× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতাখোশ আমদেদ মাহে রমজানস্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তীসেরা চিঠিইতিহাস থেকে
ঢাকা, ২২ জানুয়ারি ২০২২, শনিবার , ৮ মাঘ ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ১৮ জমাদিউস সানি ১৪৪৩ হিঃ

ফর্মে থেকেও অ্যাশেজে ‘অবহেলিত’ খাজা

খেলা

স্পোর্টস ডেস্ক
৫ ডিসেম্বর ২০২১, রবিবার

ক্রিকেটের সবচেয়ে মর্যাদাপূর্ণ দ্বিপাক্ষিক সিরিজ ‘অ্যাশেজ’ মাঠে গড়াচ্ছে ৮ই ডিসেম্বর। সেদিন গ্যাবায় প্রথম টেস্টে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে লাল বলের যুদ্ধে নামবে স্বাগতিক অস্ট্রেলিয়া। ম্যাচ শুরুর তিন দিন আগেই একাদশ ঘোষণা করে দিয়েছে স্বাগতিকরা। তবে ঘরোয়া লীগে দারুণ খেলেও বেস্ট ইলাভেনে জায়গা হয়নি বাঁহাতি ব্যাটার উসমান খাজার। টেস্টে অস্ট্রেলিয়ার হয়ে সর্বশেষ ২০১৯ অ্যাশেজে ব্যাট হাতে নেমেছিলেন পাকিস্তানি বংশোদ্ভূত এই ক্রিকেটার।
কুইন্সল্যান্ড অধিনায়ক খাজা এবারের শেফিল্ড শিল্ডে দারুণ ফর্ম দেখিয়েছেন। মৌসুম শুরু করেন ব্যাক-টু-ব্যাক সেঞ্চুরি দিয়ে। পাঁচ ম্যাচে সমান দুটি করে সেঞ্চুরি ও হাফসেঞ্চুরি হাঁকান তিনি। মাসখানেক আগে সাংবাদমাধ্যমকে দেয়া এক সাক্ষাতকারে খাজা বলেছিলেন, অ্যাশেজ একাদশে জায়গা পেলে যেকোনো পজিশনে ব্যাট হাতে নামতে প্রস্তুত তিনি।
তবে গ্যাবায় প্রথম টেস্টে ৫ নম্বর পজিশনের জন্য খাজাকে নয়, ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া বেছে নিয়েছে ট্রাভিস হেডকে। শেফিল্ড শিল্ডে ভালো করেছেন হেডও। সেঞ্চুরি হাঁকিয়েছেন দুটি।
গত তিন বছর অস্ট্রেলিয়ার নেতৃত্ব দিয়েছেন টিম পেইন। নারী কেলেঙ্কারির জেরে অধিনায়কত্ব ছাড়ার পর দল থেকেও বাদ পড়েছেন এই উইকেটরক্ষক ব্যাটসম্যান। এবারের অ্যাশেজে অস্ট্রেলিয়াকে নেতৃত্ব দেবেন পেসার প্যাট কামিন্স। কামিন্স ছাড়াও রয়েছেন আরও দুই পেসার। একাদশের একমাত্র স্পিনার নাথান লায়ন। টেস্টে অভিষেকের অপেক্ষায় রয়েছেন উইকেটরক্ষক-ব্যাটার আলেক্স ক্যারি।
প্রথম টেস্টের জন্য অস্ট্রেলিয়ার একাদশ:
মার্কাস হ্যারিস, ডেভিড ওয়ার্নার, মার্নাশ লাবুশেন, স্টিভ স্মিথ, ট্রাভিস হেড, ক্যামেরন গ্রিন, অ্যালেক্স ক্যারি, প্যাট কামিন্স (অধিনায়ক), মিচেল স্টার্ক, নাথান লায়ন, জশ হ্যাজলউড।
অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
পাঠকের মতামত
**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।
Nasir Tarafder
৬ ডিসেম্বর ২০২১, সোমবার, ৬:২৬

Because he is a Muslim and there is widespread racism in Australia, England does not fall far behind, recent Yorkshire racism scandal has exposed that once again, about Rafiq.

অন্যান্য খবর