাশা।

সিফাত আরা তাবাসসুম বাংলাদেশের একজন প্রথম সারির সংবাদ পাঠিকা হিসেবে নিজেকে প্রমাণ করে চলেছেন দিনের পর দিন। তিনি ২০১৩ সালে জিটিভিতে যোগ দেন। সেই বছরই পান সেরা সংবাদ পাঠিকার পুরষ্কার।

ছোটবেলা থেকে সিফাত আরা তাবাসসুমের সংবাদ উপস্থাপনার ঝোঁক। পরিবারের উৎসাহে পড়াশোনার পাশাপাশি উপস্থাপনা নিয়ে নানা কোর্সে অংশ নিয়েছেন। ২০০৭ সালে এইচএসসি পরীক্ষার পর জবস ওয়ান ডট কমে নিউজ প্রেজেন্টার হিসেবে কোর্স সম্পন্ন করেন সিফাত। জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের অধীনে অর্থনীতিতে স্নাতক করার সময়েই নানান টিভি চ্যানেলে আবেদন করেন। ২০১৩ সালে জিটিভিতেই যাত্রা শুরু সিফাতের। সিফাত আরা তাবাসসুম জানান, ‘পুরস্কারপ্রাপ্তি কাজের প্রতি উৎসাহ অনেক বাড়িয়ে দেয়। নিজের মধ্যে আরো ভালো করার তীব্র বাসনা তৈরি করে। বাসপকে ধন্যবাদ আমার কাজের মূল্যয়নের জন্য।’

দীর্ঘ করোনাকালীন সময়ে বিশেষ অবদানের জন্য আরও যে সকল গুণী ব্যক্তিদের পুরস্কৃত করা হয় তারা হলেন- বিশিষ্ট মুক্তিযোদ্ধা ও নাট্য অভিনেতা আ. আজিজ, মাহবুবা বেগম (সংগীতশিল্পী), কবি অনিক আহমেদ বুলবুল, রুবাইয়াদ ইয়ানা (উপন্যাসিক), রেহনুমা মোস্তফা (অভিনেত্রী), শাকিলা সোবহান (সংবাদ পাঠিকা বাংলাভিশন), মাহামুদুর রহমান (সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্ব), মো. বাবুল রানা (সাংবাদিকতা), শেখ ওবায়দুল হক সম্রাট (সাংবাদিকতা), নজরুল ইসলাম সাগর (সাংবাদিকতা), পুষ্টিবিদ ফাতেমা খানম ছন্দা ও কবি আফসার আশরাফী। অনুষ্ঠান শেষে ‘থিয়েটার ৭১’ এর নাটক ‘আমরা তোমাদের ভুলবো না’ মঞ্চায়িত হয়। অনুষ্ঠান উপস্থাপনায় ছিলেন আনোয়ার পারভেজ ও ইসরাত।
অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর