× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনরকমারিমত-মতান্তরবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে কলকাতা কথকতাসেরা চিঠিইতিহাস থেকেঅর্থনীতি
ঢাকা, ২৯ মে ২০২২, রবিবার , ১৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ২৭ শওয়াল ১৪৪৩ হিঃ

চেয়ারম্যান ও কলেজ অধ্যক্ষ আটক

বাংলারজমিন

স্টাফ রিপোর্টার, নবীগঞ্জ থেকে
২৬ জানুয়ারি ২০২২, বুধবার

 নবীগঞ্জে পর্নোগ্রাফি নিয়ন্ত্রণ আইনে দায়েরকৃত মামলায় সদ্য বিজয়ী বড় ভাকৈর পশ্চিম ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান রঙ্গলাল দাশ ও তার সহোদর বিবিয়ানা কলেজের অধ্যক্ষ নৃপেন্দ্র চন্দ্র দাশকে কারাগারে পাঠিয়েছেন আদালত। এনিয়ে এলাকায় বিরূপ প্রতিক্রিয়া দেখা দিয়েছে। গত সোমবার সুনামগঞ্জ জেলার চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতের বিচারক মুহাম্মদ আবদুর রহিম জামিন নামঞ্জুর করে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেন। এ খবর নিশ্চিত করেন আইনজীবী মো. মাসুম আলম। আদালত ও মামলা সূত্র জানায়, ২০২০ সালের ১৫ই অক্টোবর উল্লেখিত দুই সহোদরের বিরুদ্ধে পর্নোগ্রাফি নিয়ন্ত্রণ আইনে মামলাটি করেন সুনামগঞ্জের দিরাই উপজেলার কুলঞ্জ ইউনিয়নের এক নারী। সূত্র জানায়, দিরাই উপজেলার বিবিয়ানা কলেজের অধ্যক্ষ নৃপেন্দ্র চন্দ্র দাশের সঙ্গে মামলার বাদীর প্রেমের সম্পর্ক ছিল। সে সময় গোপন ক্যামেরায় ধারণ করা অন্তরঙ্গ মুহূর্তের কিছু ছবি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে প্রচার করেন নৃপেন্দ্র চন্দ্র দাশ। এ ঘটনার জের হিসেবে ২০২০ সালের ১৫ই অক্টোবর দুই সহোদরকে আসামি করে পর্নোগ্রাফি নিয়ন্ত্রণ আইনে আদালতে মামলা করেন ওই নারী।
পরে মামলাটি তদন্ত করে সুনামগঞ্জ জেলা ডিবি পুলিশ। দীর্ঘ তদন্ত শেষে দুই সহোদরের বিরুদ্ধে আদালতে চার্জশিট দেয়া হয়। উচ্চ আদালত থেকে দায়েরকৃত মামলায় জামিন নেন দুই সহোদর। জামিনের মেয়াদ শেষে সোমবার দুপুরে চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে হাজির হয়ে জামিন আবেদন করেন। দীর্ঘ শুনানি শেষে আদালতের বিজ্ঞ বিচারক তাদের জামিন নামঞ্জুর করে কারাগারে প্রেরণ করেন।
অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর