× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতাখোশ আমদেদ মাহে রমজানস্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তীসেরা চিঠিইতিহাস থেকে
ঢাকা, ২৯ জানুয়ারি ২০২২, শনিবার , ১৫ মাঘ ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ২৫ জমাদিউস সানি ১৪৪৩ হিঃ

যেখানে সোবার্স-বোথামদের চেয়েও এগিয়ে সাকিব

খেলা

স্পোর্টস ডেস্ক
৯ ডিসেম্বর ২০২১, বৃহস্পতিবার

টেস্ট ক্রিকেটে দ্রুততম ৪ হাজার রান ও ২০০ উইকেটের রেকর্ড গড়লেন সাকিব আল হাসান। বাংলাদেশি অলরাউন্ডার ছাড়িয়ে গেছেন গ্যারি সোবার্স, ইয়ান বোথাম, কপিল দেব, জ্যাক ক্যালিস ও ড্যানিয়েল ভেট্টোরির মতো লিজেন্ডদের। টেস্টে ন্যূনতম ৪ হাজার রান ও ২০০ উইকেট নেয়া ষষ্ঠ অলরাউন্ডার সাকিব। ক্যারিয়ারের ৫৯তম টেস্টে এসে এই মাইলফলকের দেখা পেলেন দেশ সেরা এই ক্রিকেটার। বোথামের চেয়ে আরও ১০ টেস্ট কম লাগলো সাকিবের। সোবার্সের লেগেছে ৮০ ম্যাচ, ৯৭ ম্যাচ লেগেছে কপিল দেবের, ১০১ ম্যাচ ভেট্টোরির এবং ১০২ ম্যাচে এসে এই মাইলফলকের দেখা পান ক্যালিস।
ওয়েস্ট ইন্ডিজের কিংবদন্তি ক্রিকেটার সোবার্স ৯৩ টেস্টে ৮০৩২ রানের পাশাপাশি বল হাতে নেন ২৩৫ উইকেট। সাবেক ইংলিশ অলরাউন্ডার ইয়ান বোথামের ১০২ টেস্টে ৫২০০ রান ও ৩৮৩ উইকেট রয়েছে।
দক্ষিণ আফ্রিকার সাবেক তারকা ক্রিকেটার জ্যাক ক্যালিস ১৬৬ ম্যাচে ১৩২৮৯ রান এবং ২৯২ উইকেট নিয়েছেন। ভারতের বিশ্বকাপজয়ী অধিনায়ক কপিল দেব ১৩১ টেস্টে ৫২৪৮ রানের পাশাপাশি বল হাতে শিকার করেন ৪৩৪ উইকেট। আর নিউজিল্যান্ডের ড্যানিয়েল ভেট্টোরি ১১৩ ম্যাচে ৪৫৩১ রান ও বল হাতে নেন ৩৬২ উইকেট।
ঢাকা টেস্টের আগে এই সংস্করণে সাকিবের সংগ্রহ ছিল ৩৯৩৩ রান। প্রথম ইনিংসে ৩৩ রান করে আউট হন সাকিব। দ্বিতীয় ইনিংসে ৫৬তম ওভারে সাজিদ খানকে চার মেরে টেস্ট ৪ হাজার রানের মাইলফলক স্পর্শ করেন এই অলরাউন্ডার। শেষ পর্যন্ত থামেন ৬৩ রানে। সাকিবের আগে বাংলাদেশের হয়ে এই সংস্করণে ৪ হাজারি ক্লাবে প্রবেশ করেন মুশফিকুর রহীম ও তামিম ইকবাল। বল হাতে এখন পর্যন্ত সাকিবের শিকার ২১৫ উইকেট। টেস্টে বাংলাদেশের হয়ে সবচেয়ে বেশি উইকেট সাকিবেরই। ১০০ উইকেট নিয়ে দ্বিতীয় স্থানে রয়েছেন মোহাম্মদ রফিক। ২০১৮ সালে ঘরের মাঠে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে নিজের ৫৪তম টেস্টে বাংলাদেশের প্রথম বোলার হিসেবে দুশো উইকেট নেয়ার নজির গড়েন সাকিব। তাতে বোথামকে পেছনে ফেলে দ্রুততম ক্রিকেটার হিসেবে ২০০ উইকেট আর ৩ হাজার রানের অনন্য ডাবলসের কৃতিত্ব দেখান সাকিব।
অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর