× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতাখোশ আমদেদ মাহে রমজানস্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তীসেরা চিঠিইতিহাস থেকে
ঢাকা, ১৯ জানুয়ারি ২০২২, বুধবার , ৫ মাঘ ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ১৫ জমাদিউস সানি ১৪৪৩ হিঃ

ওমিক্রন ঝুঁকিতে হকি ও নারী সাফ চ্যাম্পিয়নশিপ

খেলা

স্পোর্টস রিপোর্টার
৬ ডিসেম্বর ২০২১, সোমবার

১১ই ডিসেম্বর শুরু হবে পাঁচ জাতির সাফ অনূর্ধ্ব-১৯ নারী ফুটবল চ্যাম্পিয়নশিপ আসর। যা চলবে ২০শে ডিসেম্বর পর্যন্ত। ১৪ই ডিসেম্বর মওলানা ভাসানি স্টেডিয়ামে শুরু হচ্ছে এশিয়ান চ্যাম্পিয়নস ট্রফি হকি। চ্যাম্পিয়নস ট্রফি হকি ফাইনাল অনুষ্ঠিত হবে আগামী ২৩শে ডিসেম্বর। চলতি মাসে ঢাকায় অনুষ্ঠিতব্য এই দুটি টুর্নামেন্টই করোনা ভাইরাসের নতুন ভ্যারিয়েন্ট ওমিক্রনের কারণে কিছুটা ঝুঁকির মধ্যে পড়েছে।
করোনা ভাইরাসের নতুন এই ভ্যারিয়েন্টের সংক্রমন রোধে এরইমধ্যে লকডাউন দেয়া হয়েছে বিভিন্ন দেশে। সংক্রমন এড়াতে বিভিন্ন দেশের সঙ্গে বিমান যোগাযোগ বন্ধ রাখার চিন্তা করছে বাংলাদেশ সরকার। এরইমধ্যে প্রবাসীদের এই মুহূর্তে দেশে আসতে নিরুৎসাহিত করছে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়।
ওমিক্রণ শনাক্ত হওয়া দেশগুলোর মধ্যে রয়েছে ভারত, মালয়েশিয়া, দক্ষিণ কোরিয়া ও জাপান। এই চারটি দেশই চ্যাম্পিয়নস ট্রফি খেলতে আসছে ঢাকায়। এ কারণেই হকি টুর্নামেন্টে ঝুঁকি একটু বেশি। যদিও সকল প্রস্তুতি সম্পন্ন করেছে বাংলাদেশ হকি ফেডারেশন। সফরকারী দলগুলোর ব্যাপারে
ফেডারেশনের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক মোঃ ইউসুফ বলেন, ‘ওসব দেশে শনাক্ত হলেও সংখ্যাটা খুবই কম। সেই দেশগুলোর সঙ্গে আমাদের এখনো ফ্লাইট যোগাযোগ রয়েছে। আমাদের সরকার শুধুমাত্র দক্ষিণ আফ্রিকা ও আফ্রিকা মহাদেশের সাতটি দেশের ব্যাপারে কোয়ারেন্টিন বেশি কড়াকড়ি করেছে। ফলে আমরা আমাদের প্রতিযোগিতা সম্পন্ন করার জন্য প্রস্তুতি চালিয়ে যাচ্ছি।’ ওমিক্রনের বিষয়টি টুর্নামেন্টের আয়োজক এশিয়ান হকি ফেডারেশনের দৃষ্টিতে রয়েছে বলে জানালেন ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক। এ বিষয়ে তিনি বলেন, ‘এশিয়ান হকি ফেডারেশনও বিষয়টি বিবেচনা করছে। ৮ই ডিসেম্বর এশিয়ান হকি ফেডারেশনের কর্মকর্তারা আবার বাংলাদেশে আসবেন। ওমিক্রন ও করোনা পরিস্থিতিতে নিরাপত্তা সুরক্ষা বলয় নিয়ে তখন আরো বিস্তারিত আলোচনা হবে।’
এদিকে সাফ অনূর্ধ্ব-১৯ নারী চ্যাম্পিয়নশিপে অংশগ্রহণকারী দেশগুলোর মধ্যে শুধুমাত্র ভারতেই ওমিক্রন শনাক্ত হয়েছে। এ নিয়ে তেমন চিন্তিত নয় বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশনের (বাফুফে) কর্মকর্তারা।
এ বিষয়ে বাফুফের নারী উইংয়ের চেয়ারম্যান মাহফুজা আক্তার কিরণ বলেন, ‘দক্ষিণ এশিয়ায় ওমিক্রন খুব একটা ধরা পড়ছে না। আমরা আমাদের প্রস্তুতি চালিয়ে যাচ্ছি। আশা করি নির্ধারিত সময়েই টুর্নামেন্ট ভালোভাবে শেষ করতে পারবো।’
অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর