× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনরকমারিমত-মতান্তরবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে কলকাতা কথকতাসেরা চিঠিইতিহাস থেকেঅর্থনীতি
ঢাকা, ২৯ মে ২০২২, রবিবার , ১৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ২৭ শওয়াল ১৪৪৩ হিঃ

রাঙ্গাবালীতে নির্বাচন পরবর্তী সহিংসতার মামলায় ১১ আসামি গ্রেপ্তার

বাংলারজমিন

রাঙ্গাবালী (পটুয়াখালী) প্রতিনিধি
১৭ জানুয়ারি ২০২২, সোমবার

চতুর্থ ধাপে অনুষ্ঠিত পটুয়াখালীর রাঙ্গাবালী উপজেলার চরমোন্তাজ ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচন (ইউপি) পরবর্তী সহিংসতা ও একজন নিহতের ঘটনার দুই মামলায় ১১ জন আসামিকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। গত শনিবার রাতে উপজেলার চরমোন্তাজ ইউনিয়নের সোনারচর সংলগ্ন বঙ্গোপসাগরে একটি  ট্রলারে অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেপ্তার করা হয়। গ্রেপ্তারকৃত আসামিরা হলেন- উপজেলার চরমোন্তাজ ইউনিয়নের পূর্ব নয়ারচর ৮ নম্বর ওয়ার্ডের গোলাম  মোস্তফার  ছেলে উজ্জ্বল (৩২), ইউসুফ মাঝির ছেলে  মো. রফিক মাঝি (৩০), ইউনুস মিয়ার ছেলে আ. রহমান (২৫), আব্দুল মালেক পাটোয়ারীর ছেলে রবি পাটোয়ারী (৩০), রশিদ পাটোয়ারীর ছেলে লিটন পাটোয়ারী (২৫), গগন আলীর ছেলে  হোসেন (৩৫),  আব্দুল মজিদ মৃধার ছেলে মিজানুর মৃধা (৩০),  আ. রহিম আলীর ছেলে মোসলেম উদ্দিন (২৫), শাহিন (২২), মো. বশির মিয়ার ছেলে আল আমিন (২২), হোসেন মাঝির ছেলে মহিউদ্দিন (২৫)। জানা গেছে, গত ২৬শে ডিসেম্বর অনুষ্ঠিত ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে উপজেলার চরমোন্তাজ ইউনিয়নের ৮ নম্বর ওয়ার্ড নয়ারচর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ভোটকেন্দ্রে এবং পুলিশের উপর হামলার ঘটনায় ২৭শে ডিসেম্বর  রাঙ্গাবালী থানায় দুটি মামলা হয়।এ বিষয়ে রাঙ্গাবালী থানার ওসি দেওয়ান জগলুল হাসান বলেন, নির্বাচন পরবর্তী সহিংসতার ঘটনায় দায়েরকৃত দুইটি মামলায় এজহারভুক্ত ১১ জন আসামিকে সোনারচর সংলগ্ন বঙ্গোপসাগরে ট্রলার থেকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। গ্রেপ্তারকৃত আসামিদের বিজ্ঞ আদালতে সোপর্দ করা হয়েছে।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর